২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

টমেটো রেসিপি

  • চলছে ভাদ্র মাস। বাইরে প্রচন্ড গরম। এ সময় বাইরের খাবার না খেয়ে ঘরেই তৈরি করে নিন পছন্দের আইটেম।;###;তেমনি কিছু রেসিপি দিয়েছেন- তাহমিনা আক্তার

চিকেন জাকুতি

যা লাগবে : মুরগির মাংস ১ কেজি, নারিকেল ১টি, পেঁয়াজ ৩০০ গ্রাম, তেঁতুলগোলা সিকি চা চামচ, তেল ৫০ মিলিলিটার, লবণ পরিমাণমতো, মরিচ ৬/৭টি, গোটা জিরা আধা চা চামচ, রসুন ৫/৬ কোয়া, গোটা পোস্ত ২ চা চামচ, লবঙ্গ ৫/৬টি, গোটা গোলমরিচ আধা চা চামচ, শাহিজিরা আধা চা চামচ, দারুচিনি ১ ইঞ্চি পরিমাণ টুকরা, ছোট এলাচ ২টি, মৌরা আধা চা চামচ।

যেভাবে করবেন : প্রথমে সব মসলা একসঙ্গে অল্প পরিমাণ তেল দিয়ে ভেজে নিতে হবে। এবার ১টা পেঁয়াজের সঙ্গে ভাজা মসলাগুলো একসঙ্গে বেটে নিতে হবে। অর্ধেকটা নারিকেল কুরিয়ে তার থেকে দুধ বের করে নিতে হবে। বাকি অর্ধেক নারিকেল কুরিয়ে তা ভেজে নিয়ে তারপর মিহি করে বেটে নিতে হবে। মুরগির মাংসগুলো ছোট ছোট টুকরো করে কেটে নিন এবং তাতে লবণ মাখিয়ে মিনিট পনেরো রেখে দিন। তারপর মাংসগুলোকে অল্প পরিমাণ পানি দিয়ে সিদ্ধ করুন। এক্ষেত্রে লক্ষ্য রাখতে হবে, যতক্ষণ পানি না শুকায় ততক্ষণ চুলায় রাখতে হবে। অবশিষ্ট পেঁয়াজ কুচিয়ে তা সামান্য তেলে ভেজে নিন। এবার সিদ্ধ করার মুরগির মাংস, ভাজা মসলা বাটা, নারিকেল বাটা দিয়ে সামান্য কষিয়ে নিন। কষানো হয়ে গেলে তাতে আধা কাপ পরিমাণ পানি দিয়ে মিনিট দশেক চুলায় রাখতে হবে। এরপর তাতে তেঁতুলগোলা ও নারিকেলের দুধ ঢেলে দিন। মসলাগুলো ভালভাবে ঝোলে মিশে না যাওয়া পর্যন্ত ফুটাতে হবে। ব্যাস হয়ে গেল চিকেন জাকুর্তি।

.

গরুর মাংসের আচার

যা লাগবে : গরুর বা খাসির মাংস (দেড় কেজি), আম বা জলপাইয়ের আচার (৩/৪ টেবিল চামচ), পেঁয়াজ কুঁচি (২ কাপ), রসুন বাটা (১ টেবিল চামচ), আদা বাটা (১ টেবিল চামচ), জিরা বাটা (১ টেবিল চামচ), সরিষা বাটা (১ টেবিল চামচ),

মরিচের গুঁড়া (১ টেবিল চামচ), হলুদ (১ টেবিল চামচ), দারুচিনি (৩/৪ টি), কাঁচামরিচ (৫/৬ টি), টকদই (আধা কাপ),

তেল (১ কাপ), চিনি (পরিমাণমতো)।

যেভাবে করবেন : প্রথমে মাংস টুকরো করে কাটুন ও তার সঙ্গে বাটা মশলা, গুঁড়া মসলা লবণ, টকদই ভালভাবে মাখিয়ে নিন এবং ১ ঘণ্টা রেখে দিন। এবারে তেল গরম দিন ও পেঁয়াজ লাল করে ভেজে মাংস ভাল করে কষান। এবারে গরম পানি দিয়ে মাংস রান্না করুন। পানি শুকিয়ে আসলে আচার, চিনি, কাঁচামরিচ, দারুচিনি দিয়ে মাংস ভাল করে ভুনা করুন ও সাজিয়ে পরিবেশন করুন।

.

ফ্রুট সালাদ

যা লাগবে : স্ট্রবেরি/কামরাঙ্গা কুচি- ১ কাপ, আপেল/কিউয়ি কুচি- ১ কাপ, আনারস/কলা কুচি- ১ কাপ, আঙুর/জাম কুচি- ১ কাপ, আদার রস- ১.৫ চা চামচ, মধু- ৪ টেবিল চামচ, লেবুর রস- ছোট দুইটি বা মাঝারি একটি লেবুর খোসা কুচি- ১ চা চামচ, টকদই- ১ কাপ কাচা, মরিচ কুচি- স্বাদমতো।

যেভাবে করবেন : অর্ধেক কাঁচামরিচ কুচি, মধু, আদার রস, লেবুর খোসা কুচি ও লেবুর রস একসঙ্গে মিশিয়ে নিন। এবার মিশ্রণটি একটি সসপ্যানে নিয়ে ১০-২০ সেকেন্ড জ্বাল দিন। মিশ্রণে বুদবুদ উঠলে জ্বাল বন্ধ করে মিশ্রণ ঠান্ডা করুন।

এবার ফলগুলো পছন্দমতো করে কেটে একটি বাটিতে রাখুন। এতে বাকি কাঁচামরিচ কুচি, ঠান্ডা করা মিশ্রণ ঢেলে চামচ দিয়ে নাড়ুন। ফলের সঙ্গে ড্রেসিং ভালমতো মিশে গেলে ছোট ছোট বাটিতে সালাদ ঢেলে এর উপর টকদই ঢেলে দিয়ে পরিবেশন করুন।

নির্বাচিত সংবাদ