২৩ জুলাই ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ধনীদের সুবিধা দিতেই এবারের বাজেট ॥ খসরু

স্টাফ রিপোর্টার ॥ ধনী চক্রের সুবিধা দিতেই সরকার বাজেট প্রণয়ন করেছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী। বুধবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির সভাপতি হাবিব-উন-নবী খান সোহেলের মুক্তির দাবিতে জিয়া আদর্শ একাডেমি আয়োজিত এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ অভিযোগ করেন। এদিকে অনুমতি না পাওয়ায় ‘আন্তর্জাতিক নির্যাতনবিরোধী দিবস-২০১৯’ উপলক্ষে নয়াপল্টন এলাকায় পূর্ব নির্ধারিত র‌্যালি করতে পারেনি বিএনপি।

আমীর খসরু বলেন, সরকার রাজনৈতিক উদ্দেশে বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়াকে কারাগারে আটকে রেখেছে। তাঁকে জামিন ও সুচিকিৎসা দেয়া হচ্ছে না। তিনি বলেন, খালেদা জিয়ার মুক্তি ছাড়া গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারের আন্দোলন সফল হবে না। তাই বিএনপির সর্বস্তরের নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ হয়ে খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্য আন্দোলনে শরিক হতে হবে।

আমীর খসরু বলেন, গরিবের টাকা, কর্মজীবীদের টাকা, এবং যারা কষ্ট করে তাদের টাকা লুটপাট করে বড় লোকদের মধ্যে বিতরণ করার একটা প্রক্রিয়া দেশে শুরু হয়েছে। এবারের বাজেটে প্রকৃতপক্ষে গরিবের টাকা ও সাধারণ মানুষের টাকা নিয়ে বড় লোকদের মধ্যে বিতরণ করছে। এই বড় লোক মানে দলীয় বড় লোক হতে হবে, অন্য বড় লোক হলে চলবে না। এ ছাড়া ব্যবসায়ী মানে দলীয় ব্যবসায়ী হতে হবে, এর বাইরে কারও যোগ নেই।

বিদ্যুত ও গ্যাসের মূল্য বৃদ্ধি, ব্যাংকে তারল্য সঙ্কট, মেগা প্রকল্পের নামে কোটি কোটি টাকা অর্থ লুটপাট করা হয়েছে। এই লুটপাটের অংশ রাজনীতিবিদ, ব্যবসায়ী, আমলা এবং যারা বর্তমান সরকারকে নির্বাচিত হতে সহযোগিতা করেছে তারা সবাই জড়িত।

খসরু বলেন, এবারের বাজেটে ভ্যাটের যে সম্প্রসারণ করা হয়েছে তা এক অবাক কারবার। সাধারণ গরিব মানুষ, মধ্যবিত্ত ও নিম্ন মধ্যবিত্ত মানুষ যেখানে তাদের টাকাগুলো খরচ করে সেখানে প্রত্যেকটি জিনিসের ওপর ভ্যাট বসিয়ে দিয়েছে। আমার মনে হয়, সরকার ভ্যাটের আইন-কানুনও মানে না।