১৫ নভেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

প্রথমবারের মতো খাশোগি হত্যার বিষয়টি মেনে নিলেন ট্রাম্প

প্রথমবারের মতো খাশোগি হত্যার বিষয়টি মেনে নিলেন ট্রাম্প

অনলাইন ডেস্ক ॥ মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রথমবারের মতো সৌদি সরকার বিরোধী সাংবাদিক জামা খাশোগির হত্যাকাণ্ডের বিষয়টি মেনে নিয়েছেন। তিনি হুমকি দিয়ে বলেছেন, যারা এ হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে তাদেরকে কঠোর পরিণতি ভোগ করতে হবে।

সম্প্রতি হোয়াইট হাউজে নিউ ইয়র্ক টাইমস পত্রিকার সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপ করার সময় এ হুঁশিয়ারি দেন ট্রাম্প। তবে সৌদি যুবরাজ মোহাম্মাদ বিন সালমানই যে এই হত্যাকাণ্ডের নির্দেশ জারি করেছেন সেকথা সরাসরি মেনে নেননি তিনি।

ডোনাল্ড ট্রাম্প স্বীকার করেছেন, খাশোগি হত্যাকাণ্ডে সৌদি আরবের জড়িত থাকার যে অভিযোগ উঠেছে তা তার প্রশাসনের পররাষ্ট্র নীতির জন্য একটি মারাত্মক সংকট তৈরি করেছে। মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেন, তিনি স্বীকার করে নিচ্ছে খাশোগি নিহত হয়েছেন। চারদিক থেকে আসা সমস্ত গোয়েন্দা সূত্র একই তথ্য দিচ্ছে বলে তিনি জানান।

আমেরিকার গ্রিন কার্ডধারী সাংবাদিক খাশোগি গত ২ অক্টোবর ইস্তাম্বুলস্থ সৌদি কনস্যুলেটে প্রবেশ করার পর আর বের হননি। সৌদি যুবরাজ মোহাম্মাদ বিন সালমানের রোষানল থেকে বাঁচতে গত বছর জামাল খাশোগি মাতৃভূমি ত্যাগ করে আমেরিকায় স্বেচ্ছা নির্বাসনে চলে যান। কিন্তু শেষ পর্যন্ত তিনি উগ্র যুবরাজ বিন সালমানের হাত থেকে রক্ষা পাননি।

মার্কিন দৈনিক ওয়াশিংটন পোস্ট সেদেশেরই গোয়েন্দা সূত্রের বরাত দিয়ে জানিয়েছে, বিন সালমানের সরাসরি নির্দেশে সৌদি নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা খাশোগিকে হত্যা করেছে।

সৌদি আরবের সঙ্গে হাজার হাজার কোটি ডলারের বাণিজ্যের কথা বিবেচনা করে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প গত কয়েকদিন ধরে খাশোগি হত্যার বিষয়টি ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করেন। কিন্তু আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে আসল সত্য দিবালোকের মতো স্পষ্ট হয়ে যাওয়ার পর তা মেনে নিতে বাধ্য হলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। #