১১ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

হ্যালো-কিটি ভক্তদের কাণ্ড

তাইওয়ানের রেলওয়ে প্রশাসন (টিআরএ) দ্বীপ দেশটির উত্তর থেকে দক্ষিণ প্রান্ত পর্যন্ত বিশেষ রেল যোগাযোগ শুরু করেছিল। তাইপে থেকে তাইতুং পর্যন্ত (২৫৮ কিলোমিটার) তারাকো এক্সপ্রেসের বিশেষ ট্রেনটি সাজানো হয়েছিল জাপানী জনপ্রিয় কার্টুন চরিত্র হ্যালো-কিটির আদলে। কাপপিরিচ থেকে শুরু করে মাথার পেছনের রুমালটি পর্যন্ত সবখানে ছিল হ্যালো-কিটি। সোমবার প্রথম যাত্রার দিনটিতেই দেখা গেল ট্রেনের যাবতীয় তৈজসপত্র গায়েব।

টিআরএ’র হিসেব মতে এর ফলে তারাকো এক্সপ্রেসকে প্রায় ৫শ’ মার্কিন ডলার ক্ষতি গুনতে হয়েছে। কর্তৃপক্ষ যা ভেবেছিল বাসনপত্র, রুমাল চুরি হওয়াতে ক্ষতির পরিমাণ দাঁড়িয়েছে তার চেয়েও বেশি। চুরি ঠেকাতে এখন টিআরএ নতুন করে উদ্যোগ করতে হয়েছে। প্রধান লক্ষ্য দেশটির জনগণ এবং বিশেষ করে পর্যটকদের মধ্যে সচেতনতাবোধ তৈরি করা। এমন কি যাত্রীদের বসার সিটের মাথার পেছনের রুমালে এ কথাও লিখে দেয়া হয়েছে যে এই রুমাল এখানে ব্যবহারের জন্য, বাসায় নেয়ার জন্য নয়। এ ধরনের লেখা থাকায় হ্যালো-কিটি অনুরাগী নিশ্চয়ই বাসায় ওগুলো নিয়ে ধরা খেতে চাইবে না। Ñস্ট্রেইট টাইমস।