১৮ জুন ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

মোবাইল ব্যাংকিংয়ে প্রতিদিন ১ হাজার ১১৬ কোটি টাকা লেনদেন

মোবাইল ব্যাংকিংয়ে প্রতিদিন ১ হাজার ১১৬ কোটি টাকা লেনদেন

অর্থনৈতিক রিপোর্টার ॥ দেশে মোবাইল ব্যাংকিংয়ের জনপ্রিয়তা দিন দিন বাড়ছে। বর্তমানে এ সেবা ব্যবহার করেই মানুষ তাদের পরিবার পরিজন ও নিকটাত্মীয়ের কাছে বেশি টাকা পাঠাচ্ছে। শুধু টাকা পাঠানোই নয়, বিদ্যুৎ, গ্যাস, পানির বিল পরিশোধ, কেনাকাটার বিল পরিশোধ, বেতন-ভাতা প্রদান, রেমিট্যান্স প্রেরণসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে মোবাইল ব্যাংকিংসেবা ব্যবহারে আগ্রহী হচ্ছে মানুষ।

ফলে প্রতি মাসেই এ সেবায় হাজার হজার গ্রাহক অন্তর্ভুক্ত হচ্ছেন। এতে বাড়ছে আর্থিক লেনদেনের পরিমাণও। বাংলাদেশ ব্যাংকের হিসাবে, ২০১৮ সালের জানুয়ারি শেষে দেশে মোবাইল ফিন্যান্সিয়াল সার্ভিসের গ্রাহক দাঁড়িয়েছে ৬ কোটি ৭২ লাখ। অন্যদিকে, জানুয়ারি মাসে এ সেবায় দৈনিক লেনদেন হয়েছে প্রায় ১১১৬ কোটি টাকা।

জানা গেছে, নানামুখী ব্যবহার আর সহজলভ্য হওয়ার কারণে মোবাইল ব্যাংকিং সেবার মাধ্যমে গ্রামীণ জনজীবন অনেক সহজ হয়েছে। এর মাধ্যমে ঘরে বসেই করা যায় অনেক কাজ। বাস ও ট্রেনের টিকিট থেকে শুরু করে বিশ্ববিদ্যালয়ের বেতন পরিশোধ করা, কেনাকাটা করা ও বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করা যায় মানুষের হাতের মুঠোয় থাকা ছোট্ট যন্ত্রটির মাধ্যমে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, মোবাইলের মাধ্যমে তাৎক্ষণিকভাবে বা অতি দ্রুত শহর থেকে গ্রামে, গ্রাম থেকে শহরে সর্বত্রই টাকা পাঠানোর সুযোগ তৈরি হয়েছে। দিন দিন গ্রাহক সংখ্যা বাড়ছে। দেশের সব শ্রেণি-পেশার মানুষ যুক্ত হচ্ছে।

ফলে মোবাইল ব্যাংকিং দেশের ব্যাংকিং সেবায় এক বৈপ্লবিক পরিবর্তন এনেছে।