২১ জুন ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

নারায়ণগঞ্জের তিন নারীকে নির্যাতনের ঘটনায় মামলা, গ্রেফতার ১

নারায়ণগঞ্জের  তিন নারীকে নির্যাতনের ঘটনায় মামলা, গ্রেফতার ১

স্টাফ রিপোর্টার, নারায়ণগঞ্জ ॥ নারায়ণগঞ্জের বন্দরে তিন নারীকে যৌনকর্মী আখ্যা দিয়ে গাছের সঙ্গে বেঁধে অমানুষিক নির্যাতনের ঘটনায় সোমবার বিকেলে পুলিশ মামলা নিয়েছে। সোমবার মানবাধিকার কমিশনের তিন সদস্য নারায়ণগঞ্জে ঘটনাস্থলে এসে এর সত্যতা পান। পরে বন্দর থানা পুলিশ বাধ্য হয়ে মামলা নেয়। সোমবার রাত ৮টায় এ ঘটনায় দায়ের করা মামলার প্রধান আসামী ইউসুফ মেম্বারকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে বন্দর থানার ওসি মোঃ রফিকুল ইসলাম জানান।

জানা গেছে, গত (১৬ ফেব্রুয়ারী) শনিবার বিকেলে উপজেলার কলাবাগ এলাকায় ফাতেমা আক্তার, আসমা বেগম ও বানু বেগমকে যৌনকর্মী আখ্যা দিয়ে প্রায় দুই ঘন্টা গাছের সঙ্গে বেঁধে রেখে লোহার রড ও লাঠি দিয়ে পেটায়। এসময় তিন নারীর চুল কেটে দেয়া হয় এবং এক পর্যায়ে তাদের গায়ের কাপড় খুলে নেয়ারও চেষ্টা করা হয়। এসময় ফাতেমার বাড়ীতে লুটপাট ও ভাঙচুর চালানোর অভিযোগ পাওয়া যায়। এদিকে বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে জানতে পেরে জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের তিন সদস্য এ সোমবার দুপুরে নারায়ণগঞ্জে আসেন। তারা নির্যাতিতা তিন নারীর জবানবন্দি গ্রহণ করেন এবং পুলিশ প্রশাসনের কাছে ন্যায়বিচার দাবি করেন।

এ ব্যাপারে দু:খপ্রকাশ করে মানবাধিকার কমিশনের তদন্ত কমিটি গণমাধ্যমকে জানান, আগামীকালই তারা কমিশনের চেয়ারম্যান কাজী রিয়াজুল হকের কাছে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল সহ প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে সরকারকে সুপারিশ করবেন।

বন্দর থানার ওসি মোঃ রফিকুল ইসলাম জানান, এ ঘটনায় নির্যার্তিত ফাতেমা বেগম বাদি হয়ে নয়জনের নাম উল্লেখ করে এবং অজ্ঞাত আরো ১৫ থেকে ২০ জনকে আসামী করে সোমবার বিকেলে মামলা দায়ের করেছে। ওসি রাত সোয়া ৯টায় আরো জানান, এ ঘটনার প্রধান আসামী ইউসুফ মেম্বারকে বন্দর উপজেলার কলাবাগ এলাকা থেকে সোমবার রাত ৮টায় গ্রেফতার করা হয়েছে।