১৮ নভেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ক্যামেরন আমাকে ব্রিটেনে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন

  • ট্রাম্পের দাবি

যুক্তরাষ্ট্রের আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রিপাবলিকান পার্টির সম্ভাব্য প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, তাকে ব্রিটেন সফরের আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে এবং তিনি আশা করছেন, প্রধানমন্ত্রী ডেভিড ক্যামেরনের সঙ্গে তার সম্পর্ক ঠিক হয়ে যাবে। কিন্তু ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রীর দফতর ১০ নং ডাউনিং স্ট্রিট থেকে বলা হয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রিপাবলিকান ও ডেমোক্রেটিক উভয় দলের পদপ্রার্থীদের যুক্তরাজ্য সফরের দীর্ঘদিনে ঐতিহ্য থাকলেও এখনও পর্যন্ত কোন আমন্ত্রণ জানানো হয়নি। খবর বিবিসি ও ইয়াহু নিউজের।

প্রধানমন্ত্রীর দফতরের এক নারী মুখপাত্র বলেছেন, আসন্ন মার্কিন নির্বাচনে এখনও প্রার্থী নির্বাচন চূড়ান্ত না হওয়ায় ব্রিটেন সফরের তারিখ এখনও ঠিক করা হয়নি। যুক্তরাষ্ট্রে মুসলিমদের প্রবেশ নিষিদ্ধ করা উচিত বলে মন্তব্য করে দেশে-বিদেশে তোপের মুখে পড়েন ট্রাম্প। ক্যামেরন তখন বলেছিলেন, ট্রাম্পের মন্তব্য উত্তেজনা সৃষ্টিকারী, বিদ্বেষমূলক ও ভুল। যদি তিনি আমাদের দেশে সফরে আসেন তাহলে তিনি আমাদের সবাইকে তার বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ করবেন। মার্কিন টিভি এমএসএনবিসির সকালের সাক্ষাতকারে শুক্রবার ট্রাম্প বলেছেন, দুই দিন আগে ক্যামেরন তাকে ১০নং ডাউনিং স্ট্রিট সফরের আমন্ত্রণ জানিয়েছেন এবং তিনি এই সফরে যেতে পারেন। তবে তিনি এ বিষয়ে বিস্তারিত কিছু জানাননি। তবে এক ডাউনিং স্ট্রিট সূত্র জানিয়েছে, মার্কিন প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থীদের আনুষ্ঠানিক আমন্ত্রণ পাঠানো হবে না। চলতি মাসে ট্রাম্প দলের মনোনয়ন চূড়ান্ত করার পর ক্যামেরন বলেছিলেন, ট্রাম্প সম্পর্কে তিনি তার মন্তব্য প্রত্যাহার করবেন না এবং এজন্য ক্ষমা চাওয়ার কোন অভিপ্রায় নেই তার। ক্যামেরনের মুখপাত্র বলেছেন, চলতি বছরের ৮ নবেম্বর অুনষ্ঠেয় মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে বিজয়ীর সঙ্গে তিনি কাজ করবেন এবং যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাজ্যের মধ্যকার বিশেষ সম্পর্ক বজার রাখতে তিনি প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। এদিকে ট্রাম্প সোমবার বলেছিলেন, ক্যামেরনের সঙ্গে তার হয়তো সম্পর্ক ভাল হবে না। এরপরের দিন তিনি বলেন, তিনি ক্যামেরনের সঙ্গে একটি ভাল সম্পর্ক আশা করেন এবং শুক্রবার বলেন, ক্যামেরন তাকে লন্ডন সফরের আমন্ত্রণ জানিয়েছেন। এমএসএনবিসিকে ট্রাম্প বলেছেন, ডেভিড ক্যামেরনের সঙ্গে দেখা হলে আমি খুবই খুশি হবো। আমি মনে করি তিনি একজন চমৎকান মানুষ। তারা আমাকে ১০ নং ডাউনিং স্ট্রিট সফরের আমন্ত্রণ জানিয়েছে এবং আমি এই সফরে যাব। এটি সত্য যে এর আগে স্কট ওয়াকার, ক্রিস ক্রিস্টি ও মার্কো রুবিওর মতো মনোনয়ন প্রত্যাশীরা রিপাবলিকান পার্টির প্রার্থী হিসেবে ঘোষণার আগেই ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাত করেছেন।