২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

আমি প্রতিটি মুহূর্ত উপভোগ করি ॥ রোনাল্ডো

আমি প্রতিটি মুহূর্ত উপভোগ করি ॥ রোনাল্ডো

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ সুপারস্টাররা যাই বলেন না কেন সেটা বড় খবর। আর যদি হন ক্রিস্টিয়ানো রোনাল্ডোর মতো ক্রেজি তারকা, তাহলে তো কথাই নেই। জুভেন্টাসের পর্তুগীজ তারকা মঙ্গলবার বিভিন্ন বিষয়ে খোলামেলা কথা বলেছেন। সেখানে নিজের ক্যারিয়ার থামিয়ে দেয়া প্রসঙ্গেও বলেছেন। সেসব কথাতে তার খেলা আরও পাঁচ-সাত বছর চালিয়ে যাওয়ার স্পষ্ট আভাস পাওয়া গেছে। কিন্তু সিআর সেভেন এমনও বলেছেন, আগামী বছরই হয়তো শেষ হয়ে যেতে পারে ক্যারিয়ার! ব্যস, হয়ে গেল! রোনাল্ডোর এই কথাটাকেই বেশি প্রাধান্য দিচ্ছে সংবাদমাধ্যম। অথচ তিনি কিন্তু এমনও বলেছেন, ৪০ কিংবা ৪১ বছর বয়স পর্যন্ত খেলা চালিয়ে যেতে পারি।

বর্তমানে রোনাল্ডোর বয়স ৩৪ বছর। এই বয়সেও তার ফিটনেস অনেক তরুণ ফুটবলারের চেয়ে ভাল। নিজেকে ফিট রাখতে প্রতিনিয়ত পরিশ্রম করেন সুদর্শন এই সুপারস্টার। পর্তুগাল টেলিভিশনকে দেয়া সাক্ষাতকারে তিনি অনেক কথা বলেছেন। রোনাল্ডো বলেন, আমি কখনই অবসরের কথা ভাবি না। হয়তো আগামী বছরই (২০২০ সাল) আমি আবার ক্যারিয়ার শেষ করতে পারি। কিন্তু আমি ৪০-৪১ বছর পর্যন্তও খেলার যোগ্যতা রাখি। আমি জানি না আসলে কি হবে। আমি সবসময় বলি যে প্রতিটা মুহূর্ত উপভোগ করতে হবে। এটাই করে থাকি আমি, করে যেতে চাই।

অসংখ্য ব্যক্তিগত অর্জন ছাড়াও পাঁচটি চ্যাম্পিয়ন্স লীগ শিরোপা (৪টি রিয়াল মাদ্রিদ ও একটি ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের হয়ে), ৩টি প্রিমিয়ার লীগ শিরোপা, ২টি লা লিগা ও ১টি সিরি’এ শিরোপা জিতেছেন রোনাল্ডো। তবে এখনও শিরোপা ক্ষুধা কমেনি। জিততে চান আরও। সেই সঙ্গে নিজেকে সবার সেরাও দাবি করেছেন। সিআর সেভেন বলেন, পৃথিবীতে কি আর কোন ফুটবল খেলোয়াড় আমার চেয়ে বেশি রেকর্ড গড়েছে? আমার জানা নেই। আমার মনে হয় না বিশ্বে এমন কোন ফুটবলার আছে যে আমার চেয়ে বেশি রেকর্ড গড়েছে। কিছুদিন আগেই নিজেকে মেসির চেয়ে সেরা বলে দাবি করেছিলেন রোনাল্ডো। তখন বলেন, মেসির সঙ্গে আমার সবচেয়ে বড় পার্থক্য হলো আমি ভিন্ন ভিন্ন ক্লাবের হয়ে চ্যাম্পিয়ন্স লীগ জিতেছি। আমি চ্যাম্পিয়ন্স লীগের টানা ছয় মৌসুমে শীর্ষ গোলদাতা ছিলাম। তবে নিজেকে সেরা বললেও মেসির ভূয়সী প্রশংসা করে পর্তুগাল অধিনায়ক বলেন, মেসি অসাধারণ খেলোয়াড়। যাকে শুধু ব্যালন ডি’অর জেতার জন্য নয় বরং আমার মতোই বছরের পর বছর শীর্ষ পর্যায়ের খেলোয়াড় হিসেবে অবস্থান ধরে রাখার জন্যও মনে রাখা হবে।

রোনাল্ডো বলেন, আমি প্রতিদিন সকালে ঘুম থেকে জেগে উঠি অনেক স্বপ্ন নিয়ে। শুধু অর্থ আয় করতে হবে তা না। আমাকে আরও বেশি সাফল্য পেতে হলে বেশি বেশি অনুশীলন করতে হবে। ঈশ্বরকে ধন্যবাদ যে আমার অর্থের অভাব নেই। আমার চাওয়া ফুটবল ইতিহাসে স্থায়ী আসন। সেই পথেই হেঁটে চলেছেন সময়ের অন্যতম সেরা তারকা। তবে তাকেও থামতে হবে একসময়। কেননা সব শুরুরই শেষ আছে। আর তাই ফুটবল ক্যারিয়ারেরও ইতি টানতে হবে রোনাল্ডোকে। তবে সেটা কবে এ জন্য অপেক্ষা করা ছাড়া কোন উপায় নেই।