১৬ জুলাই ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

আফ্রিকার বাইরে সবচেয়ে প্রাচীন আধুনিক মানবগোষ্ঠীর সন্ধান

গবেষকরা আফ্রিকার বাইরে আমাদের প্রজন্মের (আধুনিক মানুষ) সবচেয়ে প্রাচীন মানবগোষ্ঠীর উদাহরণ দেখতে পেয়েছেন। তারা গ্রিসে মাটি খুঁড়ে ২ লাখ ১০ হাজার বছর আগের একটি মানব করোটির সন্ধান পেয়েছেন। এটি সে সময়ের সাক্ষ্য বহন করে যখন ইউরোপ ছিল নিয়ানডার্থালদের দখলে। খবর গার্ডিয়ান অনলাইনের।

ওই সময় মানুষ আফ্রিকা থেকে ইউরোপে অভিবাসী হওয়ার প্রমাণ পাওয়া যাচ্ছে এ স্পর্শকাতর আবিষ্কার থেকে। কিন্তু আজকের মানুষের ডিএনএতে সে ধরনের কোন চিহ্ন দেখা যায় না। সমীক্ষাটি সাময়িকী ন্যাচারে প্রকাশিত হয়েছে। গবেষকরা ১৯৭০ সালের দশকে গ্রিসে এ্যাপিডিমা কেইভে মাটি খুঁড়ে দুটি গুরুত্বপূর্ণ জীবাশ্মের সন্ধান পেয়েছেন। একটি জীবাশ্ম বিকৃত রূপ নিয়েছে এবং অন্যটি অসম্পূর্ণ। তারপরও এগুলো কত বছর আগের তা স্পষ্ট হয়ে ওঠে টমোগ্রাফি স্ক্যানিংয়ে। অধিকতর সম্পূর্ণ করোটিটি নিয়ানডার্থাল মানুষের বলে মনে হয়। কিন্তু অন্যটি আধুনিক মানুষের খুলির স্পষ্ট বৈশিষ্ট্য তুলে ধরে।

সমীক্ষার সহ লেখক, লন্ডনের ন্যাচারাল হিস্টরি মিউজিয়ামের অধ্যাপক গ্রিস স্ট্রিংগার বলেন, এখন আমাদের সারকথা হচ্ছে যে, ২ লাখ ১০ হাজার বছর আগে গ্রিসে প্রাচীন আধুনিক মানবগোষ্ঠী ছিল। সম্ভবত লেভান্টে বসবাসরত জনগোষ্ঠীর মতো কোন গোষ্ঠীর সঙ্গে তাদের সম্পৃক্ততা ছিল। কিন্তু পরবর্তীতে তারা প্রায় ১ লাখ ৭০ হাজার বছর আগের নিয়ানডার্থাল যুগের বলে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। আফ্রিকার বাইরে বসবাসরত আজকের মানুষ যে পূর্বপুরুষদের সাক্ষ্য বহন করেন তারা ৬০ হাজার বছর আগে এ মহাদেশ থেকে অভিবাসন গ্রহণ করেছেন। এ আধুনিক মানবগোষ্ঠী সমগ্র ইউরেশিয়ায় ছড়িয়ে পড়ে। তারা নিয়ানডার্থাল ও ডেনিফেবানদের মতো অন্য প্রজন্মের মানবগোষ্ঠীগুলোকে পরাজিত করে তাদের স্থলাভিষিক্ত হয়। কিন্তু আফ্রিকা থেকে আধুনিক মানবগোষ্ঠীর (হোমো স্যাপিয়ানস) সেটিই প্রথম অভিবাসন নয়।