১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

জামালপুরে ৪০ লিটার চোলাই মদসহ আটক ৫

জামালপুরে ৪০ লিটার চোলাই মদসহ আটক ৫

নিজস্ব সংবাদদাতা, জামালপুর ॥ জামালপুর জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের টাস্কফোর্স দলের অভিযানে ৪০ লিটার চোলাই মদ ও ২০০ লিটার উপকরণসহ পাঁচজন চোলাই মদ বিক্রেতা আটক এবং অননুমোদিত স্পিরিট বিক্রির দায়ে ওই বাজারের এক বিক্রেতাকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেছে। মঙ্গলবার দুপুরে জামালপুর সদর উপজেলার নান্দিনা বাজারে রবিদাস কলোনিতে এ অভিযান চালানো হয়।

জানা গেছে, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের টাস্কফোর্স দলে নেতৃত্ব দেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. হোসেন পাটোয়ারী। এ সময় ওই দলে ছিলেন বিজিবির নায়েক সুবেদার মো. নজরুল ইসলাম, এনএসআই এর কণিষ্ঠ মাঠ কর্মকর্তা খন্দকার মাহবুবুর রহমান, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের পরিদর্শক হুমায়ুন কবীর ভুইয়া ও সদর থানার সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) মো. জহির।

টাস্ক ফোর্স দলটি প্রথমে নান্দিনা বাজারের রবিদাস কলোনিতে অভিযান চালায়। অভিযানে রাধা রানী রবিদাস, রঞ্জিত রবিদাস, গোল্ডেন রবিদাস, মো. আব্দুল খালেক ও শিউলী রবিদাসকে আটক করা হয়। এ সময় ৪০ লিটার চোলাইমদ ও চোলাইমদ তৈরির ২০০ লিটার উপকরণ (জাওয়া) জব্দ করা হয়। পরে টাস্কফোর্স দলটি নান্দিনা বাজারের সরকার ট্রেডার্স নামের একটি হার্ডওয়্যারের দোকানে অভিযান চালিয়ে ২০ লিটার ডিনেচার স্পিরিট জব্দ করে। এ সময় দোকান মালিক রুহুল আমিনকে আটক করা হয়।

পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. হোসেন পাটোয়ারি অননুমোদিত স্পিরিট বিক্রির দায়ে রুহুল আমিনকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। এ ব্যাপারে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের পরিদর্শক হুমায়ুন কবীর ভূঁইয়া বাদী হয়ে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে চোলাই মদ ও জাওয়াসহ আটক পাঁচজনের বিরুদ্ধে জামালপুর সদর থানায় পৃথক দু’টি মামলা দায়ের করেন।

মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক মো. শাহনেওয়াজ এ অভিযানের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।