১৮ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ঢাকা-১৭ আসনে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করলেন এরশাদ

ঢাকা-১৭ আসনে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করলেন এরশাদ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ সাবেক রাষ্ট্রপতি ও জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ-এর পক্ষে ঢাকা-১৭ আসনে নির্বাচনের জন্য মনোনয়ন পত্র সংগ্রহ করা হয়েছে। রবিবার দুপুরে রাজধানীর কচুক্ষেত এলাকায় সহকারি রিটানিং অফিসারের কার্যালয় থেকে এরশাদের পক্ষে মনোনয়ন পত্র গ্রহণ করেন জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য এবং জাতীয় পার্টি ঢাকা মহানগর উত্তরের সভাপতি এসএম ফয়সল চিশতী।

এসময় ফয়সল চিশতী সাংবাদিকদের বলেন, নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঢাকা-১৭ আসনে হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ প্রায় দেড় লাখ ভোটের ব্যাবধানে বিজয়ী হয়েছিলেন। এই আসনে হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের ব্যাপক জনপ্রিয়তা রয়েছে। এবং ব্যাপক উন্নয়ন করেছেন তিনি। সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে চিশতী আরো বলেন, ২০ নভেম্বর সকাল থেকে গুলশান-১ এর ইমানুয়েল কনভেনশন মিলনায়তনে পার্টির মনোনয়ন প্রত্যাশিদের সাক্ষাতকার গ্রহণ করবেন হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের নেতৃত্বে দলের মনোনয়ন বোর্ড।

এসময় জাতীয় পার্টি বনানী থানা সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান নাঈম, ভাসানটেক থানা সভাপতি মোঃ মনিরুজ্জামান, ক্যান্টনমেন্ট থানা সভাপতি ইব্রাহিম খান, গুলশান থানা সাধারন সম্পাদক আবদুস সাত্তার, বনানী থানার সাধারণ সম্পাদক মোঃ মামুনুর রহমান, বনানী থানা সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ মারজান উপস্থিত ছিলেন। দলীয় সূত্রে জানা গেছে, সাম্প্রতিক সময়ে ঘন ঘন অসুস্থ হচ্ছেন এরশাদ। অক্টোবর মাসে তিনি সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য। বৃহস্পতিবার তাকে আবারো সিএমএইচ-এ ভর্তি করা হয়। শনিবার মধ্যরাতে হাসপাতাল থেকে বাসায় ফিরেন এরশাদ। অসুস্থতা জনিত কারণে তিনি মনোনয়ন সংগ্রহ করতে যাননি বলে দলের নেতারা জানান।

এদিকে আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে এরশাদ চারটি আসনে প্রতিদ্বন্দিতা করবেন এমন খবর রয়েছে রাজনীতির মাঠে। তবে তিনি নিজেই ঢাকা-১৭, রংপুর -৪ ও সাতক্ষীরা-৪। কিন্তু হটাত করেই নারায়নগঞ্জ-১ আসন থেকে মনোনয়ন কেনার খবর আসে এরশাদের পক্ষ থেকে। আলোচনা আছে বিএনপির সাবেক নেতা নাজমূল হুদাকে ঢাকা-১৭ আসন থেকে মনোনয়ন দেবে আওয়ামী লীগ। ফলে এই আসনটি এরশাদ ছেড়ে দিতে পারেন। বৃহস্পতিবার ঢকা-১৭ আসন থেকে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ কারায় রাজনীতির হিসাব নিকাশ আবারো পাল্টে গেল।

২০০৮ সালের নির্বাচনে এই আসন থেকে মহাজোটের প্রার্থী হয়েছিলেন জাপা চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। ২০১৪ সালের নির্বাচনে হটাত করে এরশাদ সরে দাড়ালে আসনটি তার হাতছাড়া হয়। এই আসনে এমপি নির্বাচিত হন বাংলাদেশ ন্যাশনালিস্ট ফ্রন্ট- বিএনএফএস এর চেয়ারম্যান এম আবুল কালাম আজাদ। এবারের নির্বাচনে আসনি আবারো ফিরে পেতে চান এরশাদ। তাই নির্বাচনের আগেই ঘটা করে প্রচার প্রচারণা শুরু করেছিলেন তিনি।