২৪ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

মন্ত্রীরা মনে করে সরকারি গাড়ি তাদের ব্যক্তিগত সম্পত্তি ॥ রিজভী

মন্ত্রীরা মনে করে সরকারি গাড়ি তাদের ব্যক্তিগত সম্পত্তি ॥ রিজভী

অনলাইন রিপোর্টার ॥ সরকারি গাড়ি মন্ত্রীদের ব্যক্তিগত সম্পত্তি বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

তিনি বলেন, হবুচন্দ্র রাজার দেশের গবুচন্দ্র মন্ত্রীরা না আইন মানে, না কানুন মানে। তারা মনে করেন দেশটা তাদের জমিদারি।

আজ রবিবার দুপুরে নয়াপল্টনে দলীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

রিজভী বলেন, মন্ত্রীরা মনে করে দেশটা তাদের জমিদারি। সরকারি গাড়ি তাদের ব্যক্তিগত সম্পত্তি। কারণ তাদেরতো জবাবদিহি করতে হয় না। দুদক ও আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী তাদের করায়ত্বে, সুতরাং তারা ভয় পাবে কাকে? এ কারণে সরকারি গাড়ি নিয়ে ওবায়দুল কাদের সাহেব, নির্বাচনী প্রচারণার গান গাইতে শুরু করেছেন। জনগণকে থোরাই তোয়াক্কা করছেন।

তিনি বলেন, কী দরকার জনগণকে তোয়াক্কা করার? আপনারাতো ঘোষণা দিয়ে দিলেই পারেন। কারা আপনাদের প্রার্থী, কারা বিজয়ী হয়েছেন। আপনাদেরতো নির্বাচনের দরকার হয় না, দরকার হলে সরকারি গাড়িতে চড়ে প্রচারণা চালাতেন না।

ওবায়দুল কাদেরের উদ্দেশ্যে রিজভী বলেন, আপনাকে যখন গ্রেফতার করে তখন বলবেন, এটা পাঠশালা। আর যখন মন্ত্রী হন তখন আপনি পাঠশালার কথা ভুলে যান। আবারও গ্রেফতার করা হলে বলবেন, এরকম পাঠশালায় আসাটাই ভালো, না হলে আমরা ভুলই করতে থাকবো। আমার মনে হয় মাঝে মাঝে ওনার পাঠশালায় থাকা উচিত।

‘আওয়ামী লীগ ছাড়া জাতীয় ঐক্য হয় না’ ওবায়দুল কাদেরের এমন বক্তব্যের জবাবে রিজভী বলেন, আওয়ামী লীগতো আগেই জনগণকে ছেড়েছে। তাদের সঙ্গে ঐক্যের কি আছে? আর যদি ঐক্যের দরকারই হয়, তাহলে যে কাজগুলো করলে ঐক্য করা যায়, সে কাজগুলো করুন। অবাধ সুষ্ঠু নিরপেক্ষ নির্বাচনের ব্যবস্থা করুন। নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের ব্যবস্থা করুন। সংসদ ভেঙে দিন। খালেদা জিয়ার মুক্তিতো দিতেই হবে। তাহলে বুঝবো যে আপনাদের বোধোদয় হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আহমেদ আযম খান, বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আবুল খায়ের ভূঁইয়া, প্রশিক্ষণ বিষয়ক সম্পাদক এবিএম মোশারফ হোসেন, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সালাম আজাদ প্রমুখ।