২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ধামইরহাট হাসপাতালে অবেহলায় যুবলীগ নেতার মৃত্যু ॥ মানববন্ধন

ধামইরহাট হাসপাতালে অবেহলায় যুবলীগ নেতার  মৃত্যু ॥ মানববন্ধন

নিজস্ব সংবাদদাতা, নওগাঁ ॥ নওগাঁর ধামইরহাট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে থানা যুবলীগের সহ-সভাপতি রবিউল ইসলামের চিকিৎসায় অবহেলায় মৃত্যুর জন্য দায়ী ব্যক্তিদের শাস্তির দাবিতে আজ রবিবার সকাল সাড়ে ১০টায় এক মানববন্ধন কর্মসূচী পালিত হয়েছে। ঘন্টাব্যাপী এ মানববন্ধন কর্মসূচী উপজেলা ক্যান্টিন চত্বরে অনুষ্ঠিত হয়। ধামইরহাট সচেতন যুবসমাজের আয়োজনে এ কর্মসূচী পালন করা হয়।

জানা গেছে, ধামইরহাট থানা আওয়ামী যুবলীগের সহ-সভাপতি ও থানা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক রবিউল ইসলাম (৪৫) গত ১০ আগস্ট রাত দেড়টার দিকে বুকে ব্যথা অনুভব করে তার অসহায় মা মাজেদা বেগমকে সঙ্গে নিয়ে রাতেই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরী বিভাগে আসেন। কিন্তু জরুরী বিভাগের কলাপসিবল গেট বন্ধ এবং চিকিৎসকসহ সংশ্লিষ্ট সকলে ঘুমিয়ে থাকায় ডাক্তার দেখার আগে তিনি মারা যান। পরবর্তীতে তার লাশ জরুরী বিভাগের সামনে মাটিতে খোলা আকাশের নিচে ফেলে রাখা হয়। বিষয়টি জানাজানি হলে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মী ও স্থানীয় জনগনের মাঝে ব্যাপক ক্ষোভ সৃষ্টি হয়। রবিউল ইসলাম ধামইরহাট পৌরসভার অন্তর্গত চকময়রাম গ্রামের মৃত ফয়েজ উদ্দিন মাস্টারের ছেলে। ওই দিনের ঘটনার সাথে জড়িতদের শাস্তির দাবিতে এদিন ধামইরহাট-নওগাঁ আঞ্চলিক মহাসড়কের উপজেলা ক্যান্টিন চত্ত্বরে এ মানববন্ধন অনুষ্টিত হয়। মানববন্ধন চলাকালে বক্তব্য রাখেন, থানা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ শহীদুল ইসলাম, চকময়রাম সরকারি মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এসএম খেলাল-ই-রব্বানী, নিহত রবিউল ইসলামে মা মাজেদা বেগম, থানা যুবলীগের সভাপতি জাবিদ হোসেন মৃদু, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান সোহেল রানা, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান এ্যাভোকেট আইয়ুব হোসেন, লুৎফর রহমান, রফিকুল ইসলাম, যুবনেতা আব্দুল হাই দুলাল, আবু ইউসুফ মুর্তজা রহমান, মেহেদী হাসান প্রমুখ।