২১ নভেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সবচেয়ে জনপ্রিয় ফুটবলার রোনাল্ডো

সবচেয়ে জনপ্রিয় ফুটবলার  রোনাল্ডো

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ তাকে নিয়ে মাতামাতি সব সময়। সেটা কারণে কিংবা অকারণে। স্বভাব অনেকটাই ফুটবল কিংবদন্তি দিয়াগো ম্যারাডোনার মতো। মিডিয়ার আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে থাকা। ফুটবলে নামডাকের কমতি নেই; রূপটাও আগুন ঝরানো। তাইতো মুহূর্তেই সুন্দরী রমণীরা তার বাহুডোরে আস্তানা গাড়তে ভীড় জমায়। হ্যাঁ, বর্তমান বিশ্ব ফুটবলের সবচেয়ে সুদর্শন যুবক পর্তুগীজ তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর কথাই আলোকপাত করা হচ্ছে।

রিয়াল মাদ্রিদের এই তারকা মাঠের লড়াইয়েও কম যান না। বর্তমান বিশ্ব ফুটবলের সেরা দুইজনের একজন তিনি। অপরজন লিওনেল মেসি। মাঠের পারফর্মেন্সের মতো দর্শকদের মনও জয় করেছেন সি আর সেভেন। চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী মেসিকে হটিয়ে আরেকবার ক্রীড়াপণ্যের জনপ্রিয় প্রতিষ্ঠান ‘ব্র্যান্ডট্রিক্সে’র জরিপে সবচেয়ে জনপ্রিয় ফুটবলার নির্বাচিত হয়েছেন রোনাল্ডো। অবাক করা বিষয় হচ্ছে, এই তালিকায় রোনাল্ডো শীর্ষে থাকলেও মেসি দুইয়েও জায়গা পাননি। দ্বিতীয় স্থানে আছেন বার্সিলোনার ব্রাজিলিয়ান তারকা নেইমার। আর আর্জেন্টাইন অধিনায়ক আছেন তিন নম্বরে। এই মুহূর্তে বিশ্বের সবচাইতে জনপ্রিয় ফুটবলার কে? ভক্তদের এমন প্রশ্নে সাড়া দিয়ে সম্প্রতি বিশ্বের ২০ জনপ্রিয় ফুটবলারের তালিকা প্রকাশ করেছে ব্র্যান্ডট্রিক্স। শুধু মাঠের পারফর্মেন্সেই নয় তালিকাটি প্রকাশিত হয়েছে তাদের ফেসবুক, টুইটার ও ইনস্টাগ্রামে তাদের জনপ্রিয়তা বিচার করে। ভক্তদের ভোটে অবশ্য ইউরোপের সেরা ক্লাবের মর্যাদা পেয়েছে বার্সিলোনা। এই তালিকায় দুইয়ে আছে জার্মান ক্লাব বেয়ার্ন মিউনিখ। তিন ও চার নম্বরে যথাক্রমে স্পেনের দুই নগর প্রতিদ্বন্দ্বী ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদ ও এ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ।

মাঠের দুর্দান্ত পারফর্মেন্সের পাশাপাশি আকর্ষণীয় চেহারা ও সুন্দর বাচনভঙ্গী দিয়ে রোনাল্ডো জয় করেছেন লক্ষ কোটি ভক্তের হৃদয়। সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম ফেসবুক, টুইটার ও ইনস্টাগ্রামে তার অনুসারির সংখ্যা ২১১.৭ মিলিয়ন। স্বাভাবিকভাবেই সবচেয়ে জনপ্রিয় তিনি। রোনাল্ডোর পর জনপ্রিয়তার বিচারে যার নামটি উঠে এসেছে সেটি নেইমার। বার্সিলোনার হয়ে এই মৌসুমে দারুণ একটি মৌসুম কাটানোর পাশাপাশি নিজের প্লেবয় সুলভ চেহারা দিয়ে মেসি’কে টপকে দুইয়ে উঠে এসেছেন এই ব্রাজিলিয়ান। রেকর্ড সর্বোচ্চ পাঁচবারের ব্যালন ডি’অর জয়ী আর্জেন্টাইন তারকা মেসি ধারাবাহিকভাবেই বার্সিলোনাকে সফলতা এনে দিয়েছেন। কিন্তু ব্র্যান্ডট্রিক্সের জরিপ বলছে মেসির ব্র্যান্ড ভ্যালু আগের চাইতে কিছুটা কমে যাওয়াই দুই নম্বর স্থানটি ছেড়ে দিতে হয়েছে বার্সা সতীর্থ নেইমারকে।

ফরাসী ক্লাব প্যারিস সেইন্ট জার্মেইনের (পিএসজি) সুইডিশ তারকা জ¬াতান ইব্রাহিমোভিচ আছেন চার নম্বরে। ফরাসী লীগ ওয়ানে দ্বিতীয়বারের মতো দলকে ট্রেবল জয়ের গৌরব এনে দিয়ে ফ্রান্সে ইতোমধ্যেই পেয়ে গেছেন কিংবদন্তির খেতাব। ফ্রান্স ছেড়ে এই মৌসুমেই তার ইংল্যান্ডে পাড়ি জমানোর কথা। যা তাকে আরও তারকাখ্যাতি এনে দিবে বলে মত দিয়েছে ব্র্যান্ডট্রিক্স। সদ্য শেষ হওয়া মৌসুমে মাঠের পারফর্মেন্সে মেসি কিংবা নেইমারের চাইতে ঔজ্জ্বল ছড়ান উরুগুয়ান স্ট্রাইকার লুইস সুয়ারেজ। ৪৭ ম্যাচে বল জালে জড়িয়েছেন ৫৩টি। এমন অদম্য পারফর্মেন্সের জন্যই ব্র্যান্ডট্রিক্সের জরিপে পাঁচ নম্বরে অবস্থান করছেন এক সময়ের এই ব্যাডবয়।

তালিকার ষষ্ঠ থেকে বিশতম স্থানে আছেন যথাক্রমে আর্সেনালের জার্মান মিডফিল্ডার মেসুত ওজিল, রিয়াল মাদ্রিদের কলম্বিয়ান তারকা জেমস রড্রিগুয়েজ, বার্সিলোনার স্প্যনিশ মিডফিল্ডার আন্দ্রেস ইনিয়েস্তা, রিয়াল মাদ্রিদের ওয়েলস ফরোয়ার্ড গ্যারেথ বেল, পোর্তোর স্প্যানিশ গোলরক্ষক ইকার ক্যাসিয়াস। পিএসজির ব্রাজিলিয়ান ডিফেন্ডার ডেভিড লুইজ, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের ইংলিশ তারকা ওয়েন রুনি, রিয়ালের স্প্যানিশ ডিফেন্ডার সার্জিও রামোস, বার্সার স্প্যানিশ ডিফে-ার জেরার্ড পিকে, রিয়ালের ফরাসী ফরোয়ার্ড করিম বেনজামা, বেয়ার্নের জার্মান গোলরক্ষক ম্যানুয়েল নিউয়ের, ম্যানসিটির আর্জেন্টাইন স্ট্রাইকার সার্জিও এ্যাগুয়েরো, রিয়ালের ব্রাজিলিয়ান ডিফেন্ডার মার্সেলো, ম্যানইউর ইংলিশ গোলরক্ষক ডেভিড ডি গিয়া ও চেলসির স্প্যানিশ ফরোয়ার্ড চেস ফেব্রিগাস।

এদিকে ব্রাজিলে অনুষ্ঠিত রিও অলিম্পিক গেমসে নাও খেলা হতে পারে রোনাল্ডোর। এমনই আভাস দিয়েছেন পর্তুগালের অলিম্পিক কোচ রুই জোর্জে। এক সাক্ষাতকারে তিনি বলেছেন, রোনাল্ডোর বিষয়ে এখনও কোন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়নি। বেশি বয়সী তিনজন খেলোয়াড় সম্পর্কে এখনও আমরা সঠিক জানি না। আমরা অপেক্ষা করব, কিন্তু আমার মনে হয় না রোনাল্ডো থাকবে।