১১ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সোমবারের মধ্যে এজতেমা ময়দান খুলে দেয়ার দাবিতে টঙ্গীতে সমাবেশ

সোমবারের মধ্যে এজতেমা ময়দান খুলে দেয়ার দাবিতে টঙ্গীতে সমাবেশ

নিজস্ব সংবাদদাতা, টঙ্গী ॥ আগামী ১০ ডিসেম্বর সোমবারের মধ্যে টঙ্গী বিশ্ব এজতেমা ময়দান খুলে দেয়ার দাবিতে এবং সা’দ পন্থীদের বর্বরোচিত হামলার প্রতিবাদে আজ শুক্রবার বাদ জুম্মা টঙ্গীর কলেজ গেটে জোবায়ের পন্থীদের এক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। সমাবেশ থেকে ঘোষণা দেয়া হয়, মাওলানা সা’দ এবং তার অনুসারীদের এজতেমা ময়দানে এবং বাংলাদেশের মসজিদ গুলোতে ঢুকতে দেয়া হবে না। সা’দ ও তার অনুসারীরা সন্ত্রাসী। এ দেশে তাদের ঠাই নেই। সমাবেশ চলাকালে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে চলাচলকারী শত শত যানবাহন দু’দিকে আটকা পড়ে। মহাসড়কের উপর সমাবেশ চলাকালে প্রায় সোয়া এক ঘন্টা যান চলাচল বন্ধ থাকে।

পূর্ব ঘোষিত জোবায়ের পন্থী স্থানীয় আলেম মুফতি মাওলানা মাসুদুল করিমের নেতৃত্বে বাদ জুম্মা অনুষ্ঠিত এ প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, সর্ব মাওলানা মুফতি মাসুদুল করিম, ইউনুস সাঈদী, জাকির হোসেন,আবুবকর কাসেমী, আনোয়ার হোসেন ফরিদি, জাহাঙ্গীর হোসেন কাসেমী, মোসাদ্দেকুল ইসলাম, নজরুল ইসলাম, মোসাদ্দেক হোসেন, মিজানুর রহমান, কেরামত আলী, ইয়াকুব আলী প্রমুখ।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, টঙ্গীর পশ্চিম থানায় হামলাকারী সা’দ পন্থীদের বিরুদ্ধে মামলা হলেও এখন পর্যন্ত দোষীদের কাউকে গ্রেফতার করা হয়নি। সন্ত্রাসীদের আইনের আওতায় এনে অবিলম্বে বিচারের দাবী জানান তারা। সা’দ পন্থী সন্ত্রাসী ওয়াসিকুল-নাসিমদের অবিলম্বে গ্রেফতারের দাবী জানিয়ে বক্তারা বলেন, টঙ্গীর এজতেমা ময়দানে সা’দ অনুসারীদের কোন জায়গা নেই। আলেম ওলেমাদের নির্দেশেই বিশ^ এজতেমা পরিচালিত হবে। বাংলাদেশকে আলেম শূন্য করতে মাওলানা সা’দ ষড়যন্ত্র শুরু করেছিলেন। তার এই হীন প্রচেষ্টা নৎসাত হয়ে গেছে। বাংলাদেশে কোন সা’দ বাহিনী থাকবে না। আলেম ওলামাদের নেতৃত্বেই থাকবে তাবলীগ জামাতের বিশ^ এজতেমা। সমাবেশে বক্তারা আরো বলেন, আগামী সোমবারের মধ্যে বিশ^ এজতেমা ময়দান খুলে দিতে হবে। নয়তো আগামী মঙ্গলবারের পর শাইখুল হাদিস আল্লামা আহম্মদ শফির নেতৃত্বে নয়া কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে। তারা বলেন, শাপলা চত্ত্বর এবং টঙ্গীর এজতেমা ময়দানে আলেম ওলেমারা রক্ত দিয়েছে। দাবী আদায়ে রাজপথে আরো রক্ত দেয়া হবে।

গাজীপুর জেলা হেফাজতে ইসলামের আমির ও সাদ বিরোধী আন্দোলনের নেতা মুফতী মাসুদুল করীমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় তিনি আরো বলেন, বিশ্ব এজতেমা ও ইসলামের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র চলছে, এই ষড়যন্ত্রেও হোতাদের প্রতিহত করতে হবে। এ দেশের কোন মসজিদে তাদের ঢুকতে দেয়া হবে না। সাদ পন্থীরা তাবলীগের নামে ইসলাম বিরোধী ভ্রান্ত মতবাদ প্রচার করে দ্বীনের ক্ষতি করছে। এটা বরদাস্ত করা হবে না। তিনি বলেন, এটা কিশোরগঞ্জ না, এটা ময়মনসিংহ না এটা টঙ্গীর বিশ^ এজতেমা ময়দানের এলাকা। আলেমদের উপর হামলার ঘটনায় প্রশাসন নিরব ভ’মিকার সমালোচনা করেন তিনি। টঙ্গীর মাছেলা ভিন্ন, টঙ্গীর আওয়ামীলীগ, টঙ্গীর বিএনপি, টঙ্গীর হেফাজত সবাই এক। টঙ্গীর মানুষ বিশ^ এজতেমার মেহমানদারী করে। সুতরাং এখানকার আলেম ওলেমারাও টঙ্গীর বিশ^ এজতেমা ময়দানকে জীবন দিয়ে হেফাজত করবে।

উল্লেখ করা যেতে পারে, গত শনিবার ১ ডিসেম্বর তাবলীগ জামাতের একাংশ সা’দ পন্থীরা এজতেমা মাঠে অবস্থানরত জোবায়ের পন্থীদের উপর হামলার ঘটনা ঘটায়। এতে এক মুসল্লী নিহত ও তিনশ’র উপর আহত হন।