১৫ নভেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

রমজানে ভোগ্যপণ্যের বাজার অস্থির হওয়ার আলামত

  • চিটাগাং চেম্বারে দ্রব্যমূল্য ও আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক সভা

স্টাফ রিপোর্টার, চট্টগ্রাম অফিস ॥ রমজানকে সামনে রেখে ভোগ্যপণ্যের বাজার অস্থির হওয়ার আলামত পরিলক্ষিত হচ্ছে। পাইকারি ও খুচরা বাজারে বরাবরের মতো এবারও সক্রিয় সিন্ডিকেট। তবে প্রশাসন ও বিভিন্ন ব্যবসায়ী সংগঠনের পক্ষ থেকে বাজার স্থিতিশীল রাখতে সকল ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে বলে আশ্বাস প্রদান করা হয়েছে। রমজানকে সামনে রেখে চিটাগাং চেম্বার অব কমার্স এ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি আয়োজিত এক সভায় আলোচকগণ বাজার স্থিতিশীল রাখতে ভোক্তাদের সহায়তাও কামনা করেন। বিশেষ করে পুরো মাসের বাজার একসঙ্গে না করে প্রয়োজন অনুযায়ী কেনার অনুরোধ জানানো হয়েছে ক্রেতাদের প্রতি। এদিকে ভোগ্যপণ্যের মান ও মূল্য স্থিতিশীল রাখতে প্রশাসনের উদ্যোগেও ভ্রাম্যমাণ আদালতসহ প্রয়োজনীয় সকল ধরনের পদক্ষেপ থাকবে বলে আশ্বস্ত করা হয়েছে।

চিটাগাং চেম্বার অব কমার্স এ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি প্রতিবারই রমজানকে সামনে রেখে প্রশাসন, আমদানিকারক, পাইকারি ব্যবসায়ীদের নিয়ে মতবিনিময় করে থাকে। নগরীর আগ্রাবাদস্থ ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারের বঙ্গবন্ধু কনফারেন্স হলে বুধবার আয়োজিত এক সভায় রমজানে পোশাক ও ইফতার সামগ্রীর দাম মনিটরিং করা, প্রতিটি দোকানে মূল্য তালিকা টানানো, মিটারে সিএনজি ট্যাক্সি চলাচল বাধ্য করা, পাইকারি বাজারে খুচরা বিক্রেতাদের কাছে রসিদ প্রদান বাধ্যতামূলক করা, পচনশীল পণ্য ছাড়া দিনের বেলায় নগরীতে পণ্যবাহী ট্রাক প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা, ফলের বাজারে মনিটরিং এবং পণ্যের দর নিয়ন্ত্রণে রাখতে করণীয় বিষয়ে আলোচনা হয়। চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলমের সভাপতিত্বে এতে উপস্থিত ছিলেন সিএমপি কমিশনার ইকবাল বাহার, চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক মেজবাহ উদ্দিন ও জেলা পুলিশ সুপার একেএম হাফিজ আক্তার।

আলোচকগণ বলেন, রমজানে পণ্যের কৃত্রিম সঙ্কট তৈরি করে অধিক মুনাফা অর্জন করতে সক্রিয় থাকে অনেক মুনাফালোভী ব্যবসায়ী। এ ক্ষেত্রে হঠাৎ করে কোন পণ্যের ওপর বেশি চাপ যেন না পড়ে সেজন্য ক্রেতাদেরও দায়িত্বশীলতা প্রয়োজন। যেমন ছোলা, সয়াবিন, খেসারি, পেঁয়াজ, রসুন, আদাসহ রোজার পণ্যগুলো যদি হঠাৎ শুরুতেই পুরো মাসের জন্য কিনে ফেলা হয় তাহলে এক ধরনের সঙ্কট সৃষ্টি হয়। এ সুযোগে ব্যবসায়ীরাও বাড়তি মুনাফা আদায় করে নেয়। বাজার স্থিতিশীল রাখতে তারা প্রয়োজন অনুযায়ী ধাপে ধাপে ভোগ্যপণ্য কেনার পরামর্শ দেন। চেম্বার সভাপতি আন্তর্জাতিক বাজার প্রসঙ্গ এনে বলেন, বাইরে ছোলার দাম বেড়ে যাওযায় এর প্রভাব দেশের বাজারেও পড়েছে। অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে আলোচনা করেন চিটাগাং চেম্বারের সিনিয়র সহসভাপতি নুরুন নেওয়াজ সেলিম, সহ-সভাপতি সৈয়দ জামাল আহমেদ, চেম্বার পরিচালক মাহফুজুল হক শাহ, খাতুনগঞ্জ ট্রেড এ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ ছগীর আহমেদ, আড়ৎদার সমিতির প্রতিনিধি সাইফুদ্দিন, ক্যাবের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি এসএম নাজের হোসাইন প্রমুখ।