২৩ জুলাই ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

জামালপুরে র‍্যাবের অভিযানে গ্রেফতার ১

জামালপুরে র‍্যাবের অভিযানে  গ্রেফতার ১

নিজস্ব সংবাদদাতা, জামালপুর ॥ জামালপুর সদরের রানাগাছা ইউনিয়নে নবী সালাম (৫৮) নামের একজন সিএনজি অটোরিকশাচালককে ছুরিকাঘাত করে হত্যা মামলার একমাত্র আসামি মো: রজন (১৫) নামের এক বখাটে কিশোর র‍্যাবের অভিযানে গ্রেফতার হয়েছে। রবিবার সকালে একই ইউনিয়নের দড়িহামিদপুর গ্রাম থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। রজন দড়িহামিদপুর পোড়াবাড়ী গ্রামের মো: সেলিম মিয়ার ছেলে।

গতরাতে এ হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটে। মামলা সূত্রে জানা গেছে, গত শুক্রবার রাত ৮টার দিকে জামালপুর-ময়মনসিংহ সড়কের দড়িহামিদপুর এলাকায় সিএনজি অটোরিকশাচালক নবী সালাম একজন ছিনতাইকারীর ছুরিকাঘাতে খুন হন। বখাটে কিশোর রজন যাত্রীবেশে একাই সদরের নান্দিনা বাজার থেকে নবী সালামের সিএনজি অটোরিকশাটি ভাড়ায় রিজার্ভ করে রওনা হয়। কিছুদূর যাওয়ার পর জামালপুর-ময়মনসিংহ সড়কের দড়িহামিদপুর এলাকায় রজন অটোরিকশাটি থামিয়ে চালক নবী সালামকে বুকের ওপরের দিকে ধারালো ছুরি দিয়ে আঘাত করলে তিনি নিহত হন।

ঘটনার পর থেকেই রজন গা পালিয়েছিল। এ ঘটনায় নিহতের ছেলে জুয়েল রানা বাদী হয়ে রজনকে একমাত্র আসামি করে শনিবার জামালপুর সদর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলা দায়েরের পর র‍্যাব-১৪ জামালপুর ক্যাম্পের ভারপ্রাপ্ত কোম্পানি কমান্ডার সহকারী পুলিশ সুপার জোনাঈদ আফ্রাদের নেতৃত্বে র‍্যাবের একটি দল অভিযান চালিয়ে রবিবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে ঘটনাস্থল দড়িহামিদপুর এলাকায় একটি মাছের খামারের সেচপাম্প ঘর থেকে রজনকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়।

এ সময় তার কাছ থেকে নিহত নবী সালামের মোবাইল ফোন সেটটি জব্দ করা হয়। পরে তাকে জামালপুর সদর থানায় সোপর্দ করা হয়েছে। র‍্যাবের জামালপুর ক্যাম্পের ভারপ্রাপ্ত কোম্পানি কমান্ডার জোনাঈদ আফ্রাদ এক প্রেসব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের জানান, সিএনজি অটোরিকশাচালক হত্যাকান্ডের ঘটনাটি খুবই চাঞ্চল্যকর ঘটনা বিবেচনা করে দ্রুত সময়ের মধ্যে আসামি রজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে রজন এ হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে। তাকে সদর থানায় সোপর্দ করা হয়েছে।