২৬ আগস্ট ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বলিউডের ভিলেনদের ছেলেদের পেশা জেনে নিন

বলিউডের ভিলেনদের ছেলেদের পেশা জেনে নিন

অনলাইন ডেস্ক ॥ ৭০ থেকে ৮০-এর দশকে খলনায়কের চরিত্রে বলিউড মাতিয়েছেন আমজাদ খান, ড্যানি, ম্যাক মোহনের মতো বিখ্যাত অভিনেতারা। তাঁদের সম্পর্কে আমরা যতটা জানি, লাইমলাইটে না আসার কারণে তাঁদের ছেলেরা আমাদের অগোচরেই রয়ে গিয়েছেন। সেই বলিউড ভিলেনদের ছেলেদের সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক।

অ্যাডাম বেদী: বলিউড অভিনেতা কবীর বেদী এবং ব্রিটিশ বংশোদ্ভূত ফ্যাশন ডিজাইনারের ছেলে অ্যাডাম। ১৯৮১-তে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে জন্ম। বলিউডে তিনি অভিনয় করেছেন ‘লাইফলাইন’, ‘চরস: এ জয়েন্ট এফর্ট’ এবং ‘হ্যালো? কৌন হ্যায়’ ছবিতে। তিনি এক জন আন্তর্জাতিক মানের মডেল।

ধ্রুব তাহিল: অভিনেতা দিলীপ তাহিলের ছেলে। ধ্রুব নিজেও এক জন অভিনেতা। মডেলিংও করেন। থাকেন লন্ডনে।

বিক্রান্ত মাকিজ্যানি: শোলে ছবির ‘সাম্বা-কে মনে আছে? সেই ম্যাক মোহনের ছেলে বিক্রান্ত। ‘দ্য লাস্ট মার্বেল’ ছবিতে শেষ দেখা গিয়েছে তাঁকে।

শাদাব খান: অভিনেতা আমজাদ খানের ছেলে। শাদাব নিজেও এক জন অভিনেতা এবং চলচ্চিত্র পরিচালক। বাবার মতো নেগেটিভ চরিত্রে অভিনয় করেছেন। ‘রাজা কি আয়েগি বারাত’ ছবিতে অভিনয়ের মাধ্যমে বলিউডে আত্মপ্রকাশ করেন।

রিমজিং ডেনজংপা: বলিউড ভিলেন ড্যানি ডেনজংপার ছেলে রিনজিং। ১৯৯০-তে গ্যাংটকে জন্ম। লন্ডনের আমেরিকান ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি থেকে স্নাতক করেন। মার্শাল আর্টও শিখেছেন। লাইমলাইটে আসেন জয়তী দাসের ‘স্কোয়াড’ ছবিতে অভিনয়ের মাধ্যমে।

সিদ্ধান্ত কপূর: শক্তি কপূরের ছেলে সিদ্ধান্ত। কেরিয়ার শুরু করেন ডিস্ক জকি হিসেবে। সহকারী পরিচালক হিসেবে বলিউডে পা রাখেন। কাজ করেছেন ‘ভুলভুলাইয়া’, ‘ভাগম ভাগ’, ‘চুপ চুপকে’ ও ‘ঢোল’ ছবিতে। অভিনয় করেছেন ‘শুটআউট অ্যাট ওয়াডালা’ ছবিতেও।

সঞ্জয় গ্রোভার: ১৫ বছর লস অ্যাঞ্জেলসে কাটানোর পর ফিল্মমেকার হিসেবে কাজ করার জন্য মুম্বাইয়ে ফিরে আসেন। আমেরিকান স্কুল অব বম্বেতে পড়াশোনা করেছেন। তিনি বলিউড অভিনেতা গুলশন গ্রোভারের ছেলে। মেট্রো গোল্ডউইন স্টুডিও (এমজিএম)-তে স্পেশাল প্রজেক্ট ডিরেক্টর হিসেবে কাজ করেছেন।

আলি মুরাদ: বলিউডের অন্যতম ভিলেন রাজা মুরাদের ছেলে আলি। থিয়েটার নিয়ে লন্ডনে পড়াশোনা করেছেন তিনি।

সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা