২১ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

পায়রা বিদ্যুত কেন্দ্র নির্মাণে চুক্তি সই

স্টাফ রিপোর্টার ॥ পায়রা এক হাজার ৩২০ মেগাওয়াট বিদ্যুত কেন্দ্রর নির্মাণ চুক্তি স্বাক্ষর হয়েছে। এর মধ্য দিয়ে দেশে প্রথম কোন সরকারী বৃহৎ কয়লাচালিত বিদ্যুত কেন্দ্রর নির্মাণ শুরু হতে যাচ্ছে। মহাজোট সরকার দায়িত্ব নেয়ার পর থেকে দেশে কয়লাচালিত বড় বিদ্যুত কেন্দ্র নির্মাণের প্রচেষ্টা চালিয়ে আসছে। এই উদ্যোগের প্রথমটি ছিল রামপাল বিদ্যুত কেন্দ্র। যদিও রাপমালকে পেছনে ফেলে এখন এগিয়ে গেল পায়রা।

বিদ্যুত কেন্দ্রটি নির্মাণ করবে বাংলাদেশ চায়না পাওয়ার কোম্পানি প্রাইভেট লিমিটেড (বিসিপিসিএল), যা দেশীয় কোম্পানি নর্থ ওয়েস্ট পাওয়ার জেনারেশন কোম্পানি লিমিটেড (এনডব্লিউপিজিসিএল) এবং চীনের রাষ্ট্রীয় কোম্পানি চায়না ন্যাশনাল মেশিনারি ইমপোর্ট এ্যান্ড এক্সপোর্ট কর্পোরেশনের (সিএমসি) একটি যৌথ মূলধনী কোম্পানি। বিদ্যুত কেন্দ্রটির অর্ধেক মালিকানা থাকবে বাংলাদেশ সরকারের।

বিদ্যুত কেন্দ্রটির ঠিকাদার হিসেবে কাজ করবে চীনের এনইপিসি এবং সিইসিসি নামের দুটি কনসোর্টিয়াম। বিদ্যুত কেন্দ্রটি নির্মাণে ১২ হাজার ২৮৪ কোটি ৫৫ লাখ ৬৫ হাজার ৯৪৩ টাকার চুক্তি হয়েছে এই দুই কোম্পানির সঙ্গে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় রাজধানীর হোটেল রেডিসন ব্লুতে চুক্তিতে বাংলাদেশ চায়না পাওয়ার কোম্পানির সচিব দীপক কুমার ঢালী এবং এনইপিসির পক্ষে কোম্পানির প্রেসিডেন্ট চায় মিং এবং সিইসিসির পক্ষে চেন ইউ চুক্তিতে নিজ নিজ পক্ষে স্বাক্ষর করেন।

চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীর জ্বালানি বিষয়ক উপদেষ্টা ড. তৌফিক-ই-ইলাহী চৌধুরী, মুখ্য সচিব আবুল কালাম আজাদ, জ্বালানি সচিব নাজিম উদ্দিন চৌধুরী, বিদ্যুত সচিব মনোয়ার ইসলাম, চীনের রাষ্ট্রদূত মা মিং সিং, সিএমসির চেয়ারম্যান ওয়াং সি সুং বক্তৃতা করেন।