১৭ ফেব্রুয়ারী ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সাজেদা চৌধুরী তৃতীয়বারের মতো সংসদ উপনেতা

সংসদ রিপোর্টার ॥ টানা তৃতীয়বারের মতো জাতীয় সংসদের উপনেতা হলেন আওয়ামী লীগের সভাপতিম-লীর সদস্য ও প্রবীণ রাজনীতিক মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী। সিঙ্গাপুরে অবস্থানরত রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ ই-ফাইলিংয়ের মাধ্যমে সোমবার তার নিয়োগ দেন।

সন্ধ্যায় জাতীয় সংসদ সচিবালয়ে সিনিয়র সচিব ড. জাফর আহমেদ খান স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনেও স্পীকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী কর্তৃক সংসদ উপনেতা হিসেবে সৈয়দা সাজেদা চৌধুরীকে স্বীকৃতি প্রদানের তথ্য জাননো হয়। এটি ৭ ফেব্রুয়ারি সোমবার থেকেই কার্যকর হবে।

গত ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী ফরিদপুর-২ আসন থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। এর আগে ২০০৮ সালের ২৯ ডিসেম্বরের নির্বাচনে আওয়ামী লীগের নিরঙ্কুশ বিজয়ের পর সৈয়দা সাজেদা চৌধুরীকে সংসদ উপনেতা করা হয়। এরপর দশম সংসদেও তিনি উপনেতার দায়িত্ব পান। সংসদ উপনেতা হিসেবে মন্ত্রীর মর্যাদা পাবেন সাজেদা চৌধুরী।

১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে হত্যার পর বিপর্যয়ের মুখে পড়ে আওয়ামী লীগ। সেই সঙ্কটময় মুহূর্তে আওয়ামী লীগকে সংগঠিত রাখতে গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেন সাজেদা চৌধুরী। ১৯৭৬ সালে সাজেদা চৌধুরী আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পান। ১৯৮৬ সাল থেকে ১৯৯২ সাল পর্যন্ত তিনি আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। ১৯৯২ থেকে আওয়ামী লীগের সভাপতিম-লীর সদস্য নির্বাচিত হয়ে আসছেন। এর আগে ১৯৬৯ থেকে ৭৫ পর্যন্ত সাজেদা চৌধুরী মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ছিলেন।

১৯৫৬ সাল থেকে সক্রিয়ভাবে আওয়ামী লীগের রাজনীতির সঙ্গে জড়িত ছিলেন সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী।

মুক্তিযুদ্ধকালীন কলকাতা গোবরা নার্সিং ক্যাম্পের প্রতিষ্ঠাতা পরিচালক ছিলেন তিনি। ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধেও অংশ নেন এই নেতা। স্বাধীনতার পর ১৯৭২ থেকে ১৯৭৬ পর্যন্ত সময়কালে বাংলাদেশ গার্লস গাইডের ন্যাশনাল কমিশনারও ছিলেন সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী।