১৬ নভেম্বর ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ভোলায় এবার পুলিশ সুপারের আইডি হ্যাক

ভোলায় এবার পুলিশ সুপারের আইডি হ্যাক

নিজস্ব সংবাদদাতা, ভোলা ॥ ভোলায় সংখ্যালঘু এক যুবকের আইডি হ্যাকসহ আপত্তিকর ম্যানেজ নিয়ে সংর্ঘষে ৪ জন নিহতের ঘটনার জের না কাটতেই এবার ভোলা পুলিশ সুপার সরকার মোহাম্মদ কায়সারের ব্যাক্তিগত ফেসবুক হ্যাক করা হয়েছে। এ ঘটনায় ভোলা থানায় একটি জিডি করা হয়েছে। এদিকে বোরহানউদ্দিনে সংর্ঘষ, হামলা ও পুলিতে ৪ জন নিহতের ঘটনায় প্রশাসনের পক্ষ থেকে ৩ সদস্যের তদন্ত কমিটি কাজ শুরু করেছে। অন্যদিকে আজ মঙ্গলবার বিকালে সর্ব দলীয় মুসলিশ ঐক্যজোটের আহবানে বিক্ষোভ মিছিলের কর্মসূচীকে কেন্দ্র করে আইনশৃংখলা নিয়ন্ত্রনে শহরে অতিরিক্ত পুলিশ, র‌্যাব, বিজিবি মোতায়ন করা হয়েছে। এছাড়া আওয়ামীলীগ ও অঙ্গসংগঠন বিএনপি জামায়াত শিবিরের নাশকতা ও ষড়যন্ত্র মোকাবেলায় রাজপথে অবস্থান নেয়। শহর জুড়ে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে।

ভোলা মডেল থানার ওসি এনায়েত হোসেন জানান, ভোলা পুলিশ সুপার সরকার মোহাম্মদ কায়সার এর ব্যাক্তিগত ফেসবুক একাউন্ট ‘sorkar kaysar’ আজ মঙ্গলবার সকালে হ্যাক হয়। তার একাউন্টে টি ফেসবুকে দেখা যাচ্ছে না। এঘটনায় আজ ৮ টা ৩৫ মিনিটে ভোলা থানায় পুলিশ সুপার নিজে বাদী হয়ে একটি জিডি করেছেন। জিডি নং ৯৯৩। এ ব্যাপারে তদন্ত সাপেক্ষ কারা আইড হ্যাক করেছে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। অন্যদিকে পরিস্তিতি নিয়ন্ত্রনে ভোলায় প্রায় ৪ শত পুলিশ সদস্য প্রস্তুত রয়েছে।

তদন্ত কমিটির প্রধান জেলা প্রশাসনের স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ পরিচালক মাহামুদুর রহমান জানিয়েছে, ৩ দিনের যে সময় দিয়েছে। চেষ্টা করবো ৩ দিনের মধ্যে চেষ্টা করবো রির্পোট দিতে। যদি না হয় আমরা সময় বাড়ানোর আবেদন করবো।

বেলা সাড়ে ১১টা থেকে ভোলা বাংলা স্কুল মোড়ে আওয়ামী লীগ কার্যালয়ের সামনে প্রচুর সংখ্যক নেতাকর্মী অবস্থান নিয়েছে। ভোলা জেলা আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক ও ইউপি চেয়ারম্যান ইয়ানুর রহমান বিপ্লব মোল্লা জানান, আওয়ামীলীগ ও অঙ্গসংগঠন বিএনপি জামায়াত শিবিরের নাশকতা ও ষড়যন্ত্র মোকাবেলায় জেলা আওয়ামী লীগ অফিস ও গুরুত্বপূর্ন স্থানে অবস্থান নেয়। যাতে কোন নাশকতা ঘটনা না ঘটে।