২৪ আগস্ট ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

নারায়ণগঞ্জে চার বছরের শিশু হত্যার দায়ে একমাত্র আসামীর মৃত্যুদন্ড

নারায়ণগঞ্জে চার বছরের শিশু হত্যার দায়ে  একমাত্র আসামীর মৃত্যুদন্ড

স্টাফ রিপোর্টার, নারায়ণগঞ্জ ॥ নারায়ণগঞ্জ নগরীর জল্লারপাড় এলাকার চার বছরের শিশু আলিফ হত্যা মামলার রায়ে একমাত্র আসামী অহিদুল ইসলাম অহিদকে মৃত্যুদন্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। সোমবার দুপুরে জেলা ও দায়রা জজ মোঃ আনিসুর রহমান আসামীর উপস্থিতিতে এ আদেশ দেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নারায়ণগঞ্জ জেলা ও দায়রা জজ আদালতের রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবি ওয়াজেদ আলী খোকন। তিনি জানান, এ সময় আদালতে নিহত আলিফের পরিবারের স্বজনরাও উপস্থিত ছিলেন। মৃত্যুদন্ডপ্রাপ্ত অহিদুল ইসলাম নোয়াখালি জেলার চরজব্বার থানার চরহাসান গ্রামের মাকসুদের ছেলে।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবি এ্যাডভোকেট ওয়াজেদ আলী খোকন জানান, জল্লারপাড় এলাকার বাসিন্দা সৌদি প্রবাসী আলমগীর হোসেনের ছোট ছেলে আলিফ গত বছরের ১৬ আগস্ট বেলা এগারোটার দিকে নিজ বাড়ির সামনে খেলা করছিল। এসময় প্রতিবেশী নান্নু মিয়ার বাড়ির ভাড়াটে অহিদুল ইসলাম চকলেটের প্রলোভন দেখিয়ে শিশু আলিফকে ডেকে নিয়ে যায়। এরপর থেকে আলিফ নিখোঁজ থাকে। এসময় আসামী অহিদুল ইসলাম মুক্তিপণ হিসেবে নিহতের পরিবারের কাছে ২ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করেন। পরিবার মুক্তিপণ দিতে স্বীকার করলে তাকে ফেরত দেয়নি। পরে স্বজনরা বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজির পর পুলিশ অহিদুলের বাসার ভেতরে কংক্রিটের স্তুপের নিচ থেকে পলিথিনে মোড়ানো ও বস্তাবন্দি অবস্থায় উদ্ধার করে আলিফের লাশ।

এ ঘটনার পরদিন সকালে নিহত আলিফের বাবা আলমগীর হোসেন সদর মডেল থানায় বাদি হয়ে হত্যা মামলা দায়ের করলে পুলিশ আসামী অহিদুলকে গ্রেফতার করে। পরে সে আলিফ হত্যাকান্ডের দোষ স্বীকার করে আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিলে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা তাকে একমাত্র আসামী করে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে। পরে চলতি বছরের ২৬ ফেব্রুয়ারী আদালত এ মামলার অভিযোগ গঠন করে। মামলায় ১৬ জন স্বাক্ষীর মধ্যে ১৪ জনের স্বাক্ষ্য গ্রহণ শেষে জেলা ও দায়রা জজ এ রায় প্রদান করেন।

নিহত আলিফের মা সালমা বেগম আদালতের রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করে দ্রুত কার্যকরের দাবি জানিয়েছেন ।

এই মাত্রা পাওয়া