২৪ আগস্ট ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

কেমন হলো পাকিস্তান দল?

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বৃহস্পতিবার আসন্ন বিশ্বকাপের জন্য ১৫ সদস্যের চূড়ান্ত দল ঘোষণা করেছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। ঘোষিত স্কোয়াডে সবচেয়ে বড় আলোচ্য বিষয় হচ্ছে পেসার মোহাম্মদ আমিরের বাদ পড়া। গত দুই বছর ধরে ফর্মহীনতার কারণেই বাদ পড়েছেন তিনি। তবে বিশ্বকাপের আগে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজ খেলার জন্য দলের সঙ্গে থাকবেন এ ২৭ বছর বয়সী বাঁহাতি পেসার। আর সম্প্রতিই ওয়ানডে অভিষেক হওয়া ওপেনার আবিদ আলী চমক দেখানোয় তিনি দলে জায়গা করে নিয়েছেন। এছাড়া চমক দেখানো বাঁহাতি পেসার উসমান শিনওয়ারিরও জায়গা হয়নি।

গত ১৫ মাস ধরেই পাকিস্তানের ওয়ানডে নৈপুণ্য কিছুটা চিন্তায় ফেলে দিয়েছে পিসিবিকে। এ সময়ের মধ্যে নিউজিল্যান্ড, দক্ষিণ আফ্রিকা ও অস্ট্রেলিয়ার কাছে সিরিজ হেরে গেছে পাকরা। সর্বশেষ অসিদের কাছে নিজেদের মাঠ আরব আমিরাতে ৫-০ ব্যবধানে হোয়াইটওয়াশ হওয়ার কারণে চিন্তাটা আরও বেড়েছে। এছাড়া এশিয়া কাপেও বাজে নৈপুণ্য দেখিয়েছে পাকরা। তবে বিশ্বকাপের আগে বেশ কিছু ম্যাচ খেলার সুযোগ পাবে পাকিস্তান দল। মে মাসেই ইংল্যান্ডের সঙ্গে একটি টি২০ ও ৫ ওয়ানডের সিরিজ আছে পাকিস্তানের। আবার আফগানিস্তানের বিপক্ষেও আছে ওয়ানডে। এছাড়া বিশ্বকাপের প্রস্তুতি ম্যাচ আছে দু’টি এবং ইংল্যান্ড সফরে দু’টি কাউন্টি দলের বিপক্ষে ম্যাচ খেলার সুযোগ আছে। সবমিলিয়ে বিশ্বকাপে নামার আগেই ১১টি ম্যাচ খেলার সুযোগ রয়েছে তাদের। এই ম্যাচগুলো খেলে নিজেদের ভালভাবেই ফিরে আসার সুযোগ দেখছে পাকরা। সর্বশেষ ইংল্যান্ডের মাটিতে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি জিতেছিল দলটি সরফরাজ আহমেদের নেতৃত্বে। তিনিই আবার বিশ্বকাপে নেতৃত্ব দেবেন। আমির সেই আসরে খেলেছিলেন। কিন্তু এবার বিশ্বকাপে তার সুযোগ হয়নি। মূলত দীর্ঘদিন ফর্মহীনতার কারণেই তিনি বাদ পড়লেন। গত বছর জানুয়ারি থেকে এ বছর মার্চ পর্যন্ত ১৪ ওয়ানডে খেলার সুযোগ পেয়েছেন ২৭ বছর বয়সী এ বাঁহাতি পেসার। কিন্তু উইকেট পেয়েছেন মাত্র ৫টি। ১০১ ওভার বোলিং করেছেন এই ম্যাচগুলোতে। ৬০০ বল ছুঁড়েছেন এমন বোলারের মধ্যে এ সময়ে সারাবিশ্বের মধ্যে তিনিই সবচেয়ে বাজে বোলার। পুরো ক্যারিয়ারে এত বাজে সময় যায়নি তার। সে কারণে অনিয়মিত ছিলেন ওয়ানডে স্কোয়াডে। আর সে জন্যই এবার বিশ্বকাপ দল থেকে ছিটকে গেলেন তিনি।

অবশ্য ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ওয়ানডে সিরিজ খেলার জন্য দলে থাকবেন আমির। সেখানে দুর্দান্ত কিছু করতে পারলে হয়তো শেষ মুহূর্তে বিশ্বকাপ দলেও সুযোগ মিলে যেতে পারে। কারণ আগামী ২৩ মে পর্যন্ত আইসিসিকে না জানিয়েও দলে দুয়েকটি পরিবর্তন আনার সুযোগ রয়েছে। গত চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির ফাইনালে ভারতকে হারানোর মূল দায়িত্ব পালন করেছিলেন আমির। সে কারণেই হয়তো এই সুযোগটা পেলেন তিনি। এছাড়া তরুণ উদীয়মান পেসার উসমান শিনওয়ারি এবং মারকুটে ব্যাটসম্যান আসিফ আলী ছিটকে গেছেন। আর টপঅর্ডার মোহাম্মদ হাফিজকে যদিও নেয়া হয়েছে, তিনি ফিটনেস সমস্যায় ভুগছেন। সেটি কাটিয়ে উঠতে না পারলে বাদ পড়তে পারেন শেষ মুহূর্তে। তাই সুযোগ আছে পাইপলাইনে থাকা আসিফ আলীরও।

পাকিস্তান বিশ্বকাপ দল ॥ সরফরাজ আহমেদ (অধিনায়ক), ফখর জামান, ইমাম-উল-হক, আবিদ আলী, বাবর আজম, শোয়েব মালিক, মোহাম্মদ হাফিজ, শাদাব খান, ইমাদ ওয়াসিম, হাসান আলী, ফাহিম আশরাফ, শাহীন শাহ আফ্রিদি, জুনাইদ খান, মোহাম্মদ হাসনাইন ও হারিস সোহেল।