২৭ জুন ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

দুই মন্ত্রীর দায়িত্ব কমেছে, এক প্রতিমন্ত্রীর দফতর বদল

  • মন্ত্রিসভা পুনর্বিন্যাস

স্টাফ রিপোর্টার ॥ দুই মন্ত্রীর দায়িত্ব কমিয়ে এক প্রতিমন্ত্রীর দফতর বদলে ক্ষমতা গ্রহণের পাঁচ মাসের মাথায় মন্ত্রিসভার দায়িত্ব পুনর্বিন্যাস করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। রবিবার এ সংক্রান্ত পরিপত্র জারি করেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।

মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে জারি করা পরিপত্রে বলা হয়, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী ডাঃ মুরাদ হাসানকে সরিয়ে তথ্য মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী করা হয়েছে। এছাড়া ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বপ্রাপ্ত মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বারকে একই মন্ত্রণালয়ের অধীন ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের মন্ত্রী করা হয়েছে। এ মন্ত্রণালয়ের তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলককে। স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের অধীন স্থানীয় সরকার বিভাগের মন্ত্রী করা হয়েছে তাজুল ইসলামকে। একই মন্ত্রণালয়ের পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় বিভাগের প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব দেয়া হয়েছে স্বপন ভট্টাচার্যকে।

এর আগে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের পুরোটার দায়িত্ব ছিল তাজুল ইসলামের হাতে। এখন তিনি শুধু স্থানীয় সরকার বিভাগের মন্ত্রী হিসিবে দায়িত্ব পালন করবেন। একইভাবে ডাক ও টেলিযোগাযোগ তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের দুই বিভাগকে পৃথক করা হয়েছে। যার একটিতে মোস্তাফা জব্বার অন্যটিতে দায়িত্ব পালন করবেন জুনাইদ আহমেদ পলক। এদের দুজনই বিগত সরকারের মন্ত্রিসভায় ছিলেন।

একই মন্ত্রণালয়ের দুই বিভাগে দুজন সচিব থাকেন। কোন কোন ক্ষেত্রে একজন মন্ত্রী এবং একজন প্রতিমন্ত্রী দায়িত্ব পালন করেন। তবে পরিপত্রে মন্ত্রণালয়ের দুই বিভাগের দায়িত্ব দুজনকে দেয়া হয়েছে। এর আগেও কোন কোন মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পালনের ক্ষেত্রে এমন বিভাজন করা ছিল। বিষয়টি একেবারে নতুন নয় বলে জানা গেছে।

তথ্য মন্ত্রণালয়ে আগে থেকে দায়িত্ব পালন করছেন ড. হাছান মাহমুদ। তিনি এর আগেও মন্ত্রী হিসেবে বন ও পরিবেশ মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব সামলেছেন। তিনি এখন তথ্য মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পালনে প্রতিমন্ত্রী হিসেবে ডাঃ মুরাদ হাসানকে পাশে পাচ্ছেন।

বর্তমান সরকার দায়িত্ব নেয়ার পর এটিই প্রথম পরিবর্তনের ঘটনা। বেশ কিছু দিন ধরে কোন কোন মন্ত্রণালয়ে মতপার্থক্যের ঘটনা ঘটছিল বলে জানা যায়। এতে মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব পালনে সমস্যা হচ্ছিল বলে জানা গেছে।

প্রসঙ্গত গত ৬ জানুয়ারি নতুন মন্ত্রিসভার সদস্যদের নাম ঘোষণা করেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম। সে সময় গঠন করা হয় ৪৬ সদস্যের মন্ত্রিসভা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অধীনে ছয় মন্ত্রণালয় রাখা হয়। ক্ষমতার বদলে মন্ত্রিসভার সদস্য সংখ্যার কোন পরিবর্তন হচ্ছে না।

৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা লাভ করে আওয়ামী লীগ। নির্বাচনে ২৯৮ আসনের মধ্যে ২৫৭টিতে জয় পেয়েছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ। জোটগতভাবে তারা পেয়েছে ২৮৮ আসন। অন্যদিকে তাদের প্রধান প্রতিপক্ষ বিএনপি ও তাদের জোট পেয়েছে মাত্র সাতটি আসন। এটি আওয়ামী লীগের টানা তৃতীয় মেয়াদে সরকার গঠন।