১৮ অক্টোবর ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

শ্রীলঙ্কায় বোমা হামলায় শেখ সেলিমের নাতি নিহত

শ্রীলঙ্কায় বোমা হামলায় শেখ সেলিমের নাতি নিহত

অনলাইন রিপোর্টার ॥ শ্রীলঙ্কায় বোমা হামলায় আওয়ামী লীগ নেতা শেখ ফজলুল করিম সেলিমের নাতি জায়ান চৌধুরী (৮) নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন তার জামাতা মশিউল হক চৌধুরী প্রিন্স। তাকে কলম্বোর একটি হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

রবিবার ইস্টার সানডের প্রার্থনার মধ্যে শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোতে গির্জা ও হোটেল মিলিয়ে আটটি স্থানে বোমা হামলার ঘটনা ঘটে। এতে অন্তত ২৯০ জন নিহত ও ৫০০-এর বেশি লোক আহত হয়। হতাহতদের মধ্যে বাংলাদেশ, ভারত, তুরস্ক, ব্রিটেনসহ বিভিন্ন দেশের নাগরিকেরাও রয়েছেন।

আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য সাংসদ শেখ সেলিম প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ফুপাতো ভাই। সেলিমের মেয়ে শেখ আমেনা স্বামী মশিউল হক ও দুই ছেলেকে নিয়ে শ্রীলঙ্কায় বেড়াতে যান। সেখানে তারা একটি পাচতাঁরকা হোটেলে ওঠেন।

হামলার সময় শেখ আমেনা ছোট ছেলে জোহানকে নিয়ে হোটেলটিতে তাদের কক্ষে ছিলেন। আর নিচতলার একটি রেস্তোরাঁয় সকালের নাস্তা করতে গিয়েছিলেন আমেনার স্বামী প্রিন্স ও তাদের বড় ছেলে জায়ান চৌধুরী। বোমা হামলায় প্রিন্স আহত হন এবং ছেলে জায়ান নিখোঁজ হয়। পরে জায়ানের মৃত্যু খবর আসে।

এর আগে শ্রীলঙ্কায় ভয়াবহ বোমা হামলায় শেখ সেলিমের মেয়ের পরিবার শ্রীলঙ্কায় বোমা হামলার শিকার হয়েছে বলে জানিয়েছিলেন ব্রুনাই সফররত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, ‘সেলিমের মেয়ে-জামাই ও নাতি এ সময় একটি রেস্টুরেন্টে খাচ্ছিলেন। সেখানে একটি বোমা বিস্ফোরণ ঘটে। বিস্ফোরণে মেয়ে-জামাই আহত হন এবং নাতির কোনো খোঁজ পাওয়া যায়নি।’

এ সময় প্রধানমন্ত্রী শ্রীলঙ্কায় ভয়াবহ বোমা হামলার তীব্র নিন্দা এবং এই সন্ত্রাসবাদীদের বিরুদ্ধে সোচ্চার হতে সকলের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘সন্ত্রাসীদের কোনো বর্ণ, ধর্ম ও দেশ নেই। তারা সন্ত্রাসী এবং মানুষের জীবন ধ্বংস করে দেয়। সুতরাং আমি তাদের বিরুদ্ধে সোচ্চার হতে সকলের প্রতি আহ্বান জানাই।’

শেখ হাসিনা বলেন, শ্রীলঙ্কার আটটি স্থানে সংঘটিত বোমা হামলায় বহু লোক নিহত ও আহত হয়েছে। আমি এই বর্বরোচিত ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাই।