১২ ফেব্রুয়ারী ২০১৯

নীলফামারীতে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র জমা দিলেন যারা-

স্টাফ রিপোর্টার, নীলফামারী ॥ প্রথম ধাপে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে নীলফামারীর ছয় উপজেলায় প্রার্থীরা মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে। সোমবার মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন জেলা সদরের প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীরা জেলা রিটার্নিং অফিসার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আজাহারুল ইসলাম ও উপজেলা পর্যায়ের প্রার্থীরা স্ব স্ব উপজেলার সহকারী রিটার্নিং অফিসার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাদের নিকট তাদের মনোনয়নপত্র দাখিল করেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রমতে মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ সময় বিকেল ৫টা পর্যন্ত ছয় উপজেলায় মোট চেয়ারম্যান পদে ২১জন, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩০জন ও সংরক্ষিত নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে ২১ মনোনয়নপত্র দাখিল করে।

নীলফামারী সদর ॥ এই উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে তিনজন মনোনয়নপত্র দাখিল করে। এরা হলেন শাহিদ মাহমুদ (আওয়ামী লীগ), ফয়েজ আহমেদ (এনপিপি-ন্যাশনাল পিপলস পার্টি) ও সাদিক হোসেন নয়ন (স্বতন্ত্র)।

পুরুষ ভাইস চেয়ারম্যান পদে ছয়জন মনোনয়নপত্র দাখিল করে। এরা হলেন দীপক চক্রবর্তী (আওয়ামী লীগ), মিজানুর রহমান (আওয়ামী লীগ), শাহজামাল (আওয়ামী লীগ), রফিকুল ইসলাম রফিক (আওয়ামী লীগ), শরিফুল ইসলাম রিপন (আওয়ামী লীগ) ও আতাউর রহমান বাবু (ন্যাপ)।

সংরক্ষিত নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে তিনজন মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। এরা হলেন বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান আরিফা সুলতানা লাভলী (আওয়ামী লীগ), সান্তনা চক্রবর্তী (আওয়ামী লীগ) ও জেসমিন আক্তার সাথী (আওয়ামী লীগ)।

ডোমার উপজেলা ॥ এই উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে তিনজন মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। এরা হলেন বর্তমান চেয়ারম্যান আবদুর রাজ্জাক বসুনিয়া (স্বতন্ত্র), তোফায়েল আহমেদ (আওয়ামী লীগ) ও ডোমার উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার নুরননবী (স্বতন্ত্র)।

ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন ৪ জন। এরা হলেন আবদুল মালেক (আওয়ামী লীগ), রনজিৎ কুমার রায় (স্বতন্ত্র), জগৎবন্ধ ু(স্বতন্ত্র) ও শাহজাহান সিরাজ স্বপন (স্বতন্ত্র)।

সংরক্ষিত নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে তিন জন মনোনয়নপত্র দাখিল করে। এরা হলো বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান সন্ধ্যা রানী (আওয়ামী লীগ), রওশন কানিজ ও দীপা রানী রায় (স্বতন্ত্র)।

ডিমলা উপজেলা ॥ এই উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন ৪ জন। এরা হলেন মুক্তিযোদ্ধা তবিবুল ইসলাম (আওয়ামী লীগ), মোশারফ হোসেন (জাতীয় পার্টি), আবদুর রহমান (ন্যাপ) ও সোহেল হোসেন (ওয়ার্কার্স পার্টি)।

পুরুষ ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন ৪ জন। এরা হলেন নিরেন্দ্র নাথ রায় (আওয়ামী লীগ), আমজাদ হোসেন সরকার (আওয়ামী লীগ), মোফাখারুল ইসলাম পেলব (ন্যাপ) ও সুজয় চন্দ্র রায় (স্বতন্ত্র)। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন ৩ জন। এরা হলেন জাহানারা বেগম (আওয়ামী লীগ), তাসলি খাতুন (ন্যাপ) ও বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান আয়েশা সিদ্দিকা (স্বতন্ত্র)।

জলঢাকা উপজেলা ॥ এই উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন ২ জন। এরা হলো আনছার আলী মিন্টু (আওয়ামী লীগ) ও আবদুল ওয়াহেদ বাহাদুর (স্বতন্ত্র হিসেবে আওয়ামী লীগ)। ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন ৪ জন। এরা হলেন মশিউর রহমান (আওয়ামী লীগ), গোলাম আযম এলিন (জাসদ ইনু), শাহিনুল ইসলাম (আওয়ামী লীগ) ও মোমিনুল ইসলাম মঞ্জু (জাতীয় পার্টি)।

সংরক্ষিত নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন দুই জন। এরা হলেন বর্তমান নারী ভাইস চেয়ারম্যান রিভা আক্তার (স্বতন্ত্র) ও মনোয়ারা বেগম (স্বতন্ত্র)।

কিশোরীগঞ্জ উপজেলা ॥ এখানে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন ৬ জন। এরা হলেন বর্তমান চেয়ারম্যান রশিদুল ইসলাম (জাতীয়পার্টি), জাকীর হোসেন বাবুল (আওয়ামী লীগ), বিপ্লব কুমার সরকার দিপু (স্বতন্ত্র হিসেবে আওয়ামী লীগ), আবুল কালাম বারী পাইলট (স্বতন্ত্র আওয়ামী লীগ), আ ফ ম রুহুল ইসলাম (স্বতন্ত্র হিসেবে বিএনপি) ও রশিদুল ইসলাম রশিদ (স্বতন্ত্র)।

ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৭জন মনোনয়ন দাখিল করেছেন। এরা হলেন রবিউল ইসলাম (আওয়ামী লীগ), স্বপন কুমার রায় (আওয়ামী লীগ), ইদ্রিস আলী (স্বতন্ত্র), বাদশা আলমগীর (স্বতন্ত্র), আশিক আলী (স্বতন্ত্র), হাফিজুল ইসলাম (স্বতন্ত্র) ও কুদরত ই-খোদা (স্বতন্ত্র)।

সংরক্ষিত নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৭ জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। এরা হলেন বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান শিরিনা বেগম (স্বতন্ত্র), লাইলী বেগম কাদের (আওয়ামী লীগ), মোখলেছা বেগম (স্বতন্ত্র), রোকসানা বেগম (স্বতন্ত্র), নাছিমা বেগম (স্বতন্ত্র), শিল্পী রানী (স্বতন্ত্র) ও শাপলা বেগম (স্বতন্ত্র)।

সৈয়দপুর উপজেলা ॥ এই উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন তিন জন। এরা হলেন বর্তমান চেয়ারম্যান মোখছেদুল মোমিন (আওয়ামী লীগ), জয়নাল আবেদীন (জাপা) ও রুহুল আলম (ওয়ার্কার্স পার্টি)।

ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন ৫ জন। এরা হলেন মোঃ আজমল হোসেন (স্বতন্ত্র), আনোয়ার হোসেন প্রামাণিক (স্বতন্ত্র), মোঃ সুরত আলী (জাপা), মোঃ মনোয়ার হোসেন ও মোঃ জাহাঙ্গীর সরকার (স্বতন্ত্র)।

সংরক্ষিত নারী ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন ৩ জন। এরা হলেন বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান রওনক জাহান রিনু (স্বতন্ত্র) সানজিদা বেগম লাকী (স্বতন্ত্র) ও মোছাঃ হাসিনা বেগম (স্বতন্ত্র)।

মোহনগঞ্জ

নিজস্ব সংবাদদাতা মোহনগঞ্জ, নেত্রকোনা থেকে জানান, সোমবার উপজেলা সহকারী রিটার্নিং অফিসার মোঃ মেহেদী মাহমুদ আকন্দের কাছে চেয়ারম্যান পদে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ শহীদ ইকবাল দলীয়ভাবে মনোনয়নপত্র জমা দেন। অন্যদিকে আওয়ামী লীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মজিবুর রহমান কাচা মিয়া, যুবলীগের সাবেক সভাপতি ইজাজুল হক রয়েল স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। ভাইস চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের আধা ডজন প্রার্থী তাদের মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। তারা হলেন, মোঃ ওয়াজ উদ্দিন, দীলিপ দত্ত, আবুল খায়ের মিলন, ওমর ফারুক, রুহুল আমীন নগরী, মোঃ কাজল তালুকদার। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে রয়েছেন ৪ জন। তারা হলেন, কামরুন্নাহার বুলবুল, তাহমিনা আক্তার শান্তা, নাছিমা আক্তার লিপি, রুনা আক্তার।

বেলকুচি

সংবাদদাতা বেলকুচি সিরাজগঞ্জ থেকে জানান, উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে সিরাজগঞ্জের বেলকুচিতে ১৪ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। সোমবার উপজেলা নির্বাচন অফিস কার্যালয়ে সহকারী রিটার্নিং অফিসার মোছাঃ জায়েদা খাতুনের নিকট মনোনয়নপত্র জমা দেন। চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ প্রার্থী সাবেক চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী আকন্দ, স্বতন্ত্র প্রার্থী বেলকুচি ডিগ্রী কলেজের সাবেক ভিপি মীর সেরাজুল ইসলাম, সাবেক ভিপি নূরুল ইসলাম সাজেদুল ও মোঃ আনোয়ার হোসেন। ভাইস চেয়ারম্যান পদে জমাদানকারী ব্যক্তিদের মধ্যে রয়েছেন মোঃ ইউসুফ আলী শেখ, হাজী পিয়ার হোসেন, ফারুক সরকার, আবদুর রাজ্জাক সরকার, আতাউর রহমান ও আলহাজ আলী। এছাড়া মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে নার্গিস বেগম ঊষা, নারগীছ খাতুন, রতœা হান্নান ও রাজিয়া সুলতানা মিলন। ৫ম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ১ম ধাপে ১০ মার্চ বেলকুচি উপজেলার প্রায় ২ লাখ ৪০ হাজার ভোটার ৮৪টি কেন্দ্রে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবে।

মাধবপুর

নিজস্ব সংবাদদাতা মাধবপুর হবিগঞ্জ থেকে জানান, মাধবপুরে চেয়ারম্যান পদে ৩ জন, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪ জন মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৫ জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। সোমবার সকাল থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত মাধবপুর নির্বাচন কার্যালয়ে প্রার্থীরা মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন আওয়ামী লীগ মনোনয়ন প্রার্থী আতিকুর রহমান, স্বতন্ত্র প্রার্থী এহতেশাম উল চৌধুরী লিপু, সৈয়দ মোঃ শাহজাহান, ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী বাবুল হোসেন খান, শ্রীধাম দাশগুপ্ত, মজিব উদ্দিন তালুকদার ওয়াসীম ও আবদুল আজিজ। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী জাহানারা বেগম শেলী, এ্যাডবোকেট সুফিয়া আক্তার হেলেন, মরিয়ম রহমান বাবুনি, নাজমা পাঠান লাইলি, রোকেয়া বেগম।

জয়পুরহাট

নিজস্ব সংবাদদাতা জয়পুরহাট থেকে জানান, জেলার পাঁচ উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগ দলীয়সহ মোট ১১ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। আর ভাইস চেয়ারম্যান (পুরুষ) পদে জমা দিয়েছেন ৩১ জন এবং মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন ১৬ প্রার্থী। জয়পুরহাট সদর উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে একমাত্র সরকার দলীয় প্রার্থী এস এম সোলায়মান আলী মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। পাঁচবিবিতে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মুনিরুল শহীদ ম-ল, স্বতন্ত্র প্রার্থী আবু সাঈদ আল মাহবুব চন্দন এবং রাণী রাবেয়া আসরী, আক্কেলপুরে আওয়ামী লীগের মোকছেদ আলী, জাসদের আবু খায়ের মোঃ সাখাওয়াত হোসেন ও স্বতন্ত্র হিসেবে আবদুস সালাম আকন্দ, ক্ষেতলালে আওয়ামী লীগের মোস্তাকিম ম-ল ও স্বতন্ত্র তাইফুল ইসলাম এবং কালাই উপজেলায় আওয়ামী লীগের মিনফুজুর রহমান মিলন, জাসদের তারেকুল ইসলাম ও স্বতন্ত্র হিসেবে জহুরুল ইসলাম মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।

রাজশাহী

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী থেকে জানান, রাজশাহীর ৮ উপজেলায় ব্যাপক উৎসব মুখর পরিবেশে মনোনয়ন পত্র দাখিল করেছেন প্রার্থীরা। সোমবার দাখিলের শেষদিনে বেলা ১০ টা থেকে বিকাল ৫টার মধ্যে চেয়ারম্যান পদে ২৫ প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। জেলার ৯ টি উপজেলা হলেও আদালতে রিট করার কারনে স্থগিত হওয়ায় পবা উপজেলা নির্বাচনে কোনো প্রার্থী মনোনয়ন দাখিল করেন নি। প্রথম দফা তফসিল অনুযায়ী আগামী ১০ মার্চ এসব উপজেলায় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

জেলার নির্বাচন অফিস সূত্র জানায়, শেষ দিনে রাজশাহীর ৮ টি উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে মোট ২৫ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। এদের মধ্যে তানোরে চারজন, গোদাগাড়ীতে চারজন, চারঘাটে দুইজন, বাঘায় চারজন, বাগমারায় তিনজন, মোহনপুরে চারজন, দুর্গাপুরে তিনজন ও পুঠিয়ায় তিনজন প্রার্থী মনোনয়ন দাখিল করেছেন। এদের মধ্যে জেলার তানোরে মনোনয়ন দাখিল করেন আওয়ামী লীগের মনোনীত লুৎফর হায়দার রশিদ ময়না ও ওয়ার্কার্স পার্টির শরিফুল ইসলাম। গোদাগাড়ীতে মনোনয়ন দাখিল করেছেন আওয়ামী লীগের মনোনীত জাহাঙ্গীর আলম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বদিউজ্জামান, স্বতন্ত্র সালাউদ্দিন বিশ^াস ও ওয়ার্কার্স পার্টির সাইদুর রহমান। বাঘায় চারজন হলেন, আওয়ামী লীগের মনোনীত লায়েব উদ্দিন লাভলু, ছাত্রলীগ নেতা মেরাজুল ইসলাম মেরাজ, বিএনপি নেতা আবদুল্লাহ আল মামুন ও জাপা নেতা সামশুদ্দিন রিন্টু।

চারঘাটে মনোনয়ন দাখিলকারী দুইজন হলেন, আওয়ামী লীগ মনোনীত ফখরুল ইসলাম ও এ্যাডভোকেট টিপু সুলতান। দুর্গাপুরে যারা মনোনয়ন দাখিল করেছেন তারা হলেন, আওয়ামী লীগের নজরুল ইসলাম, আবদুল মজিদ (আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী) ও আবদুল কাদের মন্ডল। মোহনপুরে আওয়ামী লীগ মনোনীত এ্যাডভোকেট আবদুস সালাম, জাপার কামরুজ্জামান বুলু, স্বতন্ত্র শহীদ ইবনে ও আফজাল হোসেন বকুল। জেলার বাগমারায় তিনজন হলেন আওয়ামী লীগের মনোনীত অনিল কুমার সরকার, বিএনপির ডিএম জিয়াউর রহমান ও বাবুল হোসেন এবং জেলার পুঠিয়ায় মনোনয়ন দাখিল করেছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত জিএম হিরা বাচ্চু, জাপার আনসার আলী ও মোখলেসুর রহমান মন্টু।