১০ মে ২০১৯

‘বিটকয়েনে’ নজর দিচ্ছে ফেসবুক

প্যাটফর্মে ক্রিপ্টোকারেন্সি ভিত্তি লেনদেন সেবা চালু করতে জোরালোভাবে কাজ করছে ফেসবুক। ওয়াল স্ট্রিট জার্নালের প্রতিবেদনে বলা হয়, লক্ষ্য পূরণের জন্য সামাজিক মাধ্যম জায়ান্ট প্রতিষ্ঠানটি ‘ডজনখানেক আর্থিক এবং অনলাইন বিক্রেতা প্রতিষ্ঠানকে’ নিয়োগ দিচ্ছে। বিটকয়েনের মতোই ডিজিটাল কয়েনের ক্রিপ্টোকারেন্সিভিত্তিক ব্যবস্থা হবে এটি। ফেসবুকের পক্ষ থেকে বলা হয়, বকচেইন প্রযুক্তির ক্ষমতাকে কাজে লাগানোর লক্ষ্যেই এগোচ্ছে তারা।

ফ্রেব্রুয়ারি মাসে হার্ভার্ডের আইন বিভাগের অধ্যাপক জনাথন জিটরেইনের সঙ্গে এক সাক্ষাতকার ফেসবুক প্রধান মার্ক জাকারবার্গ বলেন, ‘বকচেইন প্রযুক্তিকে ফেসবুকের লগইন ব্যবস্থায় যোগ করতেই আগ্রহী তিনি।’ ‘আমি ডিসেন্ট্রালাইজড বা বকচেইন যাচাইকরণ ব্যবস্থার দিকেই যাওয়ার কথা ভাবছি।’ ‘যদিও এখনও আমি এটি কাজে লাগানোর কোন উপায় পাইনি কিন্তু এটি যাচাই ব্যবস্থার কাছাকাছি আছে এবং আপনার বিভিন্ন তথ্য ও বিভিন্ন সেবার এ্যাকসেস দিচ্ছে,’ যোগ করেন জাকারবার্গ।

ফেসবুক প্রধানের মতে, তৃতীয় পক্ষকে ডেটা এ্যাকসেস দেওয়ার ক্ষেত্রে গ্রাহককে আরও বেশি ক্ষমতা দেবে বকচেইন। আগের বছরই বকচেইন বিভাগ খুলে সেখানে ইভান চেং নামের এক জ্যেষ্ঠ প্রকৌশলীকে পদোন্নতি দিয়ে প্রকৌশল পরিচালক করে ফেসবুক। কচেইন প্রযুক্তির সম্ভাবনা খতিয়ে দেখতে প্রতিষ্ঠানের মধ্যেই একটি দল বানানো হয়েছে। প্যাটফর্মে এই প্রযুক্তি সম্ভাবনাকে কাজে লাগাতে দলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন মেসেঞ্জার প্রধান ডেভিড মার্কাস।