২৩ অক্টোবর ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সরকারি ব্যবস্থাপনায় হজে যাওয়ার কোটা এখনো খালি আছে

সরকারি ব্যবস্থাপনায় হজে যাওয়ার কোটা এখনো খালি আছে

অনলাইন ডেস্ক ॥ আজ মঙ্গলবার ধর্ম মন্ত্রণালয়ের সহকারী সচিব এস এম মনিরুজ্জামান স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে বলা হয়, চলতি বছর সরকারি ব্যবস্থাপনায় হজে যাওয়ার কোটা এখনো খালি আছে। আগে আসলে আগে পাবেন-এমন ভিত্তিতে প্রাক-নিবন্ধনের কার্যক্রম চলছে।

বেসরকারি এজেন্সির মাধ্যমে প্রাক-নিবন্ধন করেছেন কিন্তু এজেন্সির কোটা পূর্ণ হওয়ায় এবার হজে যেতে পারছেন না-এমন হজে গমনেচ্ছু ব্যক্তিরা সরকারি ব্যবস্থায় হজে যাওয়ার সুযোগ পাচ্ছেন। আগে আসলে আগে পাবেন-এমন ভিত্তিতে সরকারি ব্যবস্থাপনায় হজে যাওয়া যাবে। এ জন্য আগামী ২০ মের মধ্যে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, নিকটের ইসলামী ফাউন্ডেশন কার্যালয়, ঢাকা আশকোনা হজ অফিস এবং ইউনিয়ন ডিজিটাল সেন্টারে যোগাযোগ করে প্রাক-নিবন্ধন নিবন্ধন করতে হবে।

সূত্র জানায়, চলতি বছর সরকারি ব্যবস্থাপনায় ৭ হাজার ১৯৮ জন এবং বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় ১ লাখ ২০ হাজার হজযাত্রী হজে যাওয়ার কথা রয়েছে। সরকারি ব্যবস্থাপনায় ৬ হাজার ৪২৫ জন এবং প্যাকেজ-২-তে ৪ হাজার ১৬৪ জন নিবন্ধন করেছেন। এ ছাড়া সরকারি হজযাত্রীর ৩ হাজার ৩৬৬ জনের পাসপোর্ট জমা হয়েছে। এর মধ্যে প্যাকেজ-এ-তে ১ হাজার ২২৮ জন এবং প্যাকেজ-২-এ ২ হাজার ১৪৮ জনের পাসপোর্ট জমা হয়েছে।

বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় হজযাত্রীর কোটা ১ লাখ ২০ হাজার জন। ইতোমধ্যেই বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় হজযাত্রী নিবন্ধন কার্যক্রম শেষ হয়েছে। এ পর্যন্ত নিবন্ধিত হয়েছেন ১ লাখ ১৫ হাজার ৪১০ জন। গাইড ও মোনাজ্জেমের সংখ্যা ৪ হাজার ৫৮৮ জন।