১৪ ডিসেম্বর ২০১৯  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

কাপাসিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় বাবা-মেয়েসহ নিহত ৩

কাপাসিয়ায় সড়ক দুর্ঘটনায় বাবা-মেয়েসহ নিহত ৩

স্টাফ রিপোর্টার, গাজীপুর ॥ গাজীপুরের কাপাসিয়ায় বৃহস্পতিবার বিকালে সিএনজি চালিত অটোরিক্সা ও যাত্রীবাহী বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে ঘটনাস্থলেই বাবা ও মেয়ে এবং এক কৃষি কর্মকর্তা নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় একই পরিবারের মা ও তার বড় মেয়ে গুরুতর আহত হয়েছে। তবে অক্ষত অবস্থায় প্রাণে রক্ষা পায় ওই পরিবারের ৭ মাস বয়সের শিশু রীমা। হতাহতরা সবাই অটোরিক্সার আরোহী ছিলেন।

নিহতরা হলো- কাপাসিয়া উপজেলার টোক ইউনিয়নের আড়ালিয়া গ্রামের ফরিদ মিয়ার ছেলে সোহেল (৫০), তার মেঝো মেয়ে রুমা (০৫) ও কাপাসিয়া উপজেলা কৃষি অফিসের উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা মাজহারুল ইসলাম (৩০)। নিহত মাজহারুল তরগাঁও গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা মোসলেহ উদ্দিনের ছেলে।

কাপাসিয়া থানার ওসি রফিকুল ইসলাম ও স্থানীয়রা জানান, কাপাসিয়ার টোক বাজার থেকে সিএনজি চালিত একটি অটোরিক্সায় চড়ে সোহেল (৫০) তার স্ত্রী নাজমা (৪৫) এবং তিন মেয়ে সুমা (২০), রুমা (০৫) ও রীমা (৭মাস) কাপাসিয়া সদরের দিকে যাচ্ছিলেন। একই অটোরিক্সার আরোহী ছিলেন মাজহারুল ইসলাম (৩০)। পথে তারা কাপাসিয়া-টোক-কিশোরগঞ্জ সড়কের বীরউজুলী দীঘিরপাড় এলাকায় পৌঁছলে বিপরীত দিক থেকে আসা জলসিড়ি পরিবহণের দ্রুতগতির একটি যাত্রীবাহী বাসের সঙ্গে অটোরিক্সাটির মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে অটোরিক্সাটি দুমড়ে মুচড়ে সড়কের পাশে পড়ে যায়। স্থানীয়রা অটোরিক্সার আরোহী ৫জনকে উদ্ধার করে কাপাসিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মাজহারুল ইসলাম, সোহেল ও সোহেলের মেয়ে রুমাকে মৃত ঘোষণা করেন। পরে সেখান থেকে গুরুতর আহতাবস্থায় সোহেলের স্ত্রী নাজমা ও তাদের মেয়ে সুমাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। তবে এঘটনায় সোহেলের ৭ মাস বয়সের শিশু সন্তান রীমা অক্ষত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে দূর্ঘটনা কবলিত গাড়ি দু’টি জব্দ করেছে। তবে দূর্ঘটনার পরপরই গাড়ি দু’টির চালকরা পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়েছে।