১৭ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

শিরোপা আমাদের প্রাপ্য ছিল ॥ রোনালদো

শিরোপা আমাদের প্রাপ্য ছিল ॥ রোনালদো

অনলাইন ডেস্ক॥ ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো জানতেন এমনটাই হবে। চ্যাম্পিয়ন হবেন। ফাইনালের ২৪ মিনিটের সময় ইনজুরির কারণে মাঠ ছাড়তে হয়েছে চোখের জলে। কিন্তু সাইড বেঞ্চে বসে বিশ্বাসটা ধরে রেখেছিলেন অধিনায়ক। আরেকবার ফাইনালে উঠতে ঈশ্বরের কাছে প্রার্থনা করেছিলেন। আর শিরোপা জয়ে সব প্রার্থনা পূরণ হলো। গেলো রাতে প্যারিসে স্বাগতিক ফ্রান্সকে ১-০ গোলে হারিয়ে প্রথমবারের মতো ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়ন হয়েছে পর্তুগাল। অতিরিক্ত সময়ে (১০৯ মিনিট) বদলী ফরোয়ার্ড এদারের গোলে শিরোপা জিতেছে পর্তুগিজরা।

"আমি খুব খুশি। এটার জন্য অনেক কাল ধরে অপেক্ষায় আছি। সেই ২০০৪ সাল থেকে। ঈশ্বরের কাছে আরেকটি সুযোগ চেয়েছিলাম আমি। কারণ, এটা আমাদের প্রাপ্য।" ফাইনালে বারবার চোখের জলে ভেসেছেন রোনালদো। শেষে আনন্দে কঁদেছেন। আরাধ্য শিরোপায় চুমু খেয়ে বলেছেন," "আজ আমি ভাগ্যবান। ইনজুরিতে পড়েছি। কিন্তু সবসময় বিশ্বাস ছিল এই দল নিয়ে, আমাদের কৌশলে আমরা ফ্রান্সকে হারাতে পারবো।"

২০০৪ ইউরোতে ১৯ বছরের রোনালদো ফাইনালে গ্রীসের কাছে হেরে কান্নায় ভেঙেছিলেন। এবার শিরোপা জেতার স্বপ্ন পূরণ হলো। দেশের হয়ে নিজের প্রথম বড় আসরের শিরোপা জেতার আনন্দে ৩১ বছরের রোনালদো বলেছেন, "এটা আমার ক্যারিয়ারের সবচেয়ে সুখের মুহূর্ত। সবসময় বলেছি পর্তুগালের জন্য কিছু জিততে চাই। আমার জন্য, পর্তুগিজদের জন্য এটা অসাধারণ সময়।"

পর্তুগালের ডিফেন্ডার পেপে পুরো আসরে অসাধারণ খেলেছেন। ফাইনালে প্রতিরোধের পর প্রতিরোধ গড়ে দলকে বাঁচিয়েছেন। রোনালদোর সাথে জাতীয় দলে ২০০৭ ও ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদে ২০০৯ থেকে খেলেন। পেপে বলেছেন, রোনালদোর জন্যই তারা শিরোপা জিততে চেয়েছিলেন। পেপের ভাষায়, "আমাদের প্রধান মানুষটাকে হারিয়ে খেলাটা কঠিন ছিল। ও যে কোনো সময় গোল করতে জানে। ব্যবধান গড়ে দিতে পারে। কিন্তু মাঠে আমরাও যোদ্ধা ছিলাম। আমরা বলেছিলাম, শিরোপাটা রোনালদোর জন্য জিতবো। আর সেটা করতে পেরেছি।"

নির্বাচিত সংবাদ