২২ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

দাদন পরিশোধে দুশ্চিন্তায় ঠাকুরগাঁওয়ের কৃষক

নিজস্ব সংবাদদাতা, ঠাকুরগাঁও, ২১ মে ॥ চলতি বোরো মৌসুমে ঠাকুরগাঁওয়ে চাষীরা বাম্পার ফলন পেলেও বাজারে ধানের ন্যায্যমূল্য না পাওয়ায় দাদন পরিশোধ নিয়ে দুঃশ্চিন্তায় পড়েছেন। উৎপাদন ব্যয় যা হয়েছে তাতে প্রতি মণ ধান বিক্রিতে চাষীদের লোকসান গুনতে হচ্ছে এক শ’ টাকা। অব্যাহত লোকসানের মুখে ধান উৎপাদন ছেড়ে দেয়া ছাড়া কৃষকের আর কোন উপায় থাকবে না বলে জানিয়েছেন বোরো চাষীরা।

সূত্র মতে, প্রান্তিক বোরো চাষীদের অধিকাংশই মহাজনদের কাছ থেকে মৌসুমের শুরুতে এক হাজার টাকার বিনিময়ে এক মণ ধান ও নগদ এক হাজার টাকা হারে দাদন নিয়েছেন। এ টাকায় চাষীরা উচ্চমূল্যে বীজ ক্রয় করে বীজতলা তৈরিসহ চাষাবাদ করেছেন। কৃষি উপকরণের মূল্যবৃদ্ধির কারণে উৎপাদন ব্যয় বৃদ্ধি পেয়েছে। প্রতিমণ ধান উৎপাদনে খরচ হয়েছে ৬শ’ টাকা। খরচ বেশি হলেও ধানের ফলন ভাল হওয়ায় কৃষকের মুখে হাসি ফুটেছিল। কিন্তু বাজার মূল্য তাদের চরম হতাশ করেছে।

বর্তমানে প্রতিমণ বোরো ধান বিক্রি হচ্ছে ৪৫০ থেকে সর্বোচ্চ ৫শ’ টাকা দরে। এতে প্রতিমণ ধান বিক্রি করতে গিয়ে চাষীদের কমপক্ষে এক শ’ টাকা করে লোকসান গুনতে হচ্ছে। কোথাও লোকসানের পরিমাণ প্রতিমণে দেড় শ’ থেকে দু‘শ’ টাকা।

সূত্রে আরও জানা যায়, ধানের বাজারমূল্য কম হওয়ায় ধানকাটা শ্রমিকেরও তীব্র সঙ্কট দেখা দিয়েছে। গত বছরও চাষীরা বোরো উৎপাদনে লোকসান গুনেছেন।

জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের উপ-পরিচালক আরশেদ আলী জানান, বর্তমান পরিস্থিতিতে সরকারী সহায়তা কিংবা সহজ শর্তে কৃষি ঋণ না পেলে প্রান্তিক বোরো চাষীদের গোয়ালের গরু কিংবা স্ত্রীর গহনা বিক্রি করে মহাজনের দাদনের টাকা সুদসহ পরিশোধ করতে হবে। চাষীরা বলেন, সরকার কৃষকের জন্য ব্যাংকের মাধ্যমে সহজ শর্তে ঋণের ব্যবস্থা করলেও ব্যাংকিং সেক্টরের নিয়ম-নীতিসহ নানা জটিলতায় কৃষকরা ব্যাংক ঋণ থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন। বাধ্য হয়েই তাই তারা স্থানীয় মহাজন কিংবা এনজিওর কাছ থেকে চড়া সুদে ঋণ সংগ্রহ করে চাষাবাদ করে থাকেন।

সড়ক দুর্ঘটনায় যুবকসহ নিহত চার

জনকণ্ঠ ডেস্ক ॥ সড়ক দুর্ঘটনায় শরীয়তপুরে যুবক, বরিশালে মোটরসাইকেলচালক, মুন্সীগঞ্জ ও নওগাঁয় দুই পথচারী নিহত হয়েছে। খবর স্টাফ রিপোর্টার ও নিজস্ব সংবাদদাতাদের পাঠানোÑ

শরীয়তপুর ॥ শুক্রবার রাতে নড়িয়া উপজেলার ডিঙ্গামানিক ইউনিয়নের শিমুলতলা এলাকায় মাটিভর্তি মাহিন্দ্রের চাপায় মাছুম শিকদার (২৮) নামে এক যুবক নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় আরও দু’জন আহত হয়েছে।

বরিশাল ॥ জেলার মুলাদী পৌর এলাকার বেইলি ব্রিজ সংলগ্ন স্থানে গাছের সঙ্গে ধাক্কা লেগে শুক্রবার সন্ধ্যায় মোটরসাইকেলচালক মোঃ ইব্রাহিম (২০) নিহত হয়েছেন। নিহতের বাড়ি উপজেলার গাছুয়া ইউনিয়নে। জানা গেছে, ইব্রাহিম মোটরসাইকেলযোগে শ্বশুরবাড়িতে বেড়াতে যাচ্ছিলেন। পথিমধ্যে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সঙ্গে ধাক্কা লেগে ঘটনাস্থলেই তিনি মারা যান।

মুন্সীগঞ্জ ॥ গজারিয়া উপজেলার ভাটেরচর বাসস্ট্যান্ডের কাছে সড়ক দুর্ঘটনায় আলাউদ্দিন (৬০) নামে এক পথচারী নিহত হয়েছে। জানা গেছে, পথচারী আলাউদ্দিন মহাসড়ক পার হওয়ার সময় ঢাকাগামী দ্রুতগতির একটি ট্রাক চাপা দিলে সে ঘটনাস্থলেই নিহত হয়।

নওগাঁ ॥ শুক্রবার রাতে নিয়ামতপুরে অটো চার্জার ও ভটভটির মুখোমুখি সংঘর্ষে ওয়াহেদ আলী (৪০) নামে এক পথচারী নিহত ও ভটভটিচালক নাজমুল হক আহত হয়েছেন। উপজেলার নিয়ামতপুর-ফেরিঘাট মেইন রাস্তার ভাবিচা ইউপির ডিমা গ্রামে এ দুর্ঘটনা ঘটে।