১৭ জুন ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

লাঞ্ছনার শিকার শিক্ষক শ্যামল কান্তি ঢাকা মেডিক্যালে ভর্তি

  • মাঠে নেমেছে হেফাজত

স্টাফ রিপোর্টার ॥ নারায়ণগঞ্জে লাঞ্ছনার শিকার শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তকে এবার উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নিয়ে আসা হয়েছে। বর্তমানে তিনি ঢাকা মেডিক্যালে চিকিৎসাধীন। এদিকে সরকার গঠিত শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের তদন্ত কমিটিতে ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত হানার অভিযোগের কোন সত্যতা খোঁজে পাওয়া না গেলেও মিথ্যে রঙ চড়িয়ে এ ইস্যুকে কাজে লাগাতে নারায়ণগঞ্জের মাঠে নেমেছে হেফাজতে ইসলাম নারায়ণগঞ্জ শাখা। ধর্ম অবমাননার অভিযোগ তুলে শিক্ষক শ্যামল কান্তির কঠোর শাস্তির দাবিতে সরকারকে ৭২ ঘণ্টার সময় বেঁধে দিয়েছে সংগঠনটির নেতারা।

জানা গেছে, যে ছাত্রকে কেন্দ্র করে ঘটনার সূত্রপাত সেই রিফাত হাসানকে ফুঁসলিয়ে হেফাজতের অনুষ্ঠানে হাজির করা হয়। রিফাত ওই অনুষ্ঠানে কটূক্তির বর্ণনা দেন। এদিকে হেফাজতের ওই অনুষ্ঠানে রিফাতের উপস্থিতি নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা। কেউ কেউ বলছেন, রিফাতকে ফুঁসলিয়ে ঘটনাকে ভিন্নদিকে প্রবাহিত করতেই হেফাজতের অনুষ্ঠানে তাকে হাজির করা হয়।

শ্যামল কান্তি ঢাকা মেডিক্যালে ॥ লাঞ্ছিত শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় নিয়ে আসা হয়েছে। বর্তমানে তিনি ঢাকা মেডিক্যাল চিকিৎসাধীন। শুক্রবার দুপুরের আগে নারায়ণগঞ্জের খানপুর হাসপাতাল থেকে তাকে ঢাকায় পাঠানো হয় বলে হাসপাতাল তত্ত্বাবধায়কের সহকারী সিদ্দিকুর রহমান জানান।

খানপুরের ৩০০ শয্যাবিশিষ্ট হাসপাতালের চিকিৎসা তত্ত্বাবধায়কের ব্যক্তিগত সহকারী সিদ্দিকুর রহমান বলেন, বৃহস্পতিবার রাতে শ্যামল কান্তির স্ত্রী একটি আবেদন করেন। এতে বলা হয়, উন্নত চিকিৎসার জন্য তিনি তার স্বামীকে ঢাকার ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব নিউরো সায়েন্সেস এ্যান্ড হাসপাতালে নিতে চান। পরে তাকে এ্যাম্বুলেন্সে ঢাকা মেডিক্যালে পাঠানো হয়। তিনি আরও বলেন, হাসপাতালের ২০ নম্বর ওয়ার্ডে শ্যামল কান্তি ভক্তের চিকিৎসা চলছিল। তার স্ত্রী সবিতা রানীর আবেদনে উন্নত চিকিৎসার জন্য বেলা ১১ টার দিকে হাসপাতালের একটি এ্যাম্বুলেন্সে করে তাকে ঢাকায় পাঠানো হয়। নারায়ণগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মহিবুল ইসলাম খান বলেন, তারা পুলিশী পাহারায় শ্যামল কান্তিকে ঢাকা মেডিক্যাল পৌঁছে দিয়েছেন।

এদিকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির নায়েক মোঃ রফিক জানান, বেলা ১টার দিকে শ্যামল কান্তি ভক্তকে মেডিসিন বিভাগের একটি ওয়ার্ডে ভর্তি করা হয়।

সংসদ থেকে অভিশংসনের দাবি স্বাশিপের ॥ নারায়ণগঞ্জে শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তকে লাঞ্ছিত করার অপরাধে জাতীয় পার্টির সংসদ সেলিম ওসমানকে সংসদ থেকে অভিশংসনের দাবি জানিয়েছে স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদ (স্বাশিপ)। শুক্রবার সকালে রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে নারায়ণগঞ্জে শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্ত এবং ধামরাইয়ের প্রধান শিক্ষিকা ফৌজিয়া ইয়াসমিনকে লাঞ্ছিত করার প্রতিবাদে এবং ঘটনার সঙ্গে জড়িত দায়ী ব্যক্তিদের শাস্তির দাবিতে আয়োজিত এক মানববন্ধন কর্মসূচী থেকে এ দাবি জানানো হয়।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, শিক্ষক লাঞ্ছনার সঙ্গে জড়িত সংসদ সদস্য সেলিম ওসমানকে প্রকাশ্যে জাতির কাছে ক্ষমা চাইতে হবে। একজন আইন প্রণেতা নিজের হাতে আইন তুলে নেয়ায় তাকে সংসদ থেকে অভিশংসন করা হোক। সরকারকে শ্যামল কান্তি ভক্ত ও তার পরিবারের সার্বিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে।

মানববন্ধন কর্মসূচীতে শাহজাহান আলম সাজুর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন অধ্যাপক এমএ আউয়াল সিদ্দিকী, প্রফেসর সাজিদুল ইসলাম, অধ্যাপক মোস্তফা কামাল, সাইদুর রহমান পান্না, অধ্যাপক মোকছেদুর রহমান , ড. আবু বকর সিদ্দিক, অধ্যাপক সেলিম উল্লাহ সেলিম, খন্দকার মাহমুদ, অধ্যাপক সামছুল ইসলাম, আবু রায়হান ও মোঃ মামুন।

হেফাজত মাঠে ॥ নিজস্ব সংবাদদাতা, নারায়ণগঞ্জ থেকে জানান, নারায়ণগঞ্জ বন্দরে পিয়ার সাত্তার লফিত উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তের বিরুদ্ধে ধর্মীয় অবমাননার অভিযোগ এনে তার বিচারের দাবিতে ‘সর্বস্তরের মুসলিম জনতা’ ব্যানারে শহরের বাণিজ্যিক এলাকা ডিআইটিতে ৭২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দিয়েছেন।

শুক্রবার জুমার নামাজের পর নারায়ণগঞ্জ শহরের ডিআইটি বাণিজ্যিক এলাকায় ‘সর্বস্তরের মুসলিম জনতা’ ব্যানারে আল্লাহ ও মুসলিম জাতি নিয়ে কটূক্তি করার অভিযোগ এনে প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তের কঠোর শাস্তি ও ফাঁসির দাবি জানিয়ে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

হেফাজতে ইসলাম নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার সভাপতি ও শহরের ডিআইটি রেলওয়ে জামে মসজিদের খতিব মাওলানা আব্দুল আউয়ালের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, তাহরিকে নবুয়্যতে বাংলাদেশের আমির ড. সায়্যেদ এনায়েতপুরী আব্বাসী জৈনপুরী, হেফাজতে ইসলামীর জেলার সাধারণ সম্পাদক আব্দুল কাদির, জেলা ওলামা পরিষদের সাধারণ সম্পাদক মুফতি আবুল হাশেম, মুফতি আব্দুল লতিফ, দেলোয়ার হোসেন, হারুন অর রশিদ প্রমুখ। সমাবেশে স্কুলছাত্র রিফাত তাকে মারধর ও ধর্ম নিয়ে কটূক্তির অভিযোগে অভিযুক্ত প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তের বিচার দাবি করেন।

সেলিম ওসমানকে শাস্তি পেতেই হবেÑকামাল লোহানী ॥ দেশের প্রবীণ লেখক ও সাংবাদিক কামাল লোহানী বলেছেন, একজন শিক্ষককে লাঞ্ছিতের ঘটনায় শুধু নারায়ণগঞ্জবাসীই নয়, গোটা দেশবাসী আজ লজ্জিত। ৭১ সালে যারা হায়নার মতো জুলুম-অত্যাচার নির্যাতন নিপীড়ন চালিয়েছিল তারাও অপরাধ করে পার পায়নি। নিজামী, মুজাহিদ, কাদের মোল্লাও ছাড় পায়নি, ফাঁসিতে ঝুলতে হয়েছে। শিক্ষককে লাঞ্ছিত করার বিষয়ে তিনি বলেন, সেলিম ওসমানকেও শাস্তি পেতেই হবে। তাকে বুঝিয়ে দিতে হবে সে কত বড় অপরাধ করেছে। সেলিম ওসমান আজ ক্ষমা চাওয়াতো দূরের কথা সে সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা সৃষ্টি করতে উস্কানি দিচ্ছে। শুক্রবার সন্ধ্যা ৬টায় নারায়ণগঞ্জ প্রেসক্লাবের সামনে শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তের ওপর নির্যাতনকারী সেলিম ওসমান ও তার সহযোগীদের বিচারের দাবিতে নারায়ণগঞ্জ সাংস্কৃতিক জোটের সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন নারায়ণগঞ্জ সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি এ্যাডভোকেট জিয়াউল ইসলাম কাজল। এ সময় ঢাকার লেখক শিল্পী শিক্ষক শিক্ষার্থী সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতাকর্মীরা সমাবেশে যোগ দেন।

সমাবেশে আরও বক্তব্য রাখেন গণজাগরণ মঞ্চের সংগঠক জীবন আনন্দ জয়ন্ত, নাট্যশিল্পী সুমনা সুমা, কেন্দ্রীয় খেলাঘর আসরের সাধারণ সম্পাদক মোকলেছুর রহমান সাগর, বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়নের সাবেক সভাপতি খান আসাদুজ্জামান মাসুম, উদীচী শিল্পীগোষ্ঠীর কেন্দ্রীয় সহ-সাধারণ সম্পাদক জামসেদ আনোয়ার তপন, বাংলাদেশ যুব ইউনিয়নের সাংগঠনিক সম্পাদক শিশির চক্রবর্তী।