২১ মে ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ইনজুরিতে সরে দাঁড়ালেন সেরেনা-ওজনিয়াকি

  • ইতালিয়ান ওপেন

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ দীর্ঘদিন পর কোর্টে নেমেছিলেন সেরেনা উইলিয়ামস। জয় দিয়েই ইতালিয়ান ওপেন শুরু করেছিলেন তিনি। কিন্তু দুর্ভাগ্য তার। বেশিদূর এগোতে পারেননি আমেরিকান টেনিসের এই জীবন্ত কিংবদন্তি। হাঁটুর ইনজুরির কারণে রোম ওপেনের দ্বিতীয়পর্ব থেকেই সরে দাঁড়ালেন সেরেনা উইলিয়ামস। তাতেই কপাল খুলেছে তার বড় বোন ভেনাস উইলিয়ামসের। খুব সহজেই যে টুর্নামেন্টের তৃতীয় রাউন্ডের টিকেট কাটলেন তিনি।

সেরেনার আগে মঙ্গলবার ইতালিয়ান ওপেন থেকে নাম প্রত্যাহার করে নিয়েছেন ক্যারোলিন ওজনিয়াকিও। প্রথম রাউন্ডের ম্যাচে আমেরিকান তারকা ড্যানিয়েল কোলিন্সের মুখোমুখি হয়েছিলেন ওজনিয়াকি। কিন্তু প্রথম সেটে ৭-৬ (৭/৫) গেমে হেরে যান ডেনমার্কের এই তারকা খেলোয়াড়। এরপর পায়ের ইনজুরির কারণে দ্বিতীয় সেটে আর খেলতে নামেননি তিনি। যে কারণে টানা দুই টুর্নামেন্ট থেকে রিটায়ার্ড নিতে বাধ্য হন ওজনিয়াকি। এর আগে মাদ্রিদ ওপেন থেকেও সরে দাঁড়িয়েছিলেন বিশ্ব টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়ের সাবেক এক নম্বর খেলোয়াড়। সেবার তার বাধা ছিল পিঠের ইনজুরি।

তবে এবার সেরেনা উইলিয়ামসের দিকে আলাদা করেই দৃষ্টি রেখেছিলেন টেনিসপ্রেমীরা। কেননা গত মাসে মিয়ামি ওপেনের পর রোম মাস্টার্সেই যে প্রথম কোর্টে নামেন তিনি। এ মাসের শেষের সপ্তাহেই শুরু হবে ফ্রেঞ্চ ওপেন। মৌসুমের দ্বিতীয় মেজর টুর্নামেন্ট শুরুর আগে আমেরিকান তারকা সেরেনার জন্য ইতালিয়ান ওপেন বেশ গুরুত্বপূর্ণও ছিল। যে কারণে এই টুর্নামেন্টে নিজের সেরাটা ঢেলে দিবেন বলেই মনে করেছিলেন সেরেনার ভক্ত-অনুরাগীরা। কিন্তু শেষ পর্যন্ত থেমে যেতে হয়েছে ২৩ গ্র্যান্ডস্লামের মালিককে। তবে ফ্রেঞ্চ ওপেনে খেলার ব্যাপারে দারুণ আশাবাদী সেরেনা উইলিয়ামস। এ প্রসঙ্গে নিজের অনুভূতি প্রকাশ করতে গিয়ে তিনি বলেন, আপনাদের সবাইকে ফ্রেঞ্চ ওপেনে দেখার জন্য মুখিয়ে রয়েছি। এছাড়া আগামী বছর রোমেও আপনাদের সঙ্গে দেখা হবে বলে আশাকরি।

বয়সে সাঁইত্রিশকেও ছাড়িয়ে গেছেন সেরেনা উইলিয়ামস। এই সময়ে জিতেছেন ২৩টি গ্র্যান্ডস্লাম। কিন্তু ২০১৭ সালের পর আর কোন মেজর শিরোপা যোগ করতে পারেননি তার নামের পাশে। এ বছরের শুরুতে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের কোয়ার্টার ফাইনালে উঠেছিলেন তিনি। কিন্তু এর পরের সময়টা বেশ হতাশায় পার করেছেন সেরেনা। ইতালিয়ান ওপেনসহ মোট তিনটি টুর্নামেন্ট শেষ করতে ব্যর্থ হয়েছেন টেনিসের এই কৃষ্ণকলি। ভাইরাসজনিত অসুস্থতার কারণে ইন্ডিয়ান ওয়েলসে অংশগ্রহণ করতে পারেননি। বাঁ পায়ের ইনজুরির কারণে মিয়ামি ওপেনের পর এবার ইতালিয়ান ওপেন থেকেও ছিটকে গেলেন সেরেনা। এর ফলে ফ্রেঞ্চ ওপেনে কতটুকু প্রস্তুতি নিয়ে অংশ নিতে পারবেন তিনি? এই প্রশ্নটাই এখন ঘুরপাক খাচ্ছে টেনিসবোদ্ধাদের মনে। অথচ ইতিহাস থেকে আর মাত্র একটি গ্র্যান্ডস্লামের দূরত্বে অবস্থান করছেন সেরেনা উইলিয়ামস।

একটি গ্র্যান্ডস্লাম জিতলেই সর্বোচ্চ গ্র্যান্ডস্লাম জয়ী মার্গারেট কোর্টকে স্পর্শ করবেন সেরেনা। যিনি সুদীর্ঘ ক্যারিয়ারে সর্বমোট ২৪টি গ্র্যান্ডস্লাম জিতে এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ মেজর শিরোপা জয়ের তালিকায় শীর্ষে অবস্থান করছেন। এদিকে ওজনিয়াকির বিপক্ষে প্রথম সেট জেতা ড্যানিয়েল কোলিন্স দ্বিতীয় রাউন্ডে মুখোমুখি হবেন গারবিন মুগুরুজার। দুইবারের গ্র্যান্ডস্লাম জয়ী মুগুরুজা। সাম্প্রতিক সময়ে টেনিস কোর্টে দাপট দেখাচ্ছেন। ইতালিয়ান ওপেনের প্রথম রাউন্ডের ম্যাচে স্পেনের এই টেনিস তারকা ৬-৩ এবং ৬-৪ গেমে উড়িয়ে দিয়েছেন ঝেং সাইসাইকে। দ্বিতীয় রাউন্ডের ম্যাচে ড্যানিয়েল কোলিন্সের বিপক্ষেও জয়ের ব্যাপারে খুব আত্মবিশ্বাসী।

ইতালিয়ান ওপেনের প্রথম রাউন্ড থেকে বিদায় নেয়া ওজনিয়াকি তার সুদীর্ঘ ক্যারিয়ারে একটি মাত্র গ্র্যান্ডস্লাম জিতেছেন। গত বছর অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে স্বপ্নের শিরোপায় চুমো এঁকেছিলেন তিনি। তার সামনেও এখন কঠিন চ্যালেঞ্জ। কেননা ড্যানিশ এই টেনিস তারকার ফ্রেঞ্চ ওপেনে এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ ফলাফল কোয়ার্টার ফাইনাল।