১৯ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ঈশ্বরদীতে প্রতিদিন চুরি হচ্ছে লাখ লাখ টাকার রেলওয়ের তেল

ঈশ্বরদীতে প্রতিদিন চুরি হচ্ছে লাখ লাখ টাকার রেলওয়ের তেল

স্টাফ রিপোর্টার, ঈশ্বরদী ॥ ঈশ্বরদী লোকোসেড থেকে বের হওয়া ইঞ্জিন, ইয়ার্ডে শান্টিংয়ের ইঞ্জিন ও স্টেশন দিয়ে বিভিন্ন রুটে চলাচলকারী ট্রেনের ইঞ্জিন থেকে তেলচুরি বন্ধ হয়নি।বরং সাম্প্রতিক সময়ে বিভিন্ন রাণিং ট্রেনের ইঞ্জিনের তেল চুরি বৃদ্ধি পেয়েছে। তেলচুরির কারণে রেল কর্ক্ষৃপক্ষ প্রতিদিন লাখ লাখ টাকার ক্ষতির শিকার হচ্ছে। রেলের বিভিন্ন স্টাফ,শ্রমিক সংগঠনের সদস্য ও প্রত্যক্ষ দর্শির দেওয়া অভিযোগ সুত্রে এসব তথ্য জানাগেছে।

সুত্রমতে, রেলের পাকশী বিভাগের এক কর্মকর্তার নীরব সমর্থনে শ্রমিকলীগের দু’নেতা,জিআরপি পুলিশ ও নিরাপত্তা বিভাগ,লোকো ইনচার্জ অফিসের কতিপয় কর্তাব্যক্তি, ইয়ার্ড মাস্টার অফিসের কতিপয় সদস্যের সমন্বয়ে গঠিত একটি শক্তিশালী সিন্ডিকেট প্রতিদিন লাখ লাখ টাকার তেল বিক্রি করছে। সিন্ডিকেট সদস্যরা দীর্ঘদিন থেকে ঈশ্বরদী রেল ইয়ার্ড,পাতিবিল,ইস্তার সাঁকো,ভেড়ামারা,ঈশ্বরদী বাইপাস স্টেশন

এলাকা, চাটমোহর, ভাঙ্গুড়া, কোর্টচাঁদপুর, আব্দুলপুর, আড়ানী,আমনুরাসহ বিভিন্ন স্টেশন এলাকায় রাণিং ট্রেনের ইঞ্জিনের তেল চুরি করে প্রকাশ্যে বিক্রি করলেও দায়িত্বশীর কর্তা ব্যক্তিরা রহস্যজনক কারণে নীরব ভুমিকা পালন করে যাচ্ছেন। সুত্রমতে,সিন্ডিকেট সদস্যদের আয়ের সাথে সম্পদের আকাশ পাতাল তফাৎ রয়েছে।

রেলের দূর্নীতিমুক্ত কর্মকর্তা এবং দেশপ্রেমিক সৎ দুদক কর্মকর্তারাই কেবল তেল চুরি বন্ধ করে রেলকে আর্থিক ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা করতে পারেন। একই সাথে তারা ঐসব তেলচুরি সিন্ডিকেট সদস্যদের চাকুরির আড়ালে রাস্ট্রদ্রোহী কাজে জড়িত থেকে রাষ্ট্রের ক্ষতিকরে নিজেদের অবৈধ সম্পদের পাহার গড়ার প্রকৃত চিত্র জন সন্মুখে তুলে ধরার মাধ্যমে উন্নয়ন মুখি রেলকে ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা করতে পারেন।

নির্বাচিত সংবাদ