১৭ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ডিসেম্বরের শেষে কিংবা জানুয়ারির প্রথম দুই সপ্তাহের মধ্যে নির্বাচন ॥ মোশাররফ

নিজস্ব সংবাদদাতা, ফরিদপুর, ১২ অক্টোবর ॥ স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায়মন্ত্রী খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, আগামী ডিসেম্বরের শেষ সপ্তাহে কিংবা জানুয়ারির প্রথম দুই সপ্তাহের মধ্যে দেশে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। ফরিদপুর প্রেসক্লাবে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন মন্ত্রী। শুক্রবার দুপুর সাড়ে ১২টায় ক্লাবের একটি ভবনের নির্মাণ কাজের ফলক উন্মোচন উপলক্ষে সভার আয়োজন করা হয় প্রেসক্লাব চত্বরে।

খন্দকার মোশাররফ বলেন, আপনারা আমার বিরোধিতা করুন, তবে বিরোধিতার স্বার্থে বিরোধিতা করবেন না। বিরোধিতা করতে হবে আমার দোষত্রুটি দূর করতে। মন্ত্রী আরও বলেন, নির্বাচন এলে এবং প্রার্থী হলে সবাই এমন ভাব দেখায় আমি যেন তাদের কাছে ঠ্যাকা। নির্বাচন একটা ভ্যাজাইলা কাম। তারপরও নির্বাচন করতে হয়। নির্বাচন করে সংসদ সদস্য এবং পরে মন্ত্রী হয়েছিলাম বলেই ১০ বছরে ফরিদপুরের এত উন্নয়ন করতে পেরেছি।

মন্ত্রী বলেন, যেসব উন্নয়নের কাজ হাতে নেয়া হয়েছিল এর অনেকই এখনও অসমাপ্ত রয়ে গেছে। তাই আমাকে নির্বাচন করতে হবে। তিনি বলেন, আমার বয়স হয়েছে। এ অবস্থায় আপনাদের কাছে আমার চাওয়া ও পাওয়ার কিছু নেই। আমি আপনাদের দিতে চাই। আমার নির্বাচন করার মোটেও ইচ্ছা ছিল না। কিন্তু কিছু কাজ বাকি থাকায় নির্বাচন করতে হচ্ছে। খন্দকার মোশাররফ বলেন, আমি ফরিদপুরে সাধারণত আসি সড়কপথে। সম্ভব হলে হেঁটেই আসতে চাই। সাধারণত হেলিকপ্টারে ফরিদপুর আসি না। তবে একবার আমাকে জরুরী প্রয়োজনে হেলিকপ্টারে আসতে হয়েছিল। সেদিন আকাশ থেকে ফরিদপুরের বড় বড় ভবন দেখে নিজের জেলাকে নিজেই চিনতে পারিনি। আমার মনে হয়েছিল ঢাকাতেই আছি।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ফরিদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি ইমতিয়াজ হাসান ওরফে রুবেল। অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন ফরিদপুরের জেলা প্রশাসক উম্মে সালমা তানজিয়া। সভা পরিচালনা করেন প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক হাসানউজ্জামান।