১৯ আগস্ট ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

পদ্মা সেতুর জাজিরা প্রান্তে রোডওয়ে স্লাব বসানো শুরু

পদ্মা সেতুর জাজিরা প্রান্তে রোডওয়ে স্লাব বসানো শুরু

মীর নাসিরউদ্দিন উজ্জ্বল, জাজিরা থেকে ফিরে ॥ পদ্মা সেতুর রোডওয়ে স্লাব স্থাপন শুরু হয়েছে। মঙ্গলবার সেতুর জাজিরা প্রান্তের ৪২ নম্বর খুঁটি থেকে এই স্লাব স্থাপন শুরু হয়েছে। প্রায় ২২ মিটার দীর্ঘ এবং দুই মিটার প্রস্থ স্লাবটি সফলভাবে স্থাপন করা হয়। এই স্লাব দিয়েই গাড়ি চলবে। তবে এই স্লাবের ওপরে পিচ ঢালাই একটি স্তর থাকবে।

৬.১৫ কিলোমিটার দীর্ঘ মূল সেতুতে ২ হাজার ৯ শ’ ৩১টি রোডওয়ে স্লাব বসবে। ৪২ ও ৪১ নম্বর খুঁটির ওপর স্থাপিত স্প্যানে প্রথম রোডওয়ে স্লাবটি বসানো হয়েছে। প্রথম স্থাপন করা রোডওয়ে স্লাবটির নম্বর ‘৭ এফ ইউ ৩৩’। অর্থাৎ ৭ নম্বর মডিউলের ৩৩টি স্লাব বসবে। তার মধ্যে শেষ প্রান্তের স্লাব এটি। এটি তৈরি করা হয় ২০১৮ সালের ১৯ জুলাই। স্লাবের মধ্যেই এই নাম্বার এবং তৈরির তারিখ ইংরেজীতে লেখা। সেতুটির ওপর তলায় এই স্লাব বসানো হচ্ছে। আর নিচের তলায় এর আগেই বসানো শুরু হয়েছে রেলওয়ে স্লাব। ইতোমধ্যেই ২২৪টি স্লাব বসানো হয়ে গেছে। রেলওয়ে স্লাব স্থাপন হবে ৩ হাজার ২১টি। ইতোমধ্যেই দেড় হাজারেরও বেশি রেলওয়ে স্লাব তৈরি হয়ে গেছে। আর রোডওয়ে স্লাব তৈরি হয়েছে ৫১০টি। বেশ কিছুদিন ধরেই সেতুর এই রোডওয়ে স্লাব স্থাপনের কথা ছিল। কয়েক দফা সিডিউল দেয়া হলেও শুরু করা যায়নি। তবে মঙ্গলবার এটি সফল স্থাপনের মধ্য দিয়ে সেতুর কাজের আরেক ধাপ এগিয়ে গেল। বৃহস্পতিবার আরও একটি রোডওয়ে স্লাব বসতে পারেও বলেও দায়িত্বশীল প্রকৌশলীরা জানিয়েছেন। এখন এই স্লাব প্রতিনিয়ত স্প্যানে বসতে থাকবে। স্লাবটি বসানোর পর দুপুরে সেতুর কর্তৃপক্ষের উর্ধতন প্রকৌশলী ও কর্মকর্তারা পরিদর্শন করেছেন।

এদিকে পদ্মা সেতুতে আরও একটি স্প্যান বসছে বৃহস্পতিবার। এটি বসবে ৩৫ ও ৩৪ নম্বর খুঁটিতে। ওয়ার্কশপের জেডিতে মঙ্গলবার ভাসমান ক্রেনবাহী জাহাজটির সঙ্গে স্প্যানটি বাঁধা হয়ে গেছে। বুধবার সকালেই এটি গন্তব্যে রওনা হবে। আর বৃহস্পতিবার সকালেই এটি বসানো হবে। এর আগেই জাজিরা প্রান্তে আরও ৭টি স্প্যান স্থান হয়েছে। আর মাওয়া প্রান্তের ৫ ও ৪ নম্বর খুঁটিতে বসানো হয়েছে আরেকটি স্প্যান। যদিও এটি ৬ ও ৭ নম্বর খুঁটিতে সরিয়ে আনা হবে। ৬ ও ৭ নম্বর খুঁটিতে এখন পাইল বসানোর কাজ চলছে। মাওয়া প্রান্তের স্প্যানটি নিয়ে এ পর্যন্ত ৮টি স্প্যান খুঁটিতে বসেছে। বৃহস্পতিবার বসছে ৯ম স্প্যান।

অন্যদিকে সার্ভিসিংয়ের কারণে কয়েকদিন বন্ধ থাকার পর আবার পাইলিং শুরু হয়েছে। ২৪ শ’ কিলোজুলের হ্যামারটি ৭ নম্বর খুঁটিতে এবং ৩৫ শ’ কিলোজুল ক্ষমতার হ্যামারটি ৬ নম্বর খুঁটিতে পাইল স্থাপন করছে। এ পর্যন্ত ২১১টি পাইল বসে গেছে। আরও ৫১টি পাইল বাকি আসে।