১৮ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ঈদ আনন্দে প্রস্তুত রাজধানীর বিনোদনকেন্দ্র

ঈদ আনন্দে প্রস্তুত রাজধানীর বিনোদনকেন্দ্র

অনলাইন রিপোর্টার ॥ ঈদ মানেই ঘুরে বেড়ানো, ইচ্ছেমতো আনন্দ। ঈদের আনন্দে মাতাতে রাজধানীর বিনোদন কেন্দ্রগুলো প্রস্তুত রয়েছে। এবারেও বিনোদনকেন্দ্র থাকবে বিনোদন পিপাসু মানুষের বিচরণ। ঈদের দিন থেকে দর্শনার্থীদের জন্য ৫ দিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত খোলা থাকবে শাহবাগের শিশুপার্ক। শাহবাগের জাতীয় জাদুঘর ঈদের দিন বন্ধ থাকলেও ঈদের পরের দিন থেকে খোলা থাকবে। ঈদ উপলক্ষে জাতীয় জাদুঘর ও জাদুঘরের অধীনস্থ সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে অবস্থিত স্বাধীনতা জাদুঘরে ঈদের পরের দুই দিন বিনা মূল্যে দেখানো হবে দুটি চলচ্চিত্র। ঈদের পরের দুই দিন দুপুর আড়াইটা ও বিকেল ৫টায় চলচ্চিত্র দুটি প্রদর্শিত হবে। এ ছাড়া ঈদ উপলক্ষে জাতীয় জাদুঘর শিশুদের মাঝে বিশুদ্ধ পানি বিতরণ করবে।

ঢাকার মিরপুরে চিড়িয়াখানা ঈদের দিন সকাল ৮টা থেকেই দর্শনার্থীদের জন্য খোলা থাকবে। ঢাকার অদূরে ফ্যান্টাসি কিংডম দর্শনার্থীদের জন্য ঈদের দিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত খোলা থাকবে। ঈদ উপলক্ষে দশ দিনের বিশেষ সময়সূচি গ্রহণ করেছে ফ্যান্টাসি কিংডম। ঢাকার অদূরে নন্দন পার্কে ঈদের দিন দুপুর ১২টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত খোলা থাকবে। এ ছাড়া ঈদের পর ৪ দিন বিকেলে থাকবে জমজমাট সাংস্কৃতিক আয়োজন।

ঈদের ছুটিতে পুরোনো ঢাকার ওয়ারিতে অবস্থিত উদ্যান বলধা গার্ডেন, কোতোয়ালি এলাকার আহসান মঞ্জিল, সায়েদাবাদ এলাকার ওয়ান্ডার ল্যান্ড খোলা থাকবে। এ ছাড়া পুরোনো ঢাকার চকবাজার, ইংলিশ রোড, ধোলাইখাল, গেন্ডারিয়ার ধুপখোলা মাঠ, যাত্রাবাড়ী, বাসাবো ইত্যাদি এলাকায় স্থানীয়ভাবে ঈদমেলার আয়োজন করা হয়েছে। ঈদের দিন সকাল থেকে শুরু হবে এসব মেলা।

সরকার, বেসরকারি বিনোদনকেন্দ্রগুলো ছাড়াও উদ্যান, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সংলগ্ন বিস্তীর্ণ এলাকা, হাতিরঝিলসহ সারা ঢাকায় থাকবে ঈদ আনন্দে বেড়ানোর হিড়িক। ঈদের ভিড় সামাল দিতে রাজধানীর বিনোদনকেন্দ্রগুলোতে বিশেষ প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। থাকবে কঠোর নিরাপত্তা।