২৫ এপ্রিল ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

টি২০তেও শ্রীলঙ্কাকে হোয়াইটওয়াশ করল দ. আফ্রিকা

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ঘরের মাঠে ২-০তে টেস্ট হারের ঝাল প্রোটিয়ারা এভাবে মেটাবে লঙ্কানরা বোধ হয় ভাবতে পারেনি। পাঁচ ওয়ানডের পর লাসিথ মালিঙ্গার দল টি২০ সিরিজে ‘হোয়াইটওয়াশ’ ৩-০ ব্যবধানে। বৃষ্টিবিঘ্নিত তৃতীয় ও শেষ ম্যাচে ডিএল মেথডে সফরকারীরা হেরেছে ৪৫ রানে। জোহানেসবার্গে ডুয়ানে প্রিটোরিয়াস (৭৭*) ও রিজা হেনড্রিকসের (৬৬) দুরন্ত হাফসেঞ্চুরির সৌজন্যে ২ উইকেটে ১৯৮ রানের চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়ে স্বাগতিক দক্ষিণ আফ্রিকা। লঙ্কানদের ইনিংসের দ্বাদশ ওভারের প্রথম বলের পর বৃষ্টি নামলে তারা পায় ১৭ ওভারে ১৮৩ রানের নতুন লক্ষ্য। বৃষ্টি নামার আগে তাদের রান ছিল ৬ উইকেটে ১১১। বিধ্বস্ত মালিঙ্গার দল তার ধারে কাছেও যেতে পারেনি। ৮ বল বাকি থাকতে গুটিয়ে যায় ১৩৭ রানে। রঙ্গিন পোশাকে এমন লজ্জার পর ফের প্রশ্ন উঠছে, বিশ্বকাপে কোচ চন্দ্রিকা হাতুরু সিংহের চাকরি থাকবে তো!

দ্য ওয়ান্ডারার্স স্টেডিয়ামে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে দ্রুত এইডেন মার্করামকে হারায় দক্ষিণ আফ্রিকা। হেনড্রিকসের সঙ্গে ৯০ রানের জুটিতে দলকে ভাল অবস্থানে নিয়ে যান এদিন প্রমোশন পেয়ে তিন নম্বরে নামা প্রিটোরিয়াস। একটু মন্থর শুরু করা হেনড্রিকস পরে শট খেলতে শুরু করেন। ৫২ বলে ২ ছক্কা ও ৮ চারে ৬৬ রান করা এই ওপেনারকে ফিরিয়ে জুটি ভাঙেন লেগ স্পিনার জেফরি ভ্যান্ডার্সে। নিয়মিত অধিনায়ক ফ্যাপ ডুপ্লেসিসের অনুপস্থিতিতে দলকে নেতৃত্ব দেয়া জেপি ডুমিনি ক্রিজে গিয়েই বোলারদের ওপর চড়াও হন। দ্রুত জমে যায় প্রিটোরিয়াসের সঙ্গে তার জুটি। পাঁচ ওভারে তৃতীয় উইকেটে ৭৭ রানের অবিচ্ছিন্ন জুটি গড়েন তারা। এর আগে তিনটি টি২০ খেললেও ব্যাটিংয়ের সুযোগ পাননি প্রিটোরিয়াস। এই অলরাউন্ডার নিজের প্রথম ইনিংসে ঝড়ো ব্যাটিংয়ে করেন ৭৭ রান। তার ৪২ বলের টর্নেডো ইনিংসটি গড়া সাত চার ও তিন ছক্কায়। বাঁহাতি মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান ডুমিনি ১৪ বলে তিন ছক্কা ও দুই চারে করেন ৩৪ রান।

বড় রান তাড়ায় ৭ চারে ২২ বলে ৩৮ রানের ঝড়ো ইনিংসে শ্রীলঙ্কাকে উড়ন্ত সূচনা এনে দিয়েছিলেন নিরোশান দিকওয়েলা। তবে এগিয়ে আসতে পারেননি অন্য ব্যাটসম্যানরা। প্রথম ছয় ব্যাটসম্যানের মধ্যে তিনি ছাড়া দুই অঙ্কে যান কেবল এ্যাঞ্জেলো পেরেরা।