২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

নির্মমভাবে কিশোর হত্যা ॥ দুই ঘাতক গ্রেফতার

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী ॥ রাজশাহীতে এক কিশোরকে হত্যা করে লাশ মাটিতে পুঁতে রাখা হয়েছে। একটি ব্যাটারিচালিত ভ্যানগাড়ির লোভে দুই মাদকাসক্ত যুবক তাকে ইট দিয়ে মাথা থেঁতলিয়ে হত্যা করে। বুধবার রাতে গোদাগাড়ী ও তানোর উপজেলার সীমান্তবর্তী পাকড়ির একটি খাল থেকে ওই কিশোরের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তার নাম হেফাজুল ইসলাম (১৩)। সে তানোর উপজেলার মুন্ডুমালার সাইফুদ্দিন ম-লের ছেলে। এ ঘটনায় জড়িত দুই ঘাতককেও পুলিশ গ্রেফতার করে। এরা হলো একই এলাকার চারপুকুরিয়া গ্রামের শ্রাবণ ওরফে শাওন (২৩) এবং ফারুক হোসেন (৩০)। এরা দুজনই মাদকাসক্ত বলে জানা গেছে।

গোদাগাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এসএম আবু ফরহাদ জানান, হেফাজুল ব্যাটারিচালিত ভ্যানের চালক। বুধবার সকালে মাদকাসক্ত দুই যুবক গোদাগাড়ীর পাকড়ি যাওয়ার কথা বলে হেফাজুলের ভ্যানটি ভাড়া করে। তারা গোদাগাড়ী ও তানোরের সীমান্ত এলাকার নির্জন খাড়ির কাছে এসে ভ্যানটি থামাতে বলে। সেখানেই ইট দিয়ে মাথা থেঁতলিয়ে হিফজুলকে হত্যা করে। পরে তার লাশটি খালের মধ্যে পুঁতে রেখে ভ্যানটি নিয়ে পালিয়ে যায়।

ওসি জানান, ভ্যানটি নিয়ে তারা রাজশাহী নগরীর কাশিয়াডাঙা এলাকায় বিক্রি করার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়ে একটি আম বাগানে ফেলে রেখে চলে যান। পরে হেফাজুলের সন্ধানে তার পরিবারের সদস্যরা ওই দুই যুবকের বাড়িতে হানা দিলে তাদের কথাবার্তায় সন্দেহজনক মনে হলে পুলিশে খবর দেয়। পরে পুলিশ দুই যুবককে আটক করে। এরপর পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদেই তারা হেফাজুলকে হত্যার কথা স্বীকার করে। পরে তাদের সঙ্গে নিয়েই তানোর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে হেফাজুলের লাশ উদ্ধার করে।

গৃহবধূর হাতে শাশুড়ি স্বামীর হাতে স্ত্রী খুন

নিজস্ব সংবাদদাতা, সাভার থেকে জানান, জমিসংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে সাভারে শাশুড়িকে কুপিয়ে হত্যা করেছে পুত্রবধূ। অপরদিকে আশুলিয়ায় যৌতুকের কারণে স্ত্রীকে শ^াসরোধ করে হত্যা করেছে পাষ- স্বামী।

জানা গেছে, জমিসংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে বৃহস্পতিবার সকালে সাভার সদর ইউনিয়নের কলমা জিনজিরা এলাকায় নিজ বাড়িতে সুফিয়ার (৫০) সাথে ঝগড়া হয় তার বড় ছেলে আমজাদ মিয়ার স্ত্রী দেলোয়ারা বেগমের। এ সময় বাড়িতে কেউ না থাকায় পুত্রবধূ দেলোয়ারা বেগম শাশুড়ি সুফিয়া বেগমের মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে আহত পালিয়ে যায়। পরে প্রতিবেশীরা রক্তাক্ত অবস্থায় সুফিয়াকে এনাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে এলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

অপরদিকে যৌতুকের টাকা না পেয়ে আশুলিয়ায় পোশাক শ্রমিক স্ত্রীকে শ^াসরোধ করে হত্যা করেছে পাষ- স্বামী।

বৃহস্পতিবার ভোরে আশুলিয়া থানাধীন কাঠগড়া এলাকার জনৈক মনির দেওয়ানের বাড়িতে এ হত্যাকা-ের ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, কিছুদিন ধরে স্ত্রী পারুল আক্তারকে (২০) তার পিত্রালয় থেকে কয়েক হাজার টাকা যৌতুক হিসেবে আনার জন্য চাপ দিয়ে আসছিল স্বামী শাওন মিয়া। এতে অস্বীকৃতি জানালে এদিন ভোর রাতে পারুলকে শ^াসরোধ করে হত্যা করে বাইরে থেকে কক্ষে তালা ঝুলিয়ে পালিয়ে যায় শাওন।

টাঙ্গাইলে দুই মৃতদেহ উদ্ধার

নিজস্ব সংবাদদাতা, টাঙ্গাইল থেকে জানান, ডিসি লেক ও মির্জাপুরের মহেড়া বাজার এলাকা থেকে দুটি মৃতদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার দুপুরে মৃতদেহ দুটি ময়নাতদন্তের জন্য টাঙ্গাইল মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, দুপুরে পৌর শহরের ডিসি লেক এলাকায় পানিতে একটি মৃতদেহ ভাসতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেয়। অন্যদিকে মির্জাপুর উপজেলার মহেড়া বাজারের পাশে একটি জঙ্গল থেকে এক মানসিক প্রতিবন্ধীর অর্ধগলিত মৃতদেহ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দিলে মৃতদেহটি উদ্ধার করে। দুইজনের পরিচয় পাওয়া যায়নি।

গফরগাঁওয়ে লাশ উদ্ধার

নিজস্ব সংবাদদাতা, গফরগাঁও থেকে জানান, পুলিশ এক অজ্ঞাত লোকের লাশ উদ্ধার করে। পুলিশ জানায়, বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলার চরআলগী ইউনিয়নের কোনাপাড়া এলাকার একটি খালে এক বৃদ্ধের লাশ পড়ে থাকতে দেখে এলাকাবাসী পুলিশে খবর দিলে তা উদ্ধার করা হয়।

নির্বাচিত সংবাদ