২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সংসদকে জৌলুসহীন বলায় তোপের মুখে বিএনপি এমপি সিরাজ

সংসদ রিপোর্টার ॥ জাতীয় সংসদে সোমবার পয়েন্ট অব অর্ডারে বিএনপির সংসদ সদস্যদের সঙ্গে বিরোধী দল জাতীয় পার্টির সংসদ সদস্যদের উত্তপ্ত বাহাস হয়েছে। শুভেচ্ছা বক্তব্যের নামে ফ্লোর নিয়ে বিএনপির নবনির্বাচিত এমপি গোলাম মোহাম্মদ সিরাজ রাজনৈতিক বক্তব্য দিয়ে বর্তমান সংসদকে ‘জৌলুসহীন’ আখ্যায়িত করলে প্রতিবাদে ফেটে পড়েন সরকার ও বিরোধী দলের সংসদ সদস্যরা।

জবাব দিতে গিয়ে জাপার সংসদ সদস্য পীর ফজলুর রহমান বলেন, যখন রাষ্ট্রপতি এইচ এম এরশাদের কাছ থেকে বিএনপি নেত্রী খালেদা মাত্র এক টাকা মূল্যে বিশাল বিশাল বাড়ি নিয়েছেন, তখন বিএনপির কাছে সংসদে জৌলুস ছিল।

স্পীকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে মাগরিবের নামাজের বিরতির পর সংসদ অধিবেশন শুরু হলে শুভেচ্ছা বক্তব্য দেয়ার জন্য ফ্লোর দেন বিএনপির নবনির্বাচিত সংসদ সদস্য গোলাম মোহাম্মদ সিরাজকে।

শুভেচ্ছা বক্তব্যের পরিবর্তে রাজনৈতিক বক্তব্য দিতে গিয়ে বিএনপির এই এমপি বলেন, জনগণের প্রত্যক্ষ ভোটে নির্বাচিত হয়ে সংসদে এসেছি। মিথ্যা ও সাজানো মামলায় বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া আজ কারাবন্দী। গত ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচনে আওয়ামী লীগ জিতেছে, কিন্তু আমরা (বিএনপি) হারেনি। হেরেছে দেশের ১৬ কোটি জনগণ। তিনি বলেন, আগের মতো বর্তমান সংসদে কোন জৌলুস নেই। বিরোধী দলের নেতাকে নিয়ে শোক প্রস্তাবের আলোচনায় কোন জৌলুস দেখলাম না। এ সময় সরকার ও বিরোধী দলের সংসদ সদস্যরা ক্ষোভে ফেটে পড়েন। প্রতিবাদের মুখে সিরাজ বলেন, দেশের মানুষ আজ কারাবন্দী খালেদা জিয়ার মুক্তি চায়। শুভেচ্ছা বক্তব্যের সুযোগ নিয়ে রাজনৈতিক বক্তব্য প্রদান অব্যাহত রাখলে স্পীকার নির্ধারিত সময় শেষে তাঁর ফ্লোর বন্ধ করে দেন।

বিরোধী দল জাতীয় পার্টির পীর ফজলুর রহমান পয়েন্ট অব অর্ডারে ফ্লোর নিয়ে বিএনপির এমপি গোলাম মোহাম্মদ সিরাজের বক্তব্যের সমালোচনা করে বলেন, উনি (সিরাজ) প্রয়াত রাষ্ট্রপতি এইচ এম এরশাদের শোক প্রস্তাবের ওপর আলোচনায় জৌলুস দেখেন না। কিন্তু যখন রাষ্ট্রপতি এরশাদ সাহেবের কাছ থেকে এক টাকা মূল্যে খালেদা জিয়া বিশাল বিশাল বাড়ি নিয়েছিলেন, তখন জৌলুস দেখেছেন। তিনি বলেন, বিভিন্ন খাতে কিছু দুর্নীতি সরকারের বিশাল অর্জনকে ম্লান করে দিচ্ছে। বালিশ-পর্দা কেলেঙ্কারির ঘটনা মানুষের মুখে মুখে। এসব প্রাতিষ্ঠানিক দুর্নীতি সিনিয়র সংসদ সদস্যদের নিয়ে একটি কমিটি গঠন করে ঘটনার তদন্ত করে ব্যবস্থা নিন।