২০ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সবচেয়ে বড় শহীদ মিনার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে

সবচেয়ে বড় শহীদ মিনার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে

ইবি সংবাদদাতা ॥ স্বাধীন বাংলাদেশের প্রথম পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় কুষ্টিয়ার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়। প্রতিষ্ঠার ৩২ বছর পর ২০১১ সালে প্রগতিশীল শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের দাবির প্রেক্ষিতে মহাজোট সরকারের সহযোগিতায় এই বিশ্ববিদ্যালয়ে নির্মাণ করা হয় একটি পূর্ণাঙ্গ শহীদ মিনার। এটি দেশের ক্যাম্পাস ভিত্তিক সর্ববৃহৎ শহীদ মিনার।

প্রকৌশল অফিস সূত্রে জানা যায়, ক্যম্পাস ভিত্তিক সর্ববৃহৎ শহীদ মিনারটির মূল বেদী থেকে ১১৬ ফুট দৈর্ঘ্য এবং ৭৫ ফুট প্রস্থ। মাটির ওপর থেকে মূল বেদী ৯ ফুট উপরে। শহীদ মিনারটির পিলারের মাঝে স্টিলের এসএস পাইপ দিয়ে যুক্ত। তিন পাশ দিয়ে ওঠার জন্য সুন্দর কারুকার্য খচিত সিরামিক ইট দিয়ে তৈরি সিড়ি। মূল বেদীতে অতি সহজে পঙ্গু ও প্রতিবন্ধিরা যাতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করতে পারে সেজন্য র‌্যাম্প তৈরি করা হয়েছে। মূল বেদীর মধ্যখানে লাল রঙের প্যাটার্ন রস্টান দিয়ে আবৃত। শহীদ মিনারটির মূল আয়তন ৪০০/২০০ বর্গফুট। মূল এরিয়ার চর্তুদিক দিয়ে স্থায়ীভাবে বক্স লাইটিং ও সার্চ লাইটিং এর ব্যবস্থা রয়েছে। শহীদ মিনারটি পূর্ণাঙ্গভাবে নির্মিত করতে প্রায় ১ কোটি টাকা ব্যয় হয়েছে বলে জানিয়েছেন প্রকৌশল অফিস। এটি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকের ভিতরে ৩০০ ফুট দক্ষিণ-পূর্ব কোনে অবস্থিত।

মহাজোট সরকার ক্ষমতায় আসার পর পরই ছাত্রলীগসহ প্রগতিশীল ছাত্র সংগঠন ও শিক্ষার্থীরা একটি পূর্ণাঙ্গ শহীদ মিনার স্থাপনের জোর দাবি জানায়। তাদের দাবির প্রেক্ষিতে বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের আদলে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে একটি পূর্ণাঙ্গ শহীদ মিনার স্থাপন করা হয়। এর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন সাবেক উপাচার্য বীর মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক ড. এম আলাউদ্দিন। ফলে শিক্ষার্থীদের দীর্ঘদিনের লালিত স্বপ্ন পূরণ হয়।