২৫ আগস্ট ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

আবারও পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে ফিরেছে ম্যানচেস্টার সিটি

আবারও পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে ফিরেছে ম্যানচেস্টার সিটি

অনলাইন ডেস্ক ॥ ম্যাচটা ম্যানচেস্টার ডার্বি, কিন্তু সেটার দিকে অধীর আগ্রহে তাকিয়ে ছিল লিভারপুল। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের সমর্থনে টিভি সেটের সামনে বসে গিয়েছিলেন লিভারপুল সমর্থকরা। কিন্তু তাদের হতাশ হতে হয়েছে শেষ পর্যন্ত। ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডকে ২-০ গোলে হারিয়ে লিভারপুলকে হটিয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে ফিরেছে ম্যানচেস্টার সিটি।

এই জয়ের পর প্রিমিয়ার লিগের শিরোপা ভাগ্যটা এখন ম্যানচেস্টার সিটির হাতেই। ৩৫ ম্যাচে ৮৯ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে পেপ গার্দিওলার দল। সমান ম্যাচে এক পয়েন্ট কম নিয়ে দুইয়ে নেমে গেছে ইয়ুর্গেন ক্লপের লিভারপুল। ম্যাচ বাকি আর তিনটি।

ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে বুধবার রাতে সিটির দুটি গোলই হয়েছে ম্যাচের দ্বিতীয়ার্ধে। এর আগে প্রথমার্ধে আক্রমণে দাপট দেখায় অবশ্য ইউনাইটেডই। তবে পল পগবা, ফ্রেডরা স্বাগতিক সমর্থকদের উল্লাসে মাতার উপলক্ষ এনে দিতে পারেননি।

গোলশূন্য প্রথমার্ধের পর ৫৪ মিনিটে ‘ডেডলক’ ভাঙেন বার্নার্দো সিলভা। ডি-বক্সের বাইরে ডান দিকে সতীর্থের বাড়ানো বল পেয়ে ভেতরে ঢুকে একজনকে কাটিয়ে বাঁ পায়ের শটে পোস্ট ঘেঁষে জালে পাঠান পর্তুগিজ মিডফিল্ডার। ১-০ গোলে এগিয়ে যায় সিটি।

এক মিনিট পরই ব্যবধান দ্বিগুণ হতে পারত সিটির। কিন্তু ডি-বক্সের বাইরে থেকে আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড সার্জিও আগুয়েরোর নেওয়া শট লাগে বারপোস্টে।

৬৬ মিনিটে লেরয় সানের গোলে ঠিকই ব্যবধান দ্বিগুণ করে ফেলে সিটি। রাহিম স্টার্লিং নিজেদের সীমানা থেকে বল টেনে নিয়ে ডি-বক্সের সামনে বাঁ দিকে পাস দেন সানকে। একটু ভেতরে ঢুকেই বাঁ পায়ের জোরালো শট নেন জার্মান ফরোয়ার্ড। গোলরক্ষক ডেভিড ডি গিয়ার পায়ে লেগে বল আশ্রয় খুঁজে নেয় জালে।

দুই গোলের পর ম্যাচটা পুরোপুরি নিজেদের করে নেয় সিটি। শেষ পর্যন্ত আর ব্যবধান না বাড়লেও পূর্ণ তিন পয়েন্ট নিয়ে মাঠ ছাড়তে কোনো সমস্যা হয়নি ‘সিটিজেন’দের।

সুযোগ হারাল আর্সেনাল

উলভারহ্যাম্পটন ওয়ান্ডারার্সের মাঠে জিতলেই পয়েন্ট টেবিলের চারে উঠে যেত আর্সেনাল। কিন্তু জয় দূরে থাক, উল্টো ম্যাচটা ৩-১ গোলে হেরে গেছে ‘গানার’রা।

প্রতিপক্ষের মাঠে ম্যাচের প্রথমার্ধেই তিন গোলে পিছিয়ে পড়েছিল আর্সেনাল। সেখান থেকে ঘুরে দাঁড়ানো ছিল বেশ কঠিন। কঠিন কাজটা করতে পারেনি অতিথিরা। ৮০ মিনিটে একটি গোল শোধ করে পরাজয়ের ব্যবধান কমাতে পারে শুধু।

৩৫ ম্যাচে ৬৬ পয়েন্ট নিয়ে পাঁচে আছে আর্সেনাল। সমান ম্যাচে ৬৪ পয়েন্ট নিয়ে তাদের পরেই আছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। চেলসি ৬৭ পয়েন্ট নিয়ে চারে ও টটেনহাম ৭০ পয়েন্ট নিয়ে তিনে আছে। শীর্ষ চারের শেষ দুটি স্থানে থেকে আগামী মৌসুমে চ্যাম্পিয়নস লিগে খেলার জন্য লড়ছে এই চার দল।

নির্বাচিত সংবাদ