১৯ এপ্রিল ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বিআরটিসিতে নিম্নমানের যাত্রীসেবা

নিজস্ব সংবাদদাতা, ভৈরব, ১১ ফেব্রুয়ারি ॥ ভৈরব থেকে ঢাকা চলাচলকৃত সরকারী পরিবহন সংস্থা বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্পোরেশন (বিআরটিসি) বাস সেবার মান খুবই নিম্নমানের। লক্কড়-ঝক্কড় গাড়ি, যাত্রী নিয়ে অনেক সময় পথেই ঘণ্টার পর ঘণ্টা যাত্রীরা বসে থাকতে হয়। গণপরিবহন হিসেবে সরকারী সংস্থাটির ভূমিকা ক্রমশই কমছে। ভৈরব থেকে চলাচলকৃত গণপরিবহনে কার্যকর কোন ভূমিকাই রাখতে পারছে না সংস্থাটি। জানা গেছে, ভৈরব-ঢাকা চলাচলকৃত দু’তলা বাস সার্ভিস চালু রয়েছে। আবার ভৈরব থেকে নরসিংদীর বারৈচা পর্যন্ত বিআরটিসির নতুন সার্ভিস চালু হয়েছে। এ সকল বাসে যাত্রীরা প্রায় ভোগান্তিতে পড়ে। একদিকে অতিরিক্ত ভাড়া আদায়। অন্যদিকে মাঝ রাস্তায় বাসের চাকা পাংচার হয়ে যাত্রীরা বিড়ম্বনায় পড়ে।

বিআরটিসির এক কর্মকর্তা জানান, স্বল্প দূরত্বে দু’তলা বাস সার্ভিস চালু থাকার কথা থাকলেও এ সার্ভিস দেয়া হয়েছে, ভৈরব-ঢাকা পর্যন্ত। আবার ভৈরব থেকে মাত্র ৮ কিলোমিটার এলাকায় দেয়া হয়েছে একতলা বাস সার্ভিস। এক শ্রেণীর কর্মকর্তা ও কর্মচারীসহ চালকরা বাস মেরামতের নামে যন্ত্রাংশ চুরিসহ ভুয়া ভাউচার তৈরি করে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়ে সংস্থাটিকে লোকসানের মুখে ফেলছে। ভৈরবে যদিও চারটি পেট্রোল পাম্প রয়েছে। তবু চালকরা খোলা বাজার থেকে চোরাই জ্বালানি ক্রয় করে বাস চালাচ্ছে। এতে বাসের যন্ত্রাংশের ক্ষতি হচ্ছে।

নির্বাচিত সংবাদ