১৮ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

গোপালগঞ্জে মোটর শ্রমিক নেতাকে কুপিয়ে হত্যা

  • যুবক আটক

নিজস্ব সংবাদদাতা, গোপালগঞ্জ, ১৮ ফেব্রুয়ারি ॥ জেলা মোটর-শ্রমিক ইউনিয়নের সাবেক সভাপতি সাইদুর রহমান বাসুকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু ঘটে। এর আগে বুধবার রাত সোয়া আটটার দিকে শহরের মৌলভীপাড়ায় বাসায় ফেরার পথে কুয়াডাঙ্গা বাসস্ট্যান্ড এলাকায় অতর্কিতে কয়েকজন মুখোশধারীসহ ১৬-১৭ জনের একদল দুর্বৃত্ত তাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে ফেলে রেখে পালিয়ে যায়। এরপর স্থানীয় লোকজন তাকে গোপালগঞ্জ ২৫০-শয্যাবিশিষ্ট জেলারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে সেখান থেকে তাকে ঢাকা মেডিক্যালে পাঠানো হয় এবং রাতেই তাকে ঢাকা মেডিক্যালে ভর্তি করা হয়।

সকালে তার মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে স্থানীয় দু’টি গ্রুপের মধ্যে ধাওয়া পাল্টধাওয়াসহ সংঘর্ষ বাঁধে এবং ৭ জন আহত হয়। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নেয় এবং বাসু হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত সন্দেহে ঈমাম শেখ (২০) নামে এক যুবককে আটক করে। এ হত্যাকা-ের প্রতিবাদে জেলার অভ্যন্তরীণ রুটগুলোতে বাস চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

জানা যায়, জেলা মোটর-শ্রমিক ইউনিয়নের দু’টি গ্রুপের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে দলাদলি চলছিল। মোটর-শ্রমিক ইউনিয়নের কোন কমিটি না থাকায় গত ২৫ জানুয়ারি সর্বসম্মতিক্রমে একটি আহ্বায়ক কমিটি গঠন করা হয়। এই কমিটি ২ মাসের মধ্যে নির্বাচন করে নতুন কমিটি উপহার দেয়ার প্রতিশ্রুতি দেয়। অনেকে ধারণা করছেন, আসন্ন ওই নির্বাচন ঘিরেই বাসুর ওপর হামলা চালানো হতে পারে। ঘটনার পর থেকে কুয়াডাঙ্গা বাসস্ট্যান্ড এলাকাসহ পুলিশ-লাইন মোড়, হরিদাসপুর, ফকিরকান্দি এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। স্বাভাবিক পরিবেশ বজায় রাখতে প্রতিটি গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। বিকেল সোয়া ৪টার দিকে গোপালগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) সওগাতুল আলম জানিয়েছেন, বাসুর ওপর হামলার বিষয়টি পরিকল্পিত মনে হচ্ছে, তবে এখনও কোন লিখিত অভিযোগ পাওয়া যায়নি। পুলিশ বিষয়টি খতিয়ে দেখছে।