১৮ নভেম্বর ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

১০ জনের দল নিয়েও দুর্দান্ত জার্মানি

১০ জনের দল নিয়েও দুর্দান্ত জার্মানি

অনলাইন ডেস্ক ॥ ম্যাচের শুরুর দিকে ১০ জনের দলে পরিণত হওয়া জার্মানিকে প্রথমার্ধে ধুঁকতে দেখা গেছে। তবে দ্বিতীয়ার্ধে পাল্টে যায় চিত্র। একের পর এক আক্রমণে এস্তোনিয়াকে কোণঠাসা করে বড় জয় তুলে নিয়েছে ইওয়াখিম লুভের দল।

প্রতিপক্ষের মাঠে রবিবার রাতে ইউরো বাছাইয়ের ‘সি’ গ্রুপের ম্যাচটি ৩-০ গোলে জিতেছে তিনবারের ইউরোপ চ্যাম্পিয়নরা। জোড়া গোল করেন ইলকাই গিনদোয়ান, শেষটি টিমো ভেরনারের।

জার্মানির ম্যাচের শুরুটা হয় বড্ড বাজে। চতুর্দশ মিনিটে নিজেদের ডি-বক্সের বাইরে বল ক্লিয়ার করতে গিয়ে সময়ক্ষেপন করেন এমরে কান। শেষ মুহূর্তে স্লাইড করতে গিয়ে মিস করেন বল, ফাউল করে বসেন প্রতিপক্ষের ফরোয়ার্ড ফ্রাঙ্ক লিভাককে। জুভেন্টাস মিডফিল্ডার কানকে সরাসরি লাল কার্ড দেখান রেফারি।

এক জন কম নিয়ে ভুগলেও বিরতির আগে এগিয়ে যেতে পারতো জার্মানি; তবে মার্কো রয়েসের ফ্রি-কিক লাগে ক্রসবারে।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে ছয় মিনিটের ব্যবধানে দু্ই গোল আদায় করে নেয় অতিথিরা।

৫১তম মিনিটে কাই হাভার্টসের শট এক জনের পায়ে লেগে বল চলে যায় গিনদোয়ানের পায়ে। ডান পায়ের জোরালো শটে ঠিকানা খুঁজে নেন ম্যানচেস্টার সিটির এই মিডফিল্ডার।

দ্বিতীয় গোলটিতে ছিল সৌভাগ্যের ছোঁয়া। মার্কো রয়েসের ব্যাকহিলে বল পেয়ে জোরালো শট নেন গিনদোয়ান। প্রতিপক্ষের এক জনের পায়ে লেগে বল দিক পাল্টে জালে জড়ায়।

৭১তম মিনিটে ব্যবধান আরও বাড়িয়ে ম্যাচ নিয়ন্ত্রণে নেয় জার্মানি। ডান দিক থেকে গিনদোয়ানের ডি-বক্সে উঁচু করে বাড়ানো বল বুক দিয়ে নামিয়ে একজনকে কাটিয়ে কোনাকনি শটে গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন লাইপজিগের ফরোয়ার্ড ভেরনার।

ছয় ম্যাচে পাঁচ জয়ে ১৫ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে আছে জার্মানি।

দিনের অন্য ম্যাচে বেলারুশকে ২-১ গোলে হারানো নেদারল্যান্ডসের পয়েন্টও ১৫। মুখোমুখি লড়াইয়ে এগিয়ে শীর্ষে আছে ডাচরা।

১২ পয়েন্ট নিয়ে তৃতীয় স্থানে থাকা নর্দার্ন আয়ারল্যান্ডও মূল পর্বে ওঠার লড়াইয়ে আছে বেশ ভালোমতোই।

‘আই’ গ্রুপ থেকে আগেই ইউরোর মূল পর্ব নিশ্চিত করা বেলজিয়াম জয়ের ধারা ধরে রেখেছে। কাজাখস্তানকে ২-০ গোলে হারিয়ে আট ম্যাচে ২৪ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে রাশিয়া বিশ্বকাপের সেমি-ফাইনালিস্টরা।

সাইপ্রাসকে ৫-০ গোলে উড়িয়ে মূল পর্বের টিকেট নিশ্চিত করেছে রাশিয়া, তাদের পয়েন্ট ২১। তিন নম্বরে থাকা সাইপ্রাসের পয়েন্ট ১০।