১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বিরামপুরে আম বাগানে গাঁজা চাষ, আটক ১

বিরামপুরে আম বাগানে গাঁজা চাষ, আটক ১

স্টাফ রিপোর্টার, দিনাজপুর ॥ দিনাজপুরের বিরামপুর আম বাগানে গাঁজা চাষের অভিযোগ পাওয়া গেছে। পুলিশ অভিযান চালিয়ে ওই বাগান থেকে ৮৮টি গাজার গাছ ও ২শ’ কেজি গাঁজা জব্দ করেছে। বিরামপুর উপজেলা যুবলীগের সহ-সভাপতি আনোয়ার হোসেন ওরফে টিটুর ইজারা নেওয়া জমি থেকে এসব গাছ ও গাঁজা উদ্ধার করা হয়। এই ঘটনায় পুলিশ অভিযান চালিয়ে বাগানের কেয়ার টেকার মংলু কাশেমকে (৫০)আটক করেছে পুলিশ।

আটক মংলু কাশেম নবাবগঞ্জ উপজেলার পুটিমারী ইউনিয়নের লোকা গ্রামের মৃত. হবিবর রহমানের ছেলে। সোমবার বিকেলে বিরামপুর পৌর শহরের মিরপুর এলাকা থেকে এসব গাছ ও গাঁজা উদ্ধার করা হয়। এই ঘটনায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন বিরামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মনিরুজ্জামান।

বিরামপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) সোহেল রানা জানান, বিরামপুর পৌর এলাকার মিরপুরে একটি আমবাগানে গাঁজা চাষ হচ্ছে এই গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ অভিযান চালায়। পুলিশ ওই বাগানের ৮৮টি ছোট, বড় ও মাঝারি সাইজের গাঁজার গাছ তুলে ফেলে এবং সেগুলো জব্দ করে। এসব গাছের বয়স ১৫ দিন থেকে এক বছরের মধ্যে। পর্যায়ক্রমে এসব গাছ রোপণ করা হয়েছে। এ সময় বাগানের কেয়ার টেকার মংলুকে আটক করা হয়। আটক মংলু পুলিশকে জানিয়েছে, গত ৬ মাস ধরে সে বাগানে কর্মরত আছে। এই বাগানের মালিক আনোয়ার হোসেন ওরফে টিটু। পুলিশ জানিয়েছে, আনোয়ার হোসেন টিটু উপজেলা যুবলীগের সহ-সভাপতি ও শহরের টিটু মেটালের সত্বাধিকারী। তিনি ছাত্রলীগের সভাপতি আব্দুর রাজ্জাকের বাবা।

বিরামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মনিরুজ্জামান জানান, বাগানটি আফাজ উদ্দিন নামে এক ব্যক্তির। তবে দীর্ঘদিন ধরে আনোয়ার হোসেন ওরফে টিটু বাগানটি ইজারা নিয়ে চাষাবাদ করে আসছেন। বাগান থেকে ৮৮টি ছোট, বড় ও মাঝারি সাইজের গাঁজার গাছ জব্দ করা হয়েছে ও ২শ’ কেজি গাঁজা উদ্ধার করা হয়েছে।

এ ঘটনায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে বলে তিনি জানান। এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত সবাইকে আইনের আওতায় নিয়ে আসা হবে বলে তিনি জানান।