২৬ জুন ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বিশ্বকাপে ভাল করতে মুখিয়ে আছেন আমলা

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ হাসিম আমলা দক্ষিণ আফ্রিকা তো বটেই, আধুনিক ক্রিকেটেরও অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে ফর্মটা ভাল যাচ্ছে না। কিছুদিন বিশ্রাম শেষে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে বিশ্বকাপের প্রস্তুতি ম্যাচে ৬৫ রানের ইনিংস খেলে স্বরূপে ফেরার আভাস দেয়া এ তারকা ভাল করতে মুখিয়ে আছেন। তিনি বলেছেন, খেলা থেকে কিছুদিন দূরে থাকা তাকে ‘যে কোন সময়ের চেয়ে বেশি ক্ষুধার্ত’ করেছে। আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারে ১৮ হাজারের বেশি রানের মালিক আমলা একসময় ছিলেন প্রোটিয়া লাইনআপের মূল স্তম্ভ। কিন্তু বাজে ফর্মের কারণে দলে নিজের স্থান হারান। চলতি বছরের শুরুতে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে তিনি ওয়ানডে সিরিজ মিস করলে সহ-অধিনায়ক কুইন্টন ডি ককের সঙ্গে ওপেনিং জুটি গড়েন এইডেন মার্করাম।

এরপর আইপিএলেও অনুপস্থিত আমলা বলেন, দীর্ঘ বিরতি তাকে খেলাটিতে ধারালো হতে সাহায্য করেছে। তাকে উদ্ধৃত করে আইসিসি জানায়, এমন অনেক কিছুই ঘটে যা আপনি প্রত্যাশা করেন না। সম্প্রতি বিষয়গুলো এমনভাবে ঘটেছে যা আমি অনুমান করিনি। তবে আমি দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি- যা কিছু ঘটে ভালর জন্য ঘটে। বেশ কিছুদিন আমি দূরে ছিলাম এবং এখন সত্যিই আমি ভাল কিছু করার জন্য প্রস্তুত। আগের চেয়ে এখন আমি অনেক বেশি ক্ষুধার্ত- তাতে কোন সন্দেহ নেই। এ জার্সি আমাকে গর্বিত করেছে। কিন্তু কিছুদিন দূরে থাকা আমাকে আরও শক্তিশালী করে ফিরিয়েছে।’ তিনি যোগ করেন, ‘এটা আমার তৃতীয় বিশ্বকপ। সুতরাং এ বিষয়ে আমি পুরোপুরি অবগত। ইংল্যান্ডের মাটিতে আমার শক্তিশালী রেকর্ড রয়েছে এবং এখানে আসাটা আমি সবসময় উপভোগ করি।’

দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে এর আগে দুই বিশ্বকাপে অংশ রিয়েছেন ৩৬ বছর বয়সী আমলা। তবে দুবারই কোয়ার্টার ফাইনালে নিউজিল্যান্ডের কাছে হেরে বিদায় নিতে হয়েছে তাদের। স্বাগতিক ইংল্যান্ডের বিপক্ষে উদ্বোধনী ম্যাচ দিয়ে বিশ্বকাপ মিশন শুরু করবে দক্ষিণ আফ্রিকা এবং আমলার বিশ্বাস আন্ডারডগ খেতাব তার দলের জন্য ভাল হবে, ‘সম্প্রতি আমরা ইংল্যান্ডের মাটিতে খেলেছি এবং তাদের বিপক্ষে আমাদের কিছু সাফল্য আছে। আমি তাদের বিপক্ষে ভালও করেছি।’ তিনি আরও বলেন, ‘এ বছর আপনারা বড় নামগুলো দেখছেন না, যে কারণে আমাদের ওপর ফোকাসটা নেই। তবে এর মধ্যে ভাল কিছুও আছে। আমাদের জয় সম্পর্কে অতীতের তুলনায় এবার খুব কমই আলোচনা হচ্ছে। আমি মনে করি আমাদের পাফর্মেন্সে তার একটা ভূমিকা ছিল। দিন শেষে আমরা সেরাটাই উজাড় করে দিই এবং জয়ের জন্য খেলি। মূল কথা হচ্ছে এবারের বিশ্বকাপে আমাদের নিয়ে খুব বেশি আলোচনা নেই, মানে প্রত্যাশা কম। তবে দল হিসেবে আমরা ভাল করতে পারি।’