১৬ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

পাকিস্তানের ‘মাদার তেরেসা’ আবদুল সাত্তার ইদি আর নেই

পাকিস্তানের প্রখ্যাত সমাজকর্মী আবদুল সাত্তার ইদি (৮৮) আর নেই। করাচীর একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় শুক্রবার তার মৃত্যু হয়। ইদি পাকিস্তানের সুবিখ্যাত মানবতাবাদী এবং ইদি ফাউন্ডেশনের প্রধান। এ ফাউন্ডেশন পাকিস্তান ছাড়াও বিশ্বের অন্য দেশের সেবামূলক কাজ করে। এজন্য তাকে পাকিস্তানের ‘মাদার তেরেসা’ ও ‘জীবিত সন্ত’ বলা হতো। ইদির মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করে তার আত্মার মাগফিরাত কামনা করেছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফ। ইদির ছেলে ফয়সাল ইদি বলেছেন, করাচীর এক মেডিক্যাল সেন্টারে তিনি মারা গেছেন। গত কয়েক সপ্তাহ ধরে তিনি সেখানে চিকিৎসাধীন ছিলেন। যুবক বয়সেই ইদি সমাজসেবার কাজ শুরু করেছিলেন। তার নামে প্রতিষ্ঠিত ইদি ফাউন্ডেশন এখন বিশাল এক সামাজিক প্রতিষ্ঠানে পরিণত হয়েছে। এ প্রতিষ্ঠান বিনামূল্যে এ্যাম্বুলেন্স সার্ভিস, এতিমখানা, বৃদ্ধনিবাস, প্রতিবন্ধী পুনর্বাসন কেন্দ্র, স্কুল ও হাসপাতাল পরিচালনা করে থাকে। সমাজকর্মী আবদুল সাত্তার যুদ্ধবিরোধী ছিলেন। তিনি সব ধরনের নৃশংসতা, অপরাজনীতি ও দুর্নীতির বিরুদ্ধে কাজ করেছেন। ইদি ফাউন্ডেশন পাকিস্তানের মতো সন্ত্রাসবাদে পুষ্ট দেশের ক্ষেত্রে এক অবিস্মরণীয় নাম। সমাজসেবা, আর্তদের উদ্ধার, মহিলাদের স্বনির্ভর করা ও বিশ্বের সবথেকে বড় বেসরকারী এ্যাম্বুলান্স পরিষেবা দেয়ার কারিগর ছিলেন ইদি ও তার স্ত্রী বিলকিস ইদি। -বিবিসি ও ওয়েবসাইট

সাবমেরিন থেকে ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা উত্তর কোরিয়ার

দক্ষিণ কোরিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় ধারণা করছে, উত্তর কোরিয়া শনিবার সাবমেরিন থেকে উৎক্ষেপণযোগ্য ব্যালাস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র ও দক্ষিণ কোরিয়া কোরীয় উপদ্বীপে ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা মোতায়েনের সিদ্ধান্ত নেয়ার একদিন পর পিয়ংইয়ং এ পরীক্ষা চালালো। খবর এএফপির।

এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে সিউলের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় বলছে, ধারণা করা হচ্ছে উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় সিনপো বন্দর থেকে শনিবার স্থানীয় সময় সকাল সাড়ে ১১টায় উত্তর কোরিয়া সাবমেরিন থেকে উৎক্ষেপণযোগ্য ব্যালাস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে। তবে এ বিষয়ে তাৎক্ষণিকভাবে বিস্তারিত আর কিছু জানা যায়নি।

উত্তর কোরিয়া এর আগে গত ২৩ এপ্রিল সাবমেরিন থেকে উৎক্ষেপণযোগ্য ব্যালাস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালায়।

সিরিয়ার উত্তরাঞ্চলে বিমান হামলা ॥ গোলাবর্ষণে নিহত ৬০

সিরিয়ার উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলে শুক্রবার বিমান হামলা ও গোলাবর্ষণে ৬০ জনেরও বেশি বেসামরিক লোক নিহত হয়েছে। ঈদ-উল-ফিতর উপলক্ষে চলমান অস্ত্রবিরতির সময় শেষ হওয়ার কয়েক ঘণ্টা আগে এই হামলা চালানো হয়। একটি পর্যবেক্ষণকারী সংস্থা এ কথা জানিয়েছে। বুধবার অস্ত্রবিরতি ঘোষণা করার পর থেকেই লড়াই অব্যাহত রয়েছে। বিশেষত সিরিয়ার দ্বিতীয় নগরী আলেপ্পোতে তুমুল লড়াই চলছে। সংঘর্ষে বিভক্ত নগরীতে উভয়পক্ষের লোকই হতাহত হচ্ছে। -এএফপি