০৬ ডিসেম্বর ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

নিয়ন্ত্রণের বাইরে দাবানল

  • অস্ট্রেলিয়ায় ৬ শতাধিক স্কুল বন্ধ ঘোষণা, জরুরী অবস্থা জারি

ভয়াবহ দাবানলে পুড়ছে অস্ট্রেলিয়ার নিউ সাউথ ওয়েলস। রাজ্যজুড়ে ৬০টিরও বেশি দাবানল জ্বলছে। যার মধ্যে অধিকাংশই নিয়ন্ত্রণের বাইরে। দাবানল ছড়িয়ে পড়েছে প্রতিবেশী কুইন্সল্যান্ডেও। এরই মধ্যে রাজ্যদুটিতে জরুরী অবস্থা জারি করা হয়েছে। বিবিসি।

জনবহুল শহর সিডনিসহ নিউ সাউথ ওয়েলসের ৬ শতাধিক স্কুল বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। বাড়ি ছাড়তে বাধ্য হয়েছে প্রায় ৬০ লাখ মানুষ। বিভিন্ন এলাকার মানুষদের নিরাপদে সরে যাওয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। অত্যাধিক তাপমাত্রা ও বাতাসের কারণে দাবানল আরও বাড়বে বলে জানিয়েছে দেশটির আবহাওয়া অধিদফতর। হুমকির মুখে রয়েছে গ্রেটার সিডনি, গ্রেটার হানটার, ইলাওয়ারা ও শোলহেইভেন অঞ্চল। এ যাবতকালের সবচেয়ে ভয়াবহ দাবানলের মুখোমুখি হয়েছে নিউ সাউথ ওয়েলস। দাবানল নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে তিন হাজার দমকল কর্মী। তবে বাতাসের তীব্রতা বেশি থাকায় বেশ বেগ পোহাতে হচ্ছে তাদের। কয়েকটি দাবানল জ্বলছে অস্ট্রেলিয়ার দক্ষিণাঞ্চলেও। আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে ওই দুই রাজ্যজুড়ে এক হাজার ৩০০ দমকল কর্মী কাজ করছে। পরিস্থিতি মোকাবেলায় কয়েক শ’ বেসামরিক নাগরিকও স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে কাজ করছে। বিমান থেকে ওয়াটার বোম ফেলে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করছেন দমকল কর্মীরা। তবে বাতাসের তীব্রতা বেশি থাকায় বেশ বেগ পোহাতে হচ্ছে তাদের। স্থানীয় বাসিন্দাদের নিরাপদ আশ্রয়ে যেতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে স্কুল-কলেজসহ সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। দাবানলের ঘটনায় পাশের রাজ্যগুলোর সহযোগিতা চেয়েছেন স্কট মরিসন। দেশবাসীকে আতঙ্কিত না হতে তিনি অনুরোধ করেছেন। মঙ্গলবার দেশটির পূর্ব উপকূলের বিস্তীর্ণ অঞ্চলসহ সিডনিতে দাবানল ছড়িয়ে পড়ায় ১০ হাজার মানুষ মঙ্গলবার নিরাপদ স্থানে সরে যায়। কর্মকর্তারা নিউ সাউথ ওয়েলসে ১১টি জরুরী সতর্কতা জারি করেন। রাজ্যজুড়ে ৭১টি দাবানল নিয়ন্ত্রণহীনভাবে ছড়িয়ে পড়েছে। নিউ সাউথ ওয়েলস পল্লী ফায়ার সার্ভিসের কমিশনার শেন ফিটৎসিম্মন্স সাংবাদিকদের জানান, ওই এলাকায় অস্থিরতা বিরাজ করছে, নিরাপদ স্থানে বাসিন্দাদের নেয়া ছাড়া আর কিছুই করার নেই আমাদের। এই অঞ্চলে প্রায় ৬০ লাখ মানুষ বাস করেন। তাপমাত্রা বৃদ্ধি ও তীব্র বাতাস শক্তিশালী হওয়ার কারণে পরিস্থিতির আরও অবনতি হচ্ছে। এ অবস্থায় ৩ জন প্রাণ হারিয়েছেন এবং দেড় শতাধিক বাড়িঘর ধ্বংস হয়েছে। সিডনির উত্তরের শহর ওয়াচোপে দাবানলের ভয়াবহতায় বাসিন্দাসহ কয়েক শতাধিক পশু সরিয়ে নেয়া হয়েছে। স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষ শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যা রয়েছে এমন লোকদের বাড়িতে থাকার জন্য অনুরোধ করেছে।

নির্বাচিত সংবাদ