২২ জুলাই ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সরকারী চাল ফের সরকারী গুদামে

নিজস্ব সংবাদদাতা, শাহজাদপুর, সিরাজগঞ্জ, ১৯ জুন ॥ শাহজাদপুর সরকারী খাদ্যগুদামে ন্যায্য মূল্যে স্থানীয় কৃষকদের কাছ থেকে ধান ক্রয়ের পর মিল মালিকদের নিকট হতে চাল সংগ্রহ অভিযানে অনিয়ম ও দুর্নীতিতে জড়িয়ে পড়েছে খাদ্য বিভাগের লোকজন ও মিল মালিকরা। প্রকৃত কৃষকদের আড়াল করে স্থানীয় কিছু অসাধু ব্যবসায়ী ও দালাল সিন্ডিকেট খাদ্য গুদামের কর্মকর্তাদের যোগসাজশে গুদামে নিম্নমানের চাল সরবরাহ করছে। এতে উপজেলার কৃষকরা সরকারী গুদামে চাল বিক্রি থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। পাশাপাশি সরকারী নীতিমালা উপেক্ষা করে দুর্নীতি ও অনিয়মের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর দেয়া হতদরিদ্রদের ভিজিএফ/ভিজিডির চাল দুস্থদের না দিয়ে কালোবাজারিদের কাছে বিক্রি করছে প্রভাবশালী একটি মহল। সেই দুস্থদের চাল তাদের কাছে না পৌঁছে কালোবাজারিদের হাত দিয়ে চলে যাচ্ছে উপজেলার নরিনা ইউনিয়নের প্রভাবশালী চাতাল মালিক হাফিজের এম. এইস অটো রাইস মিলে। সেই চাল রাইস মিল থেকে ছেঁটে পরিষ্কার করে আবারও পৌঁছে যাচ্ছে শাহজাদপুর উপজেলা সরকারী খাদ্যগুদামে। এর ফলে স্থানীয় প্রকৃত কৃষকদের মাঝে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, গত সোমবার বিকেলে নরিনায় হাফিজের রাইস মিলের পার্শ্ববর্তী রাস্তা দিয়ে টলিতে ৩০ কেজি ওজনের প্রায় ১৫০ বস্তা প্রধানমন্ত্রীর দেয়া দুস্থদের মাঝে বিতরণের চাল হাফিজের রাইস মিলের ভিতরে সরাসরি ঢুকে পড়ে। উপস্থিত স্থানীয় সাংবাদিকরা গাড়ির চালককে চালের ব্যাপারে জিজ্ঞাসা করলে চালক জানান, এগুলো নরিনা ইউনিয়ন পরিষদের চাল হাফিজের মালিকাধীন এম. এইচ. অটো রাইস মিলে দেয়ার জন্য নিয়ে এসেছি। এর কিছুক্ষণ পরেই আরও একটি চালের বস্তা ভর্তি টলি সাংবাদিকদের নজরে আসে।